সান্তা লুসিয়ায় ‘বিটকয়েন ভ্যালি’ চালু করল হন্ডুরাস

রাজধানী টেগুসিগালপা থেকে পাহাড়ে অবস্থিত ছোট এই শহরে যেতে মাত্র ২০ মিনিট সময় লাগে, যা এরইমধ্যে বিটকয়েনের শহর হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে।

প্রযুক্তি ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 July 2022, 11:46 AM
Updated : 30 July 2022, 11:46 AM

নিজেদের পর্যটকমুখর অঞ্চল সান্তা লুসিয়ায় ‘বিটকয়েন ভ্যালি’ নামে একটি নতুন প্রকল্প চালু করেছে হন্ডুরাস, যার মাধ্যমে ডিজিটাল মুদ্রার চলমান রেওয়াজে প্রবেশ করেছে মধ্য আমেরিকার দেশটি।

রাজধানী টেগুসিগালপা থেকে পাহাড়ে অবস্থিত ছোট এই শহরে যেতে মাত্র ২০ মিনিট সময় লাগে, যা এরইমধ্যে বিটকয়েনের শহর হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে।

সান্তা লুসিয়ায় তুলনামূলক বেশি পর্যটক আকৃষ্ট করার প্রত্যাশায় সেখানকার বড় ও ছোট আকারের ব্যবসায়ীরা ক্রিপ্টোমুদ্রাকে অর্থ পরিশোধের মাধ্যম হিসেবে গ্রহনের অভ্যাস করছেন বলে প্রতিবেদনে লিখেছে রয়টার্স।

“এটি আরও সুযোগ এনে দেবে এবং এই মুদ্রাটি ব্যবহার করতে চান এমন লোকজনকে আরও বেশি আকৃষ্ট করবে।” --বলেছেন লস রবলস শপিং স্কয়ারের ব্যবস্থাপক সেসার আন্দিনো।

বিটকয়েন ভ্যালি প্রাথমিকভাবে নজর দিচ্ছে ৬০ ধরনের ব্যবসার ওপর, যেখানে নিজস্ব পণ্য ও সেবা বাজারে আনতে ব্যবসায়ীদেরকে ক্রিপ্টোমুদ্রায় মানিয়ে নেওয়ার প্রশিক্ষণ দিচ্ছে প্রকল্পটি। পাশাপাশি, এই সব অভ্যেস আরও বেশি উদ্যোক্তা ও কাছাকাছি এলাকায় ছড়িয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে দেশটি।

এই উদ্যোগে যৌথ সহায়তা দিয়েছে ‘ব্লকচেইন হন্ডুরাস’, ‘দ্য গুয়াতেমালান ক্রিপ্টোকারেন্সি এক্সচেঞ্জ কনসোর্টিয়াম’, ‘কয়েনস্যাক্স’, ‘দ্য টেকনোলজিকাল ইউনিভার্সিটি অফ হন্ডুরাস’ এবং সান্টা লুসিয়ার পৌর কর্তৃপক্ষ।

“সান্তা লুসিয়ার লোকজনকে ক্রিপ্টোমুদ্রা ব্যবহার ও পরিচালনার শিক্ষা দেওয়ার পাশাপাশি সেগুলো অঞ্চলটির বিভিন্ন ব্যবসায় প্রয়োগ ও ক্রিপ্টো পর্যটনের জন্য তৈরি হবে।” --বলেছেন ‘টেকনোলজিকাল ইউনিভার্সিটি’র অধ্যাপক রুবেন কারবাজাল ভেলাজকেজ।

বেশ কয়েকটি লাতিন আমেরিকান দেশ ক্রিপ্টোমুদ্রার সম্ভাবনা নিয়ে কাজ করলেও, সেখানে ঝুঁকিও রয়েছে।

২০২১ সালের সেপ্টেম্বরে বিটকয়েনকে আনুষ্ঠানিক মুদ্রা হিসাবে গ্রহণ করেছে এল সালভাদর। পাশাপাশি, বিটকয়েনের কারণে সার্ফিংয়ের জন্য জনপ্রিয় শহর এল সন্তের সাগরতীর এখন পরিচিত ‘বিটকয়েন বিচ’ নামে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক