কেবল সরকারই এআইয়ের ঝুঁকি ঠেকাতে পারে: ঋষি সুনাক

আয়োজনের অতিথি তালিকায় আছেন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস ও গুগল ডিপমাইন্ডের সিইও ডেমিস হাসাবিস। তবে চীনের কোনো প্রতিনিধি যোগ দেওয়ার নিশ্চয়তা মেলেনি।

প্রযুক্তি ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 27 Oct 2023, 06:08 AM
Updated : 27 Oct 2023, 06:08 AM

কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা প্রযুক্তির সম্ভাব্য ঝুঁকি ঠেকানোর সক্ষমতা আছে কেবল বিভিন্ন দেশের সরকারের --এমনই বলছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ঋষি সুনাক।

এআই প্রযুক্তির ঝুঁকি নিয়ে কথা বলতে আগামী সপ্তাহে ‘এআই সেইফটি সামিট’ নামের বৈশ্বিক সম্মেলন আয়োজন করছে যুক্তরাজ্য। আর আয়োজনটির আগ মূহুর্তেই এমন বক্তব্য দিলেন সুনাক।

তিনি আরও বলেন, এ আয়োজনে অংশ নিতে যাওয়া দেশগুলো এআই প্রযুক্তির সম্ভাব্য ঝুঁকিগুলো নিয়ে একমত হওয়ার পাশাপাশি একটি বৈশ্বিক প্যানেল গঠন করতে পারে।

“নতুন এআই প্রযুক্তির খুঁটিনাটি পরীক্ষার জন্য একটি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা সুরক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলবে যুক্তরাজ্য, যেখানে এর ভুল তথ্য থেকে শুরু করে সবচেয়ে প্রতিকূল ঝুঁকিগুলো নিয়েও গবেষণা চালানো হবে।” --বলেন সুনাক।

১-২ নভেম্বর হতে যাওয়া এই আয়োজনটি হবে দক্ষিণ ইংল্যান্ডের ‘ব্লেচলি পার্ক’, যেখানে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে যুক্তরাজ্যের ‘কোড ব্রেকাররা’ কাজ করেছেন। পাশাপাশি, বিভিন্ন এআই কোম্পানির মুখপাত্র, রাজনৈতিক নেতা ও বিশেষজ্ঞরাও উপস্থিত থাকবেন এ আয়োজনে।

“এআইকে ভুলভাবে ব্যবহার করে আগের চেয়ে সহজভাবে রাসায়নিক বা জৈবিক অস্ত্র তৈরির ঝুঁকি রয়েছে।” --বলেন সুনাক।

“এমনকি মানুষ এই প্রযুক্তির নিয়ন্ত্রণ পুরোপুরি হারিয়ে ফেলতে পারে, সে ঝুঁকিও আছে।”

সুনাকের আশা, এআই সুরক্ষার ক্ষেত্রে বিশ্বের নেতৃস্থানীয় দেশ হবে যুক্তরাজ্য।

আগামী সপ্তাহের বৈঠকে থাকতে পারে প্রায় একশ অংশগ্রহণকারী, যারা এআই প্রযুক্তির হঠাৎ উত্থান নিয়ে কথা বলার পাশাপাশি এতে মানুষের নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলার ঝুঁকি আছে কি না, সেইসব বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে।

সুনাক বলেন, চীনকে আমন্ত্রণ জানালেও তাদের কোনো প্রতিনিধি আয়োজনে আসবেন কি না, তার কোনো নিশ্চয়তা নেই।

আয়োজনের অতিথি তালিকায় আরও আছেন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস ও গুগল ডিপমাইন্ডের সিইও ডেমিস হাসাবিস।