এক দিনমজুরকে হত্যায় ছেলের ফাঁসি, স্ত্রীসহ আরেক ছেলের যাবজ্জীবন

দ্বিতীয় বিয়ে করায় প্রথম স্ত্রী ও দুই ছেলে দিনমজুর মালেক শেখকে হত্যা করে।

ফরিদপুর প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 Jan 2023, 01:35 PM
Updated : 18 Jan 2023, 01:35 PM

ফরিদপুরে এক ব্যক্তিকে হত্যার দায়ে তার এক ছেলের মৃত্যুদণ্ড হয়েছে; আরেক ছেলে ও স্ত্রীর হয়েছে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড। 

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী সানোয়ার হোসেন জানান, ঘটনার আট বছর পর বুধবার ফরিদপুরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ শিহাবুল ইসলাম আসামিদের উপস্থিতিতে এ রায় দেন।

মৃত্যুদণ্ডে দণ্ডিত হয়েছেন মালেক শেখের ছেলে আনোয়ার হোসেন আরাফাত (২৮)। যাবজ্জীবন দণ্ডিতরা হলেন মালেক শেখের স্ত্রী রিজিয়া বেগম লিলি (৫২) এবং আরেক ছেলে সাকিল সামি (২৫)। 

মামলার বরাতে আইনজীবী সানোয়ার হোসেন জানান, ফরিদপুর সদর উপজেলার কৈজুরী ইউনিয়নের বেতবাড়িয়া গ্রামের দিনমজুর মালেক শেখ ২০১৪ সালের ১১ অক্টোবর রাতে নিজ বাড়িতে খুন হন। এ ঘটনায় নিহতের ভাই খালেক শেখ বাদী হয়ে কোতোয়ালি থানায় ৩/৪ জন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিকে আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করেন।

সানোয়ার বলেন, তদন্তকালে পুলিশ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে নিহতের স্ত্রী ও বড় ছেলে আনোয়ার হোসেন আরাফাতকে গ্রেপ্তার করে। পরে আনোয়ার হোসেন আরাফাত আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

“প্রথম স্ত্রী থাকা সত্ত্বেও দ্বিতীয় বিয়ে করায় মা ও ভাইয়ের সহযোগিতায় আনোয়ার তার বাবাকে কুপিয়ে হত্যা করেন বলে স্বীকারোক্তি দেন।”  

পিপি সানোয়ার জানান, বিচারক নিহতের বড় ছেলে আনোয়ার হোসেন ওরফে আরাফাতকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করার আদেশ দেন। একই সঙ্গে নিহতের প্রথম স্ত্রী রিজিয়া বেগম লিলি ও ছোট ছেলে সাকিল সামিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন; যা অনাদায়ে আরও ২ বছরের কারাদণ্ড দেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক