বিএনপি যতই হুমকি দিক, ঢাকা বিচ্ছিন্ন করতে পারবে না: কৃষিমন্ত্রী

মন্ত্রী বলেন, “আমরাও রাজনৈতিক দল হিসেবে নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করব না।”

টাঙ্গাইল প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 26 Oct 2023, 08:58 AM
Updated : 26 Oct 2023, 08:58 AM

বিএনপি ২৮ অক্টোবর ঢাকাকে বিচ্ছিন্ন করবে-অস্থিতিশীলতা সৃষ্টি করবে বলে যতই হুমকি দিক, তারা তা করতে পারবে না বলে মনে করেন কৃষিমন্ত্রী মো. আব্দুর রাজ্জাক।

তিনি বলেছেন, “বিএনপি যতই হুমকি দিক, তারা দেশটাকে অচল করবে, দেশকে ঢাকা থেকে বিচ্ছিন্ন করবে, দেশে একটা অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করবে, আমি মনে করি তারা পারবে না। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী খুব দক্ষ ও সুশৃঙ্খল।

“আমরাও রাজনৈতিক দল হিসেবে নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করব না। আমাদেরও দায়িত্ব তাদের যে হুমকি রাজনৈতিকভাবে তা মোকাবেলা করার।”

বৃহস্পতিবার দুপুরে মধুপুর উপজেলা অডিটোরিয়ামের হলরুমে এক কর্মশালায় গিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, “বিএনপি যদি সন্ত্রাসের দিকে যায়, তারা যদি আক্রমণাত্মক হয়, দেশকে অস্থিতিশীল করার জন্য তারা যদি গাড়িতে আগুন দেয়, বিদ্যুতের লাইন কাটে- এ দেশের মানুষ তার জবাব দিবে।”

তিনি বলেন, “বিএনপির পায়ের নিচে মাটি নেই। তারা ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় থেকে দেশটাকে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গিয়েছিল অর্থনৈতিকভাবে। গণতন্ত্র ছিল বিপন্ন।

“বিএনপির শাসনামলে দেশে দুর্ভিক্ষ দেখা দিয়েছিল। তারা সার দিতে পারেনি। সার চাইতে গিয়ে মানুষকে জীবন দিতে হয়েছে। ১৮ জন কৃষককে তারা গুলি করে হত্যা করেছে।”

বিএনপি চায় বাংলাদেশ বিদেশিদের উপর নির্ভরশীল হোক মন্তব্য করে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আব্দুর রাজ্জাক বলেন, “রাজনৈতিক অস্থিরতা সৃষ্টি করতে বিএনপি আবারও দেশকে সন্ত্রাসের দিকে নিবে, আবার ৬০০ জায়গায় বোমা ফোটাবে।

“তাদের প্রভু হচ্ছে পাকিস্তান। তারা পাকিস্তানের উচ্ছিষ্ট খেয়েছে, পাকিস্তানের পা চেটেছে, ধর্মের নামে মানুষকে শোষণ করেছে, বাংলাদেশের সম্পদ পাকিস্তানে পাচার করেছে। তারা আবার সেই পথে যেতে চায়। এ জন্য তাদের লক্ষ্য নির্বাচন বানচাল করা।”

মন্ত্রী আরও বলেন, “বাংলাদেশ সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে, ভবিষ্যতেও যাবে। এটি মানবতার দেশ। এই দেশে সাম্প্রদায়িকতার কোনো জায়গা নেই। ধর্ম নিরপেক্ষতাই আমাদের আদর্শ। ”

ঢাকা ও ময়মনসিংহ বিভাগের বিভিন্ন অঞ্চলে তেল ফসল ও ধানের উৎপাদন বৃদ্ধিতে করণীয় নিয়ে কৃষি মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে এই কর্মশালায় মন্ত্রণালয়ের সচিব ওয়াহিদা আক্তারের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খলিদ, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জোয়াহেরুল ইসলাম, বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের নির্বাহী চেয়ারম্যান শেখ মোহাম্মদ বখতিয়ার।