বিএনপিই নিষেধাজ্ঞা পাওয়ার যোগ্যতা অর্জন করেছে: কাদের

কাদের বলেন জ্বালাও-পোড়াও নাশকতার জন্য বিএনপি ও দোসররা মার্কিন নিষেধাজ্ঞার 'যোগ্যতা অর্জন করেছে'।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 8 Dec 2023, 08:40 AM
Updated : 8 Dec 2023, 08:40 AM

বাংলাদেশে সুষ্ঠু নির্বাচনে যারা বাধা দিবে, তাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হতে পারে বলে হুঁশিয়ারি দিয়ে রেখেছে যুক্তরাষ্ট্র। সেই যুক্তিতে বিএনপিই নিষেধাজ্ঞা পাওয়ার যোগ্যতা অর্জন করেছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। 

শুক্রবার দুপুরে রাজধানীর ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, সরকার কোনো ধরনের নিষেধাজ্ঞায় উদ্বিগ্ন নয়।

তিনি বলেন, "আমরা আমাদের সংবিধান মেনে স্বাধীন নির্বাচন কমিশনার অধীনে একটা শান্তিপূর্ণ অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি। এখানে নিষেধাজ্ঞা আসবে কেন? নিষেধাজ্ঞা এখন কম্বোডিয়ায় দিয়েছে, এটা তাদের ব্যাপার, কেন দিয়েছে। নিষেধাজ্ঞা এলে এখানে বিএনপির বিরুদ্ধে আসবে, যারা নির্বাচনে বাধা দিচ্ছে। 

"আমেরিকা তো বলছে, যারা সুষ্ঠু নির্বাচনে বাধা দিবে তাদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আসবে। সেটা হচ্ছে না কেন? তারা নাশকতা করছে, গাড়ি জ্বালাচ্ছে, ট্রেন পোড়াচ্ছে, মানুষ মারছে। এটাই তো সুষ্ঠু-অবাধ নির্বাচনের বিরোধিতা। যুক্তরাষ্ট্র যদি নিষেধাজ্ঞা দিতে চায়, সেটার জন্য শুধু বিএনপি ও তাদের দোসররাই যোগ্যতা অর্জন করেছে।"

ওবায়দুল কাদের বলেছেন, অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনের জন্য নির্বাচন কমিশনকে সব ব্যাপারে সহযোগিতা করতে চায় ক্ষমতাসীন দল।

তিনি বলেন, "প্রধানমন্ত্রী পুরোপুরি আচরণবিধি মেনে ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে নির্বাচনি এলাকায় গেছেন। নির্বাচনকে প্রভাবমুক্ত করতে ডিসি ও ওসিদের বদলি করা হচ্ছে। আচরণবিধি লঙ্ঘনের কারণে নির্বাচন কমিশন থেকে আমাদের অনেক এমপি-মন্ত্রী কারণ দর্শানোর নোটিশ পেয়েছে, যা বিরল।“

জনগণ আজ নির্বাচনমুখী দাবি করে কাদের বলেন, "ইসি স্বাধীন। কোনো বাধা-বিপত্তি, হুমকি,  নাশকতা, সন্ত্রাস এ নির্বাচনী অনুষ্ঠানে বাধা হতে পারে না। কারণ এদেশের নির্বাচনমুখী ভোটাররা যেকোনো উপায়ে নির্বাচন অনুষ্ঠানে বদ্ধপরিকর। এতে যারা বাধা দিবে, কার্যক্রমের বিপত্তি সৃষ্টি করবে, তাদেরকে দেশের ভোটাররাই প্রতিহত করবে।“

জাতীয় পার্টি  দেশের প্রধান বিরোধী দল হয়ে উঠতে পেরেছে কীনা প্রশ্নে কাদের বলেন, "এটা জাতীয় পাটিকে জিজ্ঞাসা করুন। তারা কি ভূমিকা রাখতে চায়। আমাদের সাথে বসলে আমরা তাদের নীতি আদর্শ নিয়ে কথা বলি না।"

স্বতন্ত্র প্রার্থী না থাকলে নির্বাচন প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক হবে কীনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, "১৭ তারিখের আগে এ ব্যাপারে মন্তব্য না করাই ভালো। স্বতন্ত্র প্রার্থীরা নির্বাচনে জেতার জন্য আওয়ামী লীগ প্রার্থীর বিরুদ্ধে কথা বলবে। পাবলিকের সাপোর্ট নেওয়ার জন্য তো বিরুদ্ধে কথা বলবে।"

'পোশাক খাত নিয়ে পানি ঘোলা করার কারণ নেই'

সাংবাদ সম্মেলনে পোশাক খাত নিয়ে প্রশ্নে উঠলে কাদের বলেন, "গার্মেন্ট সেক্টর নিয়ে নানা ষড়যন্ত্র চলছে। নিজেদের বাণিজ্যিক স্বার্থে একটি মহলের শ্রমিকদের ব্যবহারের একটা পাঁয়তারা আছে। আমাদের অর্থনৈতিক স্বার্থে গার্মেন্টসের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ রাখতে হবে।

"প্রধানমন্ত্রী গার্মেন্ট সেক্টরের শ্রমিকদের বেতন বাড়িয়েছে। এই সেক্টরের উন্নয়নে, শ্রমিকদের স্বার্থ সংরক্ষণে আরো কিছু করার ব্যাপারেও সরকার অত্যন্ত যত্নশীল। কাজেই পানি ঘোলা করার কারণ নেই।"

সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বি এম মোজাম্মেল হক, সুজিত রায় নন্দী, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, কার্যনির্বাহী সদস্য সাহাবুদ্দিন ফরাজী, মারুফা আক্তার পপি উপস্থিত ছিলেন।