চঞ্চলকে ‘এভাবে’ কখনো পর্দায় দেখেননি ফারিণ

'পদাতিক' দেখে মুগ্ধ তাসনিয়া ফারিণ বলেছেন, "সৃজিত দা'র আরেকটি পরিশীলিত কাজ।”

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 3 Nov 2023, 12:46 PM
Updated : 3 Nov 2023, 12:46 PM

ইংল্যান্ডের বার্মিংহামে চঞ্চল চৌধুরী অভিনীত সিনেমা ‘পদাতিক’ দেখেছেন অভিনেত্রী তাসনিয়া ফারিণ; সেই অভিজ্ঞতা ফেইসবুকে জানিয়ে প্রকাশ করেছেন মুগ্ধতা।

যুক্তরাজ্যের চার শহর লন্ডন, বার্মিংহাম, ম্যানচেস্টার ও লিডসে গত ২৫ অক্টোবর থেকে চলছে ‘লন্ডন ইন্ডিয়ান ফিল্ম ফেস্টিভাল’, সেখানেই প্রদর্শিত হয়েছে সৃজিত মুখার্জি পরিচালিত 'পদাতিক'।

জীবনকে একটি ‘চক্র' হিসেবে বর্ণনা করে ফারিণ শুক্রবার ফেইসবুকে লিখেছেন, “মজার ব্যাপার হল, আমার প্রথম ছবি 'এক পৃথিবী'র প্রমোশনের জন্য যখন কলকাতা যাই, তখন চঞ্চল ভাই পদাতিকের শুটিং করছিলেন।"

'পদাতিক' সিনেমায় প্রখ্যাত চলচ্চিত্রকার মৃণাল সেনের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন চঞ্চল চৌধুরী। এ সিনেমার প্রশংসা করে ফারিণ বলেন, "সৃজিত দা'র আরেকটি পরিশীলিত কাজ, যেখানে মৃণাল সেনের শুধু জীবন নয় বরং তার পরিচালনার ধরন, সিনেমা, দর্শন, আদর্শ সবকিছুর মেলবন্ধন ঘটেছে। সেই সাথে কোথায় যেন নিজের বিবেকের মুখোমুখি হতে হয়। আয়নায় নিজ প্রতিবিম্ব ফুটে ওঠে।"

আর চঞ্চল চৌধুরীর অভিনয়ে মুগ্ধ ফারিণ লিখেছেন, "চঞ্চল ভাইকে এভাবে কখনো পর্দায় দেখা যায়নি। আরেকটি 'গ্রাউন্ড ব্রেকিং পারফরমেন্স'।"

'পদাতিক' সিনেমার আন্তর্জাতিক প্রিমিয়ার প্রদর্শনীতে অংশ নিতে লন্ডনে রয়েছেন নির্মাতা সৃজিত এবং চঞ্চল চৌধুরী। সিনেমা দেখার পর চঞ্চলের সঙ্গে তোলা একটি ছবিও ফেইসবুকে শেয়ার করেছেন ফারিণ।

গত বুধবার উড়োজাহাজ থেকে একটি ছবি ফেইসবুকে শেয়ার করে লন্ডনে যাওয়ার কথা জানিয়েছিলেন চঞ্চল। মুক্তির আগে সিনেমাটি নিয়ে সুখবর দিতে লিখেছিলেন, “সৃজিত’দার সাথে ‘পদাতিক’ এর অনেক বড় একটা সফর। লন্ডন যাত্রা। উদ্দেশ্য- চলচ্চিত্র উৎসবে ‘পদাতিক’ এর প্রথম প্রদর্শনী।”

এ বছর মৃণাল সেনের জন্মশতবার্ষিকী। তাকে (মৃণাল) শ্রদ্ধা জানাতেই প্রয়াত পরিচালকের জীবন, কর্ম ও সময়ের গল্প নিয়ে সৃজিত তৈরি করেছেন ‘পদাতিক’।

এর আগে তিনি এ বায়োপিক ওয়েব সিরিজ আকারে আনতে চেয়েছিলেন। পরে সিদ্ধান্ত বদলে সিনেমা করেন। জানুয়ারিতে শুরু হয় ‘পদাতিক’ এর শুটিং। এই কাজে কয়েক মাস ধরে ঢাকা-কলকাতা-ঢাকা নিয়মিত যাতায়াত করেছেন চঞ্চল।

মৃণালের ভূমিকায় কেন চঞ্চল? এর উত্তরে সৃজিতের ভাষ্য, “প্রথমত দু’জনের মুখের মিল আছে। সেটা কাকতালীয়। কিন্তু মৃণাল সেনের মতই চঞ্চলের চোখের দৃষ্টি অত্যন্ত ধারালো এবং সজাগ। তা ছাড়াও তার রাজনীতি চেতনা, যাপন এবং দৃষ্টিভঙ্গির সঙ্গেও চঞ্চলের প্রচুর মিল পাওয়া যায়। সেটা কাকতালীয় হতে পারে। কিন্তু মিলটা আছে।’’

বায়োপিকে মৃণালের স্ত্রী গীতা সেনের চরিত্রে অভিনয় করেছেন পশ্চিমবঙ্গের অভিনেত্রী মনামী ঘোষ।