জনি ডেপের আঁকা ছবি থেকে কয়েক ঘণ্টায় আয় ৩০ লাখ পাউন্ড

লন্ডনের ক্যাসেল ফাইন আর্টের ৩৭টি গ্যালারির মাধ্যমে এই অভিনেতার ৭৮০টি শিল্পকর্ম বিক্রি হয়েছে।

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 July 2022, 06:12 AM
Updated : 30 July 2022, 06:12 AM

একই অঙ্গে এত রূপ! ক্যাপ্টেন জ্যাক স্প্যারো এবার আঁকিয়েদের খাতায় নাম লিখিয়েছেন। তবে আঁকাআঁকি শুধু শখের ঘেরাটোপে আটকে রাখেননি এই অভিনেতা। চিত্রকর্ম বিক্রি করে মাত্র কয়েক ঘণ্টায় প্রায় ৩০ লাখ পাউন্ড আয় করেছেন।

বিবিসি জানিয়েছে, জনি ডেপ ছবি বিক্রির ঘোষণা দিয়েছিলেন ইনস্টাগ্রামে। সেই পোস্ট দেখে হইচই পড়ে যায়। ডেপ তার ক্যাপশনে শুধু লিখেছিলেন, “এখন শুধুমাত্র # ক্যাসলফাইনআর্ট। ব্যস ভক্তরা ব্যস্ত হয়ে পড়ে গ্যালারির ওয়েবসাইটে ঢোকার জন্য।

পোস্ট শেয়ার করার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে লন্ডনের ক্যাসেল ফাইন আর্টের ৩৭টি গ্যালারির মাধ্যমে এই অভিনেতার ৭৮০টি শিল্পকর্ম বিক্রি হয়ে যায়।

জনি ডেপের এসব চিত্রকর্মের শিরোনাম ‘দ্য ফ্রেন্ডস অ্যান্ড হিরোস’। যেসব চরিত্র তাকে বিভিন্ন সময়ে অনুপ্রাণিত করেছে তাদের ছবি এই তারকা ফুঁটিয়ে তুলেছেন রং-তুলির আঁচড়ে। এদের মধ্যে রোলিং স্টোনসের কেইথ রিচার্ডস ও হলিউড অভিনেত্রী এলিজাবেথ টেইলরের ছবিও আছে।

৫৯ বছর বয়সী ডেপ বলেন, “আমি আমার অনুভূতি প্রকাশে এই শিল্পকে বেছে নিয়েছি।এই ছবিগুলো মূর্ত হয়েছে আমার জীবনের নানা ঘটনায়।আমার জীবনকে ঘিরেই এই শিল্পকর্ম। এতদিন এগুলো নিজের কাছেই রেখেছিলাম। কিন্তু কারোরই উচিত না নিজেকে গণ্ডিবদ্ধ রাখা।”

জনি ডেপ জানান, তার ছবিতে ফুটে উঠেছে বিখ্যাত অভিনেতা আল পাচিনো এবং ফোক কিংবদন্তী বব ডিলানের মুখচ্ছবি।

পাইরেটস অব দ্যা ক্যারিবিয়ানের ভাষ্য, যারা তার কাছে গুরুত্বপূর্ণ যেমন-পরিবার ও বন্ধুবান্ধবসহ খ্যাতিমান ব্যক্তি, যাদের তিনি পছন্দ করেন, তারাই তার চিত্রকর্মে স্থান পেয়েছেন।

বৃহস্পতিবার একদিনেই ডেপের ৭৮০টি চিত্রকর্ম বিক্রি হয়েছে। এগুলোর মধ্যে ফ্রেমে বাঁধাই করা একেকটি চিত্রকর্মের দাম ছিল ৩ হাজার ৯৫০ পাউন্ড। এবং চারটির পূর্ণাঙ্গস পোর্টফোলিও ১৪ হাজার ৯৫০ পাউন্ডে বিক্রি হয়েছে।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ক্যাসল ফাইন আর্টস ডেপের চিত্রকর্মকে ‘পপ আর্ট এবং স্ট্রিট আর্টের সংযোগস্থল’ এবং ‘অনুভূতির সাথে পপ আর্টের মিশেল’ বলে অভিহিত করেছে।

ডেপের চিত্রকর্মগুলোর প্রদর্শনী এবং বিক্রির জন্য বেশ কিছুদিন ধরেই গ্যালারি কর্তৃপক্ষ আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছিল। তাদের প্রত্যাশা আগামীতেও ডেপের আরও চিত্রকর্ম নিয়ে কাজ করতে পারবে তারা।

Also Read: যুক্তরাজ্যে জনি ডেপের হার কেন জয় হয়ে ফিরল যুক্তরাষ্ট্রে?

২০১৫ সালে ঘর বেঁধেছিলেন জনি ডেপ ও অ্যাম্বার হার্ড, কিন্তু দুই বছরের মধ্যে ঘটে তারকা জুটির বিচ্ছেদ। এরপর ২০১৮ সালে ওয়াশিংটন পোস্টে এক নিবিন্ধে নিজেকে পারিবারিক সহিংসতার শিকার হিসেবে তুলে ধরেন হার্ড।

তাতে ক্ষুব্ধ হয়ে সাবেক স্ত্রীর বিরুদ্ধে ৫ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ চেয়ে মানহানির মামলা করেন ডেপ। তার পাল্টায় ১০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ চেয়ে পাল্টা মামলা করেন হার্ড।

ওই মানহানির মামলার রায়ে গত ১ জুন জয় পেয়েছেন জনি ডেপ। শুনানি শেষে ভার্জিনিয়ার ফেয়ারফ্যাক্স কাউন্টি আদালত রায়ে বলেছে, মানহানির ক্ষতিপূরণ হিসেবে ডেপকে ১ কোটি তিন লাখ ডলার দিতে হবে হার্ডকে।

এর পর থেকেই যেন হাওয়ায় ভাসছেন ডেপ। সোশ্যাল মিডিয়ায় তার প্রতি ভক্তদের ভালোবাসার জোয়ার উঠেছে ফুলে ফেঁপে। কিছুদিন আগে একটি কনসার্টে গানও গেয়েছেন তিনি।

এদিকে সাত সদস্যের জুরি বোর্ডের ওই রায়ের বিরুদ্ধে আপিলের জন্য আবেদনও করেছেন ‘অ্যাকুয়াম্যান’ তারকা হার্ড।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক