সিগারেটে ব্যয় বাড়বে, বিড়ি আগের মতোই

তামাকজাত পণ্যের ব্যবহার কমানো ও রাজস্ব আয় বৃদ্ধির কথা বলে বাজেটে সিগারেটের দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব রেখেছেন অর্থমন্ত্রী; তবে জর্দা, বিড়ি ও গুলের দাম অপরিবর্তিত রাখা হচ্ছে।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 9 June 2022, 12:47 PM
Updated : 9 June 2022, 12:47 PM

প্রস্তাব অনুযায়ী, নিম্ন স্তরে ১০ শলাকা সিগারেটের খুচরামূল্য ১ টাকা বাড়িয়ে ৪০ টাকা হবে। সম্পূরক শুল্ক আগের মতো ৫৭ শতাংশ থাকবে।

মধ্যম স্তরের ১০ শলাকা সিগারেটের দাম ৬৩ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৬৫ টাকা করার প্রস্তাব করা হয়েছে বাজেটে।

উচ্চ স্তরে ১০২ টাকা থেকে ১১১ টাকা এবং প্রিমিয়াম বা অতি উচ্চ স্তরের ১০ শলাকার দাম ১৩৫ টাকা থেকে ১৪২ টাকা নির্ধারণের প্রস্তাব করেছেন অর্থমন্ত্রী।

সিগারেটে সম্পূরক শুল্ক আগের মতো ৬৫ শতাংশ রাখার কথা বলেছেন অর্থমন্ত্রী।

বিভিন্ন স্তরের সিগারেটের দাম বাড়ানোর কথা বললেও প্রস্তাবিত বাজেটে বিড়ির দাম বাড়ানো হয়নি। বাড়ানো হয়নি সম্পূরক শুল্কও।

আগের মতোই হাতে তৈরি ফিল্টার বিযুক্ত বিড়ির ২৫ শলাকার দাম ১৮ টাকা, ১২ শলাকার দাম ৯ টাকা, আট শলাকার দাম ৬ টাকা রেখে ৩০ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক রাখা হয়েছে। এছাড়া ফিল্টার সংযুক্ত বিড়ির ২০ শলাকার দাম ১৯ টাকা এবং ১০ শলাকার দাম ১০ টাকাই রাখা হয়েছে; সম্পূরক শুল্ক আগের মতোই ৪০ শতাংশ।

এছাড়া জর্দা বা গুলের দামও অপরিবর্তিত রাখা হয়েছে। জর্দা ১০ গ্রামের দাম ৪০ টাকায় রয়েছে, সম্পূরক শুল্কও ৫৫ শতাংশই এবং ১০ গ্রাম গুলের দাম অপরিবর্তত রেখে ২০ টাকা করা হয়েছে, সম্পূরক শুল্ক রাখা হয়েছে আগের মতো ৫৫ শতাংশ।

এদিকে তামাকবিরোধী সংগঠন প্রগতির জন্য জ্ঞান (প্রজ্ঞা) এবং অ্যান্টি টোব্যাকো মিডিয়া অ্যালায়েন্স (আত্মা) এক বিজ্ঞপ্তিতে প্রস্তাবিত করহারের সমালোচনা করেছে।

তারা বলছে, বর্তমানে সিগারেট বাজারের ৭৫ শতাংশই নিম্ন স্তরের দখলে; প্রস্তাবিত বাজেটে নিম্ন স্তরে ১০ শলাকা সিগারেটের খুচরামূল্য মাত্র ১ টাকা বাড়ানোর প্রস্তাব করার কারণে এই স্তরে সিগারেটের দাম বাড়বে মাত্র ২ দশমিক ৫৬ শতাংশ, যা ১০ শতাংশ মাথাপিছু আয় বৃদ্ধির তুলনায় খুবই সামান্য।

“ফলে এই স্তরের সিগারেটের প্রকৃত মূল্য ব্যাপকভাবে হ্রাস পাবে এবং তরুণ ও নিম্ন আয়ের জনগণের মধ্যে কমদামি সিগারেটের ব্যবহার আশঙ্কাজনকহারে বাড়বে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক