বাদ পড়লেন করুনারত্নে, বিরতি নিলেন রাজাপাকসা

শ্রীলঙ্কার ওয়ানডে দলে ফিরেছেন ধনাঞ্জয়া লাকশান, কাসুন রাজিথা, আশেন বান্দারা ও লাহিরু কুমারাকে।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 24 Nov 2022, 04:07 PM
Updated : 24 Nov 2022, 04:07 PM

এক বছরের স্থগিত নিষেধাজ্ঞা পাওয়ার পর ওয়ানডে দলে জায়গা হারালেন শ্রীলঙ্কার পেস বোলিং অলরাউন্ডার চামিকা করুনারত্নে। শুরুতে স্কোয়াডে রাখা হলেও এই সংস্করণ থেকে বিরতি চেয়ে সরে দাঁড়িয়েছেন বাঁহাতি ব্যাটসম্যান ভানুকা রাজাপাকসা। 

আফগানিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ শুরুর ২৪ ঘণ্টারও কম সময় বাকি থাকতে ১৫ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড। ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের অপেক্ষায় দল দিতে এতো বিলম্ব হয়েছে বলে আনুষ্ঠানিক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে তারা। 

ওয়ানডে দলে ফিরেছেন ধনাঞ্জয়া লাকশান, কাসুন রাজিথা, আশেন বান্দারা ও লাহিরু কুমারা। করুনারত্নের শূন্যস্থান পূরণে লাকশানকে নেওয়া হয়েছে। গত বছরের জুনে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে একটি ওয়ানডে খেলেছেন তিনি। শ্রীলঙ্কার ঘরোয়া ক্রিকেটে আলো ছড়িয়ে ফের দলে ফিরেছেন ২৪ বছর বয়সী এই পেস বোলিং অলরাউন্ডার।

জুনে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সবশেষ ওয়ানডে খেলেছে শ্রীলঙ্কা। ঘরের মাঠে ৩-২ ব্যবধানে জেতা সেই সিরিজের দল থেকে বাদ পড়েছেন করুনারত্নে, নিরোশান ডিকভেলা, নুয়ান থুসারা, রমেশ মেন্ডিস, প্রাভিন জয়াবিক্রম, জেফ্রি ভ্যান্ডারসে ও লাহিরু মাদুশাঙ্কা। 

এছাড়া দীর্ঘমেয়াদি চোটের কারণে দলে নেই ডানহাতি পেসার দুশমন্থ চামিরা। রাজাপাকসা ওয়ানডে ক্রিকেট থেকে বিরতি চেয়েছেন। যে কারণে শুরুতে দলে রাখা হলেও পরে তাকে বাদ দিয়েছে লঙ্কান বোর্ড। 

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলোয়াড়ি আচরণবিধি ভঙ্গ করায় করুনারত্নেকে এক বছরের জন্য স্থগিত নিষেধাজ্ঞার শাস্তি দিয়েছে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। বিশ্বকাপে তার পারফরম্যান্সও ভালো ছিল না। তবে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সবশেষ ওয়ানডে সিরিজে দুইবার ম্যাচ সেরার পুরস্কার জিতেছিলেন তিনি।

পাল্লেকেলে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শুক্রবার মাঠে গড়াবে প্রথম ওয়ানডে। একই মাঠে ২৭ ও ৩০ নভেম্বর হবে বিশ্বকাপ সুপার লিগে অন্তর্ভুক্ত সিরিজটির বাকি দুই ম্যাচ। সবগুলো ম্যাচ শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকেল ৩টায়। 

শ্রীলঙ্কার ওয়ানডে দল: দাসুন শানাকা (অধিনায়ক), পাথুম নিশাঙ্কা, ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা, চারিথ আসালাঙ্কা, দিনেশ চান্দিমাল, কুসল মেন্ডিস, ভানিন্দু হাসারাঙ্গা, দুনিথ ওয়েলালাগে, ধনাঞ্জয়া লাকশান, কাসুন রাজিথা, মাহিশ থিকশানা, প্রমোদ মাদুশন, আসিথা ফার্নান্দো, আশেন বান্দারা, লাহিরু কুমারা।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক