রূপসা রেলসেতু উদ্বোধনের অপেক্ষায়

খুলনা থেকে মোংলার পথে রূপসা নদীতে রেলসেতু নির্মাণের কাজ শেষ হয়েছে, যেটি চালু হলে মোংলা বন্দরের পণ্য পরিবহনে বেশ সুবিধা মিলবে।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 3 July 2022, 01:13 PM
Updated : 3 July 2022, 03:19 PM

রোববার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সেতুটির নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হওয়ার কথা জানিয়েছে ভারতীয় হাই কমিশন।

মূল রেলসেতুর দৈর্ঘ্য ৭১৬ মিটার। আর সংযোগ রেললাইনসহ মোট দৈর্ঘ্য পাঁচ দশমিক ১৩ কিলোমিটার।

গত ২৫ জুন এ সেতুর নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয় জানিয়ে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ভারতীয় ইপিসি ঠিকাদার মেসার্স এলঅ্যান্ডটি এ ব্রডগেজ সিঙ্গেল ট্র্যাক রেল সেতু নির্মাণ করেছে।

“আশা করা যাচ্ছে যে, রূপসা রেলওয়ে সেতু এবং খুলনা-মোংলা বন্দর রেললাইন পণ্য পরিবহনে সুবিধা সৃষ্টি করবে।

“মোংলা বন্দরের সাথে এই সহজ ও উন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থার কারণে এই অঞ্চলের কৃষকেরা তাদের উৎপাদিত কৃষি পণ্যসহ অনায়াসেই স্থানীয় বাজারগুলোতে ব্যবসা করার সুযোগ পাবে।“

ভারত সরকারের ঋণে নির্মিত এ সেতুর সুবিধা পেতে খুলনা-মোংলা রেললাইন চালু হতে হবে। গত ফেব্রুয়ারিতে এ রেললাইন প্রকল্প পরিদর্শনে গিয়ে রেলের মহাপরিচালক ধীরেন্দ্র নাথ মজুমদার জানিয়েছিলেন, চলতি বছর নাগাদ প্রকল্পের কাজ শেষ হবে।

রেলযোগাযোগের কারণে বাংলাদেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের পর্যটনে ইতিবাচক প্রভাব পড়বে বলে বিজ্ঞপ্তিতে আশা প্রকাশ করেছে ভারতীয় হাই কমিশন।

তারা জানিয়েছে, রূপসা নদীর ওপর নির্মিত রেল সেতুটির পাইলিংয়ের জন্য বেস গ্রাউটিং নামের বিশেষ প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে।

“সেতুর ভায়াডাক্ট সেকশনে ৮৫৬টি পাইল ফাউন্ডেশন নির্মাণ করা হয়েছে এবং ৭২টি পাইল ফাউন্ডেশন স্টিল ব্রিজ সেকশনের জন্য নির্মাণ করা হয়েছে, যার গড় পাইল দৈর্ঘ্য ৭২ মিটার।”

স্টিলের তৈরি এ সেতুর নির্মাণসামগ্রী ভারত থেকে সড়ক, সমুদ্র ও অভ্যন্তরীণ নদীপথে আমদানি করা হয়েছিল বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক