চীনের সাংহাইয়ে ধেয়ে যাচ্ছে ঘূর্ণিঝড়, সব ফ্লাইট বাতিল

ঘূর্ণিঝড় মুইফা স্থানীয় সময় মধ্যরাতের দিকে সাংহাইয়ের দক্ষিণ-পূর্ব অংশ দিয়ে ভূখণ্ডে উঠে আসবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 14 Sept 2022, 06:04 PM
Updated : 14 Sept 2022, 06:04 PM

চীনের সর্ববৃহৎ নগরী সাংহাইয়ে দিকে ধেয়ে যাচ্ছে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘মু্ইফা’। ঝড়ের কারণে সেখানকার দুইটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের সব ফ্লাইট বাতিল হয়ে গেছে।

ঘূর্ণিঝড় মুইফা সাংহাইয়ের দক্ষিণ-পূর্ব অংশ দিয়ে ভূখণ্ডে উঠে আসবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বিবিসি জানায়, এ বছর চীনের মূলভূখণ্ডে আঘাত হানা দ্বাদশ ঝড় ‘মুইফা’। ঘূর্ণিঝড়টি বুধবার সাংহাইয়ের দক্ষিণ-পূর্বের জউশান নগরীতে মূলত আঘাত হানতে চলেছে।

ঝড়টি এবছর চীনে আঘাত হানা সবচেয়ে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় হয়ে উঠতে পারে বলে আশঙ্কা স্থানীয় কর্তৃপক্ষের।

চীনের আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে বলা হয়েছে, স্থানীয় সময় বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে (জিএমটি ১২:৩০) মুইফা চীনা উপকূলে পৌঁছায়। এটির বাতাসের যে গতিবেগ তা গাছ উপড়ে ফেলা, ঘরবাড়ি ধ্বংস করা এবং বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করার মত যথেষ্ট শক্তিশালী।

এটি হাংজউ বে’র উপর দিয়ে গিয়ে মধ্যরাতের দিকে (জিএমটি ১৬:০০) সাংহাইয়ে আঘাত হানতে পারে।

এ সময় প্রচণ্ড ঝড়ো বাতাসের সঙ্গে পাঁচ মিটার উঁচু জলোচ্ছ্বাস দেখ দিতে পারে। চীনের প্রধান বাণিজ্য নগরী সাংহাই।

রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে সতর্কবার্তা প্রকাশ করে বলা হয়, ঝড়ের কারণে রাতভর ভারি বর্ষণ হতে পারে। বিশেষ করে ঘনবসতিপূর্ণ নগরীর পূর্ব সমুদ্রতট জুড়ে।

ঝড়ের প্রস্তুতি হিসেবে সাংহাইয়ের কোথাও কোথাও অস্থায়ী ঘূর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। কয়েকটি আশ্রয়কেন্দ্রে কোভিড পরীক্ষা করা হচ্ছে।

সাংহাইয়ের দক্ষিণের নগরী নিংবোতে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা এবং ‘রেড এলার্ট’ জারি করা হয়েছে। ‘রেড এলার্ট’ আবহাওয়ার সর্বোচ্চ সতর্কবার্তা।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক