বাড়িতে শৌচাগার নেই, বাইরে গিয়ে জীবন্ত সমাধি ভারতীয় ৩ নারীর

এক সঙ্গীকে বাঁচাতে গিয়ে বাকি দুইজনেরও মৃত্যু হয়।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 26 Jan 2024, 11:41 AM
Updated : 26 Jan 2024, 11:41 AM

ভারতের ঝাড়খণ্ড রাজ্যের ধনবাদে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বাইরে যাওয়ার পর ভূমি ধসে জীবন্ত সমাধি হয়েছে তিন নারীর। প্রথমে তাদের একজন এ পরিস্থিতির শিকার হন, বাকি দুইজন সঙ্গীকে উদ্ধার করতে গিয়ে নিজেরাও ধসে পড়া মাটির নিচে চাপা পড়েন। বাড়িতে টয়লেট না থাকায় বাড়ির বাইরে গিয়েছিলেন তারা।

রোববার গোনডুডিহ কয়লাখনি এলাকার ধোবি কুলহিতে ঘটনাটি ঘটে। সেখানে অনেক জায়গায় ভূগর্ভস্থ পরিত্যক্ত খনি আছে, যার আনেকগুলোই আগুন ও ভূমিধসের কারণে নাজুক অবস্থায় আছে। ঘটনাস্থলের নিকটবর্তী গোনডুডিহ খাস কুসুন্ডা কয়লাখনি কোল ইন্ডিয়া লিমিটেডের অধীন ভারত কুকিং কোল লিমিটেডের (বিসিসিএল) পরিচালনাধীন। 

স্থানীয়রা জানিয়েছে, ওই নারীরা প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বাইরে বের হওয়ার পর ধনবাদের গোনডুডিহ কয়লাখনির কাছে একটি বড় ধরনের ভূমিধসের ঘটনা ঘটে। এক সঙ্গীকে বাঁচাতে গিয়ে বাকি দুইজনেরও মৃত্যু হয়।

স্থানীয়দের অভিযোগ, ঘটনা ঘটার সঙ্গে সঙ্গে খবর দেওয়া হলেও পুলিশ ও বিসিসিএলের উদ্ধারকারী টিম কয়েক ঘণ্টা পর ঘটনাস্থলে যায়। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ গ্রামবাসীরা বিসিসিএলের বিরুদ্ধে অবহেলার অভিযোগ এনেছে। ওই এলাকার ভূমি দেবে যেতে থাকলেও স্থানীয় বাসিন্দাদের ঠিকমত পুনর্বাসিত করা হয়নি, আর তাই এ শোচনীয় ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ তাদের।

উদ্ধারকারী দল মাটির নিচে চাপা পড়া তিন নারীর মৃতদেহ উদ্ধার করার চেষ্টা করছে। ঘটনাস্থলে বিপুল সংখ্যক পুলিশ ও সিআইএসএফ সদস্য উপস্থিত আছেন। লাশ উদ্ধারের পর নিহতদের পরিবারগুলোকে আর্থিক ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে বলে ধনবাদ সার্কেল কর্মকর্তা জানিয়েছেন।

সংবাদ সূত্র: এনডিটিভি 

(প্রতিবেদনটি প্রথম ফেইসবুকে প্রকাশিত হয়েছিল ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩ তারিখে: ফেইসবুক লিংক)