ট্রাম্পের ফ্লোরিডার বাড়িতে এফবিআইয়ের হানা

ট্রাম্পের ভাষায়, “এরকম ঘটনা কেবল তৃতীয় বিশ্বের কোনো ব্যর্থ রাষ্ট্রেই সম্ভব।”

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 9 August 2022, 04:13 AM
Updated : 9 August 2022, 04:13 AM

যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের ফ্লোরিডার বাড়িতে তল্লাশি চালিয়েছে দেশটির কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা-এফবিআই।

ট্রাম্প বলেছেন, বিপুল সংখ্যক এফবিআই এজেন্ট সোমবার পাম বিচ শহরের মার-এ-লাগোতে যায় এবং তল্লাশির সময় একটি সিন্দুকও ভেঙে ফেলে।

বিবিসি লিখেছে, ট্রাম্পের বিরুদ্ধে সরকারি নথি সরানোর অভিযোগে মার্কিন বিচার বিভাগের তদন্তের অংশ হিসেবে এফবিআই এ তল্লাশি চালিয়েছে।

আর রয়টার্স লিখেছে, যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক কোনো প্রেসিডেন্টের বাড়িতে এভাবে এফবিআইয়ের তল্লাশির ঘটনা নজিরবিহীন।

আর এমন এক সময় এই তল্লাশি চালানো হল, যখন তিনি ২০২৪ সালে তৃতীয়বারের মত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে লড়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

সিবিএস নিউজ জানিয়েছে, এফবিআই সদস্যরা যখন মার-এ-লাগোতে তল্লাশি শুরু করেন, ট্রাম্প তখন ছিলেন নিউ ইয়র্কের ট্রাম্প টাওয়ারে।

ওই তল্লাশির বিষয়ে এক বিবৃতিতে ট্রাম্প বলেন, “এটা আমাদের জাতির জন্য এক কলঙ্কজনক দিন।”

সাবেক এই মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলছেন, সকল সরকারি সংস্থার সব তদন্তে তিনি সহযোগিতা করে এসেছেন। সুতরাং ‘বিনা ঘোষণায়’ তার বাড়িতে এরকম ‘নজিরবিহীন তল্লাশির কোনো প্রয়োজন ছিল না এবং সেটা উচিতও হয়নি’।

ট্রাম্পের ভাষায়, এ ঘটনা ‘বিচারিক অসদাচরণের’ শামিল এবং বিচার বিভাগকে তার বিরুদ্ধে ‘অস্ত্র হিসেবে’ ব্যবহার করা হয়েছে, যাতে তিনি হোয়াইট হাউজের জন্য আবারও ভোটে যেতে না পারেন।

“এরকম হয়রানি কেবল তৃতীয় বিশ্বের কোনো ব্যর্থ রাষ্ট্রেই সম্ভব। দুঃখের বিষয়, আমেরিকাও এখন সেরকম একটা দেশে পরিণত হয়েছে। এতটা দুর্নীতি আগে কেউ কখনও দেখেনি। এমনকি তারা আমার সিন্দুকও ভেঙে ফেলেছে!”

ট্রাম্পের দ্বিতীয় ছেলে এরিক ট্রাম্প ফক্স টেলিভিশনকে বলেছেন, এফবিআই এজেন্টরা সার্চ ওয়ারেন্ট নিয়ে মার-এ-লাগোতে গিয়েছিল। ন্যাশনাল আর্কাইভসের নথি নিয়ে যে তথ্য চলছে, তার অংশ হিসেবেই এ তল্লাশি।

বিবিসি লিখেছে, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টদের সব কাজের নথি, চিঠি আর ইমেইল ন্যাশনাল আর্কাইভসে সংরক্ষণের নিয়ম থাকলেও ট্রাম্প হোয়াইট হাউজে থাকার সময় তা মানেননি বলে অভিযোগ রয়েছে। এমনকি কিছু কাগজপত্র তিনি ছিঁড়ে ফেলেছেন বলেও কর্মকর্তাদের ভাষ্য।

এ বিষয়ে ন্যাশনাল আর্কাইভসের অভিযোগ পাওয়ার পর গত ফেব্রুয়ারিতে তদন্ত শুরুর নির্দেশ দেয় যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ।

ন্যাশনাল আর্কাইভস বলেছে, তারা মার-এ-লাগো থেকে ১৫ বাক্স কাগজ ফেরত পেয়েছে, যেখানে সরকারি গোপন নথিও আছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক