সুউচ্চ ভবনে ঘুমিয়ে ছিলেন, ঝড়ে উড়ে গিয়ে মৃত্যু

বুধবার পর্যন্ত চীনের জিয়াংসি প্রদেশজুড়ে ঝড়ে সাত জনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত হওয়া গেছে। আরো সাড়ে পাঁচশর বেশি মানুষকে জরুরি ভিত্তিতে উদ্ধার করা হয়েছে।

রয়টার্স
Published : 3 April 2024, 02:19 PM
Updated : 3 April 2024, 02:19 PM

চীনের দক্ষিণের জিয়াংসি প্রদেশে এ সপ্তাহান্তে অনেকটা ঘূর্ণিঝড়ের মত দমকা ঝড়ে অন্তত সাত জন প্রাণ হারিয়েছেন। তাদের মধ্যে তিন জন সুউচ্চ ভবনের উপরের দিকে নিজেদের অ্যাপার্টমেন্টে ঘুমিয়ে থাকা অবস্থায় ঝড়ে উড়ে গিয়ে মারা যান।

জিয়াংসির প্রাদেশিক জরুরি বন্যা প্রতিরোধ সদরদপ্তর থেকে বলা হয়, ৩১ মার্চ থেকে ঝড়ো আবহাওয়া শুরু হয়। নানচাং এবং জিউজিয়াংসহ প্রদেশের নয়টি নগরীতে ঝড় হয়। যাতে ৫৪টি কাউন্টির ৯৩ হাজারের বেশি মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়, গত রোববার আকস্মিক ঝড়ের তোড়ে প্রাদেশিক রাজধানী নানচাংয়ের একটি সুউচ্চ ভবনের দুইটি অ্যাপার্টমেন্টের দরজার আকারের জানালা ফ্রেম থেকে খুলে যায় এবং নিজেদের বিছানায় ঘুমিয়ে থাকা তিন জন বাতাসের তোড়ে ভাঙা জানালার ফাঁকা জায়গা দিয়ে উড়ে যায় এবং নিচে পড়ে তাদের মৃত্যু হয়।

কর্মকর্তারা জানান, বুধবার পর্যন্ত প্রদেশজুড়ে সাত জনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত হওয়া গেছে। আরো সাড়ে পাঁচশর বেশি মানুষকে জরুরি ভিত্তিতে উদ্ধার করা হয়েছে। ২,৭৫২ বাড়ি ঘর বিধ্বস্ত হয়েছে।

শুধু ঝড়ো বাতাসই নয়, তার সঙ্গে বজ্রপাত, ভারি বৃষ্টি ও শিলাবৃষ্টিও হয়েছে। কোথাও কোথাও গলফ বলের আকারের শিলা পড়ার কথা জানা গেছে। গত এক দশকের মধ্যে ওই অঞ্চলে এতটা ভয়াবহ ঝড় হয়নি। ঝড়ে প্রায় ১৫ কোটি ইউয়ান সমপরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।