ব্যাকগ্রাউন্ড সরানোর নতুন ফিচারে মজেছেন আইওএস ১৬ ব্যবহারকারীরা

ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভাল টুল ব্যবহারের বেশ কিছু ঘটনা খুঁজে খাবারের ফটোগ্রাফি থেকে পোষা প্রাণীর ‘কোলাজ’ এমনকি ‘মিমস’ও বানাচ্ছেন ব্যবহারকারীরা।

প্রযুক্তি ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 Sept 2022, 11:12 AM
Updated : 18 Sept 2022, 11:12 AM

আইওএস ১৬ সংস্করণে আসা সম্ভবত সবচেয়ে মজার ফিচার হলো ‘ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভাল অ্যান্ড ইমেজ কাটআউট’। বিভিন্ন সৃজনশীল উপায়ে নতুন ফিচারটি চালাচ্ছেন আইওএস ১৬ ব্যবহারকারীরা।

অপারেটিং সিস্টেমটির লকস্ক্রিন উইজেট ও কাস্টমাইজেশন সুবিধা গুরুত্বপূর্ণ বটে, তবে ব্যবহারকারী হয়তো এগুলো প্রতিদিন ব্যবহার করবেন না। তাদের জন্য মজার ডালা নিয়ে এসেছে এই ইমেজ কাটআউট ফিচার।

ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভাল টুলের মতোই ব্যবহারকারীকে ছবি থেকে যে কোনো অবজেক্ট বাছাই করে সেটিকে আলাদা একটি ‘ট্রান্সপারেন্ট’ ছবি হিসেবে সংরক্ষণের সুবিধা দেয় আইওএস ১৬। অপারেটিং সিস্টেমটির বেশ কিছু জায়গায় মিলেছে অ্যাপলের ‘কোরএমএল’ প্রযুক্তি ব্যবহার করে তৈরি এই ফিচারের উপস্থিতি।

এরইমধ্যে ব্যবহারকারীদের হাতে ফিচারটি পৌঁছে যাওয়ায় বিভিন্ন উপায়ে এটি কাজে লাগাচ্ছেন তারা।

এটি ব্যবহারের সবচেয়ে মজার ঘটনাগুলোর একটি হলো, এক আইওএস ১৬ ব্যবহারকারী তার প্রতিদিনের পোশাক শ্রেণিবদ্ধ করছেন ‘নোটস’ অ্যাপে।

প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট টেকক্রাঞ্চের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ভিডিওতে দেখানো ব্যবহারকারী (টিকটকে @macaulay_flower) যখন নিজের পোশাক বদলেছেন, তখন তিনি ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভাল ফিচারটি ব্যবহার করে নিজের একটি ক্লিপ নেন। এর পর তার বিভিন্ন ধরনের ছবি একটি ‘ক্যাটালগে’ পেস্ট করেন তিনি।

এই ঘটনা থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে একটি ‘সিরি শর্টকাটের’ মাধ্যমে প্রক্রিয়াটিকে স্বয়ংক্রিয় করেন সাবেক অ্যাপল কর্মী ম্যাথিউ, সেটি তিনি শেয়ার করেন টুইটারে।

ব্যবহারকারীর আইফোনে এই শর্টকাট ইনস্টল করার পর তিনি ‘শেয়ার শিটে’ একটি অপশন দেখতে পাবেন, যেটির নাম ‘আউটফিট অফ দ্য ডে’। এর পর যে কোনো পোশাক পরিহিত ছবি বাছাই করে শেয়ার শিট বাটনে চাপ দিলেই নিজের নামে থাকা একটি নোটে সংরক্ষিত হবে ছবিটির ‘কাটআউট’।

কেবল এই উপায়েই যে ফিচারটি চালাচ্ছেন ব্যবহারকারীরা, এমন নয়।

ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভাল টুল ব্যবহারের বেশ কিছু ঘটনা খুঁজে খাবারের ফটোগ্রাফি থেকে পোষা প্রাণীর ‘কোলাজ’ এমনকি ‘মিম’ও বানাচ্ছেন ব্যবহারকারীরা।

টেকক্রাঞ্চের প্রতিবেদন অনুযায়ী, এই ফিচার ব্যবহারের সবচেয়ে বড় সুবিধা বিভিন্ন ছবিকে স্বয়ংক্রিয়ভাবে আলাদা ফোল্ডারে শ্রেণিবদ্ধ করে এটি। উদাহরণ হিসেবে বলা যায়, খাবার, কেনাকাটা, পোষা বা মিমস ফোল্ডার।

এই উপায় ব্যবহার করে নিজস্ব একটি শর্টকাট বানিয়েছে টেকক্রাঞ্চ, যা একটি ছবি থেকে ব্যাকগ্রাউন্ড সরিয়ে সেটিকে সংরক্ষণ করে ‘ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভড’ নামে এক ফোল্ডারে।

শেয়ারশিট থেকে ‘রিমুভ ইমেজ ব্যাকগ্রাউন্ড’ অপশন ব্যবহার করে এটি সক্রিয় করতে পারেন ব্যবহারকারী। প্রাথমিক অবস্থায় শর্টকাট ব্যবহারের আগে নিজ হাতেই একটি ফোল্ডার তৈরি করতে হবে ব্যবহারকারীকে। বিভিন্ন ‘ক্যাটেগরি’ তৈরি করতে এই শর্টকাট কপি করে এর নাম পাল্টে দিলেই হবে।

টেকক্রাঞ্চের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ব্যাকগ্রাউন্ড রিমুভাল ফিচারটি বেশ ভালো হলেও কেবল ছবির ফোকাস করা জায়গার অবজেক্টগুলো বাছাই করতে পারে এটি। এমনকি একাধিক অবজেক্ট থাকলেও।

ফিচারটির ভবিষ্যত সংস্করণে ফটো অ্যাপে কোলাজ তৈরির জন্য অ্যাপল আরও উন্নতমানের ‘অবজেক্ট সেপারেশন’ ও ‘এডিটিং টুল’ আনবে বলে আশা প্রকাশ করেছে টেকক্রাঞ্চ।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক