সাড়ে ৮ ঘণ্টা পর দৌলতদিয়া-পাটুরিয়ায় ফেরি চলাচল শুরু

মঙ্গলবার রাত দেড়টায় ঘন কুয়াশায় নদী পথ অস্পষ্ট হয়ে গেলে দুর্ঘটনা এড়াতে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়।

রাজবাড়ী প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 10 Jan 2024, 06:40 AM
Updated : 10 Jan 2024, 06:40 AM

ঘন কুয়াশায় সাড়ে ৮ ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল ফের শুরু হয়েছে।

বুধবার সকাল ১০টায় কুয়াশা কেটে গেলে ফেরি চলাচল শুরু হয় বলে জানিয়েছেন বিআইডব্লিউটিসি আরিচা অঞ্চলের উপ-মহাব‍্যবস্থাপক শাহ মো. খালেদ নেওয়াজ।

তিনি বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, মঙ্গলবার রাত দেড়টায় ঘন কুয়াশায় নদী পথ অস্পষ্ট হয়ে গেলে দুর্ঘটনা এড়াতে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। তবে মাঝ নদীতে কোনো ফেরি আটকে ছিল না।

পরে কুয়াশা কেটে গেলে বুধবার সকাল ১০টা থেকে ফেরি চলাচল শুরু হয়।

এদিকে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় ঘাট এলাকায় কিছু যানবাহন আটকা পড়ে। শীতের মধ্যে দীর্ঘ সময় অপেক্ষায় থেকে ভোগান্তিতে পড়েন চালক ও যাত্রীরা।

সরেজমিনে সকাল ৮টার দিকে দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটে দেখা যায়, ঘাটের জিরো পয়েন্ট থেকে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কে দেড় কিলোমিটার এলাকায় যানবাহন পারের অপেক্ষায় রয়েছে। এসব যানবাহনের মধ্যে পণ‍্যবাহী ট্রাকই বেশি।

বেনাপোল থেকে আসা ট্রাক চালক মোখলেছুর রহমান বলেন, “রাত ২টার সময় ফেরি ঘাটে এসেছি। আসার পর জানতে পারি ফেরি বন্ধ। কখন চালু হবে তার অপেক্ষায় শীতের মধ্যেই বসে আছি।”

জামান পরিবহনের যাত্রী আশরাফুল ইসলাম বলেন, “জরুরি কাজে ঢাকা যাচ্ছি। ঘাটে এসে দেখি ফেরি চলছে না। এখন বসে বসে ভাবছি সময় মতো ঢাকায় পৌঁছাতে পারবো তো। কি যে ভোগান্তিতে পড়লাম। বাস পদ্মা সেতু দিয়ে গেলে এই ভোগান্তিতে পোহাতে হত না “

আরেক যাত্রী সোহান বলেন, “কুয়াশায় প্রতি বছরই এই ভোগান্তিতে পড়তে হয় আমাদের। এখানে আরেকটি সেতু জরুরি হয়ে পড়েছে। কারণ নানা কারণে এই রুটের যাত্রীদের সারা বছরই ভোগান্তি থাকে।”

সকালে ফেরি চালু হলে ধীরে ধীরে ঘাটে অপেক্ষায় থাকা যানবাহনের সারি ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হয়ে আসতে শুরু করে।