ঈদযাত্রা: মা-মেয়ের পর ছেলেরও মৃত্যু

দিনাজপুর সদর উপজেলায় তেলবাহী লরির চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী মা ও মেয়ের মৃত্যুর পর ছেলেও মারা গেছে, চিকিৎসাধীন রয়েছেন বাবা।

দিনাজপুর প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 6 July 2022, 08:00 AM
Updated : 6 July 2022, 11:21 AM

বুধবার ভোর সাড়ে ৫টায় দিনাজপুর শহরের এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সড়কে এ ঘটনা ঘটে বলে কোতোয়ালী থানার এসআই কৃষ্ণ রায় জানান।

নিহতরা হলেন- বিরল উপজেলার তেঘরা দারুল হাদিস সালাফিয়াহ মাদ্রাসার শিক্ষক মোহাম্মদ হোসাইনের স্ত্রী ফাইমা বেগম (৩৫), তাদের মেয়ে ফাহিমা আকতার (১৩) এবং ১৮ মাস বয়সী ছেলে নাসিরুল্লাহ।

গুরুতর অবস্থায় মোহাম্মদ হোসাইন এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

নিহতের পরিবারের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, শিক্ষক মোহাম্মদ হোসাইন ঈদ উপলক্ষে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে মোটরসাইকেলে করে গ্রামের বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাট যাচ্ছিলেন। পথে তারা দুর্ঘটনার কবলে পড়েন। এতে ঘটনাস্থলেই মা ও মেয়ের মৃত্যু হয়। পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শিশুটি মারা যায়।

এসআই জানান, দুর্ঘটনার পর চালক লরি নিয়ে পালিয়ে গেছেন। লরিটি শনাক্তের চেষ্টা চলছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ হাসপাতালের মর্গে পাঠনো হয়েছে। 

অপরদিকে বীরগঞ্জ থানার ওসি সুব্রত কুমার সরকার জানিয়েছেন, সকাল ৮টায় দিনাজপুর-বীরগঞ্জ সড়কের ১৬ মাইল এলাকায় বাসের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী সাহিদুল রহমান নিহত হয়েছেন।

সাহিদুর পার্বতীপুর উপজেলার মোস্তফাপুর ইনিয়নের ভূমি কর্মকর্তা।

তিনি বীরগঞ্জ থেকে পার্বতীপুর যাচ্ছিলেন। পথে দুর্ঘটনার শিকার হন। তার লাশ এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক