ভারতে রাজ্যে রাজ্যে তোপের মুখে ‘লাল সিং চাড্ডা’

দিল্লি, পাঞ্জাব, বেনারসে ‘লাল সিং চাড্ডা’ প্রদর্শনী বন্ধ চায় কিছু বিক্ষব্ধ মানুষ, তাদের অভিযোগ আমির ধর্মীয় অনুভূতিতে ‘আঘাত’ করেছেন।

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 12 August 2022, 05:49 PM
Updated : 12 August 2022, 05:49 PM

মুক্তির পরই ভারতের কয়েকটি শহরে বিক্ষোভের মুখে পড়েছে বলিউড তারকা আমির খানের বহু প্রতিক্ষীত সিনেমা ‘লাল সিং চাড্ডা।“

এর মধ্যে পাঞ্জাবে ‘শিবসেনা হিন্দ’ এর সদস্যরা সিনেমাটির প্রচার বন্ধেরও চেষ্টা চালিয়েছে।

ভারতীয় বিনোদন খবরের সংবাদমাধ্যম ‘বলিউড হাঙ্গামা’ বলছে, সিনেমাটি ‘ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হেনেছে’ বলে অভিযোগ তুলে রাজ্যের জালান্ধারে এমডিবি মলে ‘শিবসেনা হিন্দের সদস্যরা সিনেমা চালাতে বাধা দেয়।

তখন ‘শিখ তাল-মেল কমিটি’ নামে আরেকটি সংগঠনের সদস্যরা এসে পরিস্থিতি সামলে নেয়। তবে আগে থেকেই হলে সিনেমাটি না চালানর দাবি জানিয়ে আসছিল শিবসেনা হিন্দ।

আমির খানকে ‘হিন্দু বিদ্বেষী’ বর্ণনা করে সিনেমা বন্ধে স্থানীয় পুলিশের ডিসিপি বরাবর একটি চিঠিও দেয় তারা।

বেনারসেও ‘লাল সিং চাড্ডা’ বিরোধী বিক্ষোভ হয়েছে। শহরের বিজয়া মলে চলছে সিনেমাটি। টাইমস নাও লিখেছে, ‘সনাতন রক্ষক সেনা’র সদস্যরা সিনেমা বয়কটের ডাক দিয়ে বিজয়া মলের সামনে স্লোগান দিয়েছেন। পরে পুলিশ তাদের বুঝিয়ে পরিবেশ শান্ত করে।

এ ছাড়া ‘লাল সিং চাড্ডা’ বিরোধী বিক্ষোভ হয়েছে দিল্লির দ্বারকা মলে।সে সময় সেখানে সিনেমাটি চলছিল। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে বিক্ষোভকারীরা মল চত্বর ছেড়ে চলে যায়।

কেন সমালোচিত ‘লাল সিং চাড্ডা’

এর আগেও সোশ্যাল মিডিয়ায় সিনেমাটি বয়কটের ডাক দিয়েছিল কট্টর হিন্দু দলগুলো। সিনেমা মুক্তির আগে প্রচারের সময় আমির খান যেখানেই গেছেন, সেখানেই তার আহ্বান ছিল, তাদের বহু দিনের পরিশ্রমের এই ফল যেন প্রত্যাখান করা না হয়। সবাই যেন সিনেমাটি দেখেন, সেই আকুতি বারবার ফুটে ওঠে তার কণ্ঠে।

অস্কারজয়ী হলিউডি চলচ্চিত্র ‘ফরেস্ট গাম্প’ অবলম্বেনে ‘লাল সিং চাড্ডা’ নির্মিত হয়েছে আমির খানের প্রযোজনায়। তিনিই নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছেন।

ফরেস্ট গাম্পের জেনির আদলে লাল সিংয়ের রূপার চরিত্রে অভিনয় করেছেন কারিনা কাপুর খান। অতুল কুলকার্নির চিত্রনাট্যে সিনেমা পরিচালনা করেছেন অদ্বৈত চন্দন।

‘ফরেস্ট গাম্পে’ টম হ্যাঙ্কস ভিয়েতনাম যুদ্ধের একজন যোদ্ধা। পাঞ্জাবী যুবক লাল সিং চাড্ডাকেও ভারতের রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক নানা উত্থানপতনের সাক্ষী হতে হয়। তিনি ভারতের প্রথম ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয় এবং পাকিস্তানের সঙ্গে কার্গিল যুদ্ধের মত ঐতিহাসিক ঘটনাও দেখেন।

সিনেমাটি দিয়ে দীর্ঘ এক দশক ধরে লেগে থাকার পর ২০১৮ সালে এর হিন্দি রিমেকের ঘোষণা দেন আমির খান; যা আলোর মুখ দেখে বৃহস্পতিবার। কিন্তু স্ক্রিনে আসতে না আসতেই আমিরকে এখন বিরোধিতা সামলাতে হচ্ছে।

সিনেমার ট্রেলার প্রচারের পর থেকে আমিরসহ পুরো টিম প্রশংসার চেয়ে সমালোচনাই বেশি কুড়িয়েছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কেউ কেউ লিখেছেন, ‘ফরেস্ট গাম্প’ অভিনেতা টম হ্যাংকসকে অবিকল অনুকরণের চেষ্টা করেছেন আমির। কেউ কেউ সিনেমাটিকে ‘অর্থহীন রিমেক’ আখ্যায়িত করেছেন।

কয়েক সপ্তাহ আগে সোশ্যাল মিডিয়ায় এই সিনেমার প্রচার চালানোর সময় অনেকে ‘পারফেকশনিস্ট’ আমিরের বিরুদ্ধে ‘দেশবিরোধী’ বক্তব্য দেওয়ার অভিযোগ আনেন। এর কারণ ২০১৫ সালে ভারতের রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে আমির খান বলেছিলেন. “দেশটা ক্রমশ অসহিষ্ণু হয়ে উঠছে, আমার স্ত্রী কিরণ (বর্তমানে যিনি সাবেক) আমাকে দেশ ছেড়ে বিদেশে চলে যাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন।“

টাইমস অব ইন্ডিয়া বলছে, মূলত আমিরের ওই মন্তব্যের জন্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘বিরোধিতার’ মুখে পড়ে তার ‘লাল সিং চাড্ডা’। আমির অবশ্য তার সেই মন্তব্যের জন্য দুঃখ প্রকাশও করেছেন।

Also Read: আমির খানের ‘লাল সিং চাড্ডা’র ট্রেইলার দেখে সমালোচনাই বেশি

Also Read: লাল সিং চাড্ডা: যেভাবে বলিউডের ফরেস্ট গাম্প হলেন আমির খান

Also Read: টম হ্যাংকসকে ‘লাল সিং চাড্ডা’ দেখাতে চান আমির

আমির বলেন , “আমার ওই কথায় যদি কাউকে আঘাত দিয়ে থাকি, তাহলে সেজন্য আমি সত্যিই দুঃখিত। আমি কাউকে কষ্ট দিতে চাইনি। তবে কেউ যদি সিনেমা দেখতে না চান, আমি তার সেই সিদ্ধান্তের প্রতিও সম্মান রাখছি।“

পরিচালক করণ জোহরের সেলিব্রেটি শো ‘কফি উইথ করণে’ এসেও আমির বলেছিলেন, “একটা ভালো ফিল্ম তৈরি করতে পেরে আমরা খুব উত্তেজিত। তবে সিনেমাটি নিয়ে আমি খুব চাপের মধ্যে আছি। দর্শক যদি ‘লাল সিং চাড্ডাকে’ গ্রহণ না করে, আমি ভীষণ কষ্ট পাব।”

এদিকে বক্স অফিসকেও প্রথম দিনে সন্তুষ্ট করে পারেনি ‘লাল সিং চাড্ডা’। ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বলছে, প্রাথমিক হিসেবে উদ্বোধনী দিনে ১০ দশমিক ৭৫ কোটি রুপি আয় করেছে আমিরের সিনেমা।

আর হলিউড হাঙ্গামা বলছে, আমিরের গত ১৩ বছরের ইতিহাসে সিনেমার উদ্বোধনী রেকর্ডে সর্বনিম্ন আয় করা সিনেমার একটি হল ‘লাল সিং চাড্ডা।‘

তবে মুক্তির পর সমালোচকদের কাছ থেকে বা আমির খানের পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে ‘লাল সিং চাড্ডা’ নিয়ে কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক