তবে কি বিচ্ছেদ হয়েই গেছে? ঐশ্বরিয়াকে ভক্তদের প্রশ্ন

ঘটনার সূত্রপাত কিছুদিন আগে প্যারিস ফ্যাশন উইকে। সেখানে ঐশ্বরিয়ার পাশাপাশি শ্বেতা বচ্চনের মেয়ে নভ্যা নাভেলি নন্দা উপস্থিত থাকলেও, একে অপরকে এড়িয়ে যান তারা।

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 22 Nov 2023, 05:17 AM
Updated : 22 Nov 2023, 05:17 AM

অভিষেকের সঙ্গে আপনার কি ছাড়াছাড়ি হয়ে গেছে? বাবার বাড়িতে আর কত দিন থাকবেন? আরাধিয়া নিজের বাড়িতে ফিরবে না? এ ধরনের কটাক্ষ মেশানো প্রশ্নে ছেয়ে গেছে সাবেক বিশ্বসুন্দরী, বচ্চনদের পুত্রবধূ ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চনের সোশাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টের পাতা।

টাইমস অব ইন্ডিয়া বলছে, ঐশ্বরিয়া তার মেয়ে আরাধিয়া বচ্চনকে নিয়ে বাবার বাড়িতে আছেন কয়েকদিন ধরে। ইদানিং সোশাল মিডিয়ায় অভিষেককে নিয়ে কোনো ছবি দিচ্ছেন না। পোস্ট করছেন কেবল নিজের বাবা-মায়ের সঙ্গে তোলা ছবি। আরাধিয়ার জন্মদিনেও অমিতাভ-জয়ার কাছ মেলেনি ভার্চুয়াল শুভেচ্ছা। এসব কারণ খতিয়ে দেখে যেন ক্ষেপে উঠেছেন সোশাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা। তাদের প্রশ্ন আর কৌতুহল উসকে দিচ্ছে অভিষেকের সঙ্গে ঐশ্বরিয়ার ‘সংসার ভাঙার’ গুঞ্জন। 

কিছুদিন আগে ঐশ্বরিয়ার প্রয়াত বাবা কৃষ্ণরাজ রাইয়ের জন্মদিন গেছে। দিনটিতে আরাধিয়ার শৈশবের ছবির সঙ্গে বাবার ছবি পোস্ট করেন এই অভিনেত্রী।

তাতে একজন লিখেছেন, “সব বুঝলাম, কেবল বুঝতে পারছি না অভিষেকের সঙ্গে সমস্যা কোথায় আপনার?

“আপনি কেন অভিষেকের সঙ্গে ছবি দিচ্ছেন না? আপনার বাবা-মায়ের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে বলছি, তাদের সঙ্গে তোলা ছবি পোস্ট করছেন, সেটা আপানার একান্ত ইচ্ছা, কিন্তু স্বামী বা শ্বশুরবাড়ি এড়িয়ে যাচ্ছেন কেন?

“দীপাবলি একাই করলেন, বিচ্ছেদ হয়ে গেছে!”

কৃষ্ণরাজ রাই ও আরাধিয়ার ছবির নিচে ঐশ্বরিয়াকে উদ্দেশ্য করে এ ধরনে মন্তব্যে উপচে পড়ছে কমেন্ট বক্স।

ঘটনার সূত্রপাত হয়েছিল কিছুদিন আগে প্যারিস ফ্যাশন উইকে। সেখানে ঐশ্বরিয়ার পাশাপাশি শ্বেতা বচ্চানের মেয়ে নভ্যা নাভেলি নন্দা উপস্থিত থাকলেও, একে অপরকে এড়িয়ে যান তারা।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম বলছে পুত্রবধূ ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চনের সঙ্গে দূরত্ব বেড়েছে বচ্চনদের। চলতি মাসের প্রথম দিন নিজের ৫০তম জন্মবার্ষিকী উদযাপনের যে ছবি পোস্ট করেছিলেন সাবেক এই বিশ্বসুন্দরী, সেখানে তার পাশে স্বামী অভিষেক বা শ্বশুর বাড়ির কাউকে দেখা দেখা যায়নি।

কেবল মেয়ে আরাধিয়া এবং মা বৃন্দা রাইকে পাশে নিয়ে নিজের ওই বিশেষ দিনটি উদযাপন করেছিলেন ঐশ্বরিয়া।

এর মধ্যে ১২ নভেম্বর দীপাবলির দিন বচ্চন বাড়ির পূজায় উপস্থিত না থেকে মেয়েকে নিয়ে মুম্বাই ছাড়তে দেখা যায় ঐশ্বরিয়াকে।

এরপর ১৬ নভেম্বর আরাধিয়ার জন্মদিনে তার বাবা ও মা আলাদা আলাদাভাবে সোশাল মিডিয়ায় যে পোস্ট করেছেন, তাতেও চুপ থেকেছেন অমিতাভ, জয়া, শ্বেতা এবং তার ছেলেমেয়ারা।

আগের বছরের জন্মদিনেও আরাধিয়াকে আশীর্বাদে ভরিয়ে দিয়েছিলেন অমিতাভ। উপচে উঠেছিল নাতনির জন্য অমিতাভের দেওয়া উপহারের ডালি। সোশাল মিডিয়ায় নাতনিকে নিয়ে কেক কাটার ছবিও দিয়েছিলেন বিগ বি। কিন্তু এবারে পরিস্থিতি ভিন্ন।

অমিতাভ ও তার পরিবারের সদস্যদের এ ধরনের আচরণ ঘিরে সংসারের ভেতরের তিক্ততা খোঁজার চেষ্টা করছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম।

বলিউডের অন্যতম সুখী দম্পতি হিসেবে নাম ছিল অভিষেক ও ঐশ্বরিয়ার। ২০০৭ সালে বিয়ে করে সংসার জীবন শুরু করেছিলেন তারা।

তাদের প্রেমের শুরুটা হয়েছিল আরও আগেই। ২০০৬ সালে মুক্তি পাওয়া ‘উমরাও জান’ সিনেমায় জুটি বেঁধে অভিনয় করেন অভিষেক-ঐশ্বরিয়া। তখন থেকেই শুরু এই জুটির বাস্তব জীবনের ভালোবাসার গল্প।

একসঙ্গে কাজ করতে গিয়ে সাবেক বিশ্বসুন্দরী ঐশ্বরিয়ায় মুগ্ধ হয়েছিলেন অভিষেক। দুই অভিনয় শিল্পীর প্রেমের কথা জানাজানি হলে ছেলের সঙ্গে বিয়ে দিয়ে ঐশ্বরিয়াকে পুত্রবধূ করে নেন অমিতাভ ও জয়া।