‘ব্যান্ড মিউজিক ডে’ উদ্বোধন, শুক্রবার কনসার্ট

আইয়ুব বাচ্চুর স্বপ্নপূরণ হচ্ছে।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 1 Dec 2022, 02:10 PM
Updated : 1 Dec 2022, 02:10 PM

ঘোষণা দেওয়ার পর ১ ডিসেম্বরে বাংলাদেশে ‘ব্যান্ড মিউজিক ডে’ উদযাপন করল চ্যানেল আই ও বামবা। এই আয়োজনে একদিন পরই ঢাকার আর্মি স্টেডিয়ামে হবে কনসার্ট।

বৃহস্পতিবার চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে ‘ব্যান্ড মিউজিক ডে’র উদ্বোধন অনুষ্ঠান হয়। এ সময় সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ, চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর এবং বামবার সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

বাংলা ব্যান্ড সংগীতের অন্যতম পুরোধা আইয়ুব বাচ্চু ৯ বছর আগে চ্যানেল আইর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগরের কাছে প্রস্তাব রেখেছিলেন, প্রতি বছর ১ ডিসেম্বর দেশের সেরা ব্যান্ডগুলোর উপস্থিতিতে চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে যেন কনসার্ট হয় এবং দিনটিকে যেন ‘ব্যান্ড মিউজিক ডে’ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়।

তার এই পরিকল্পনা বাস্তবায়নে গত ৯ বছর ধরে চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে ১ ডিসেম্বর পালিত হচ্ছে ‘ব্যান্ড মিউজিক ডে এবং কনসার্ট’। আইয়ুব বাচ্চুর স্বপ্ন এবং চ্যানেল আইয়ের উদ্যোগের সঙ্গে এবার যুক্ত হল বাংলাদেশ মিউজিক্যাল ব্যান্ড অ্যাসোসিয়েশন (বামবা)।  

চ্যানেল আই ও বামবা জানায়, ‘ব্যান্ড মিউজিক ডে’ উদযাপন করতে প্রথমবারের মতো হতে যাচ্ছে ‘বাম্বা-চ্যানেল আই ব্যান্ড মিউজিক ফেস্ট-২০২২’। টিকেটের দাম ৫০০ টাকা। দুপুর ২টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত চলবে কনসার্ট।

শুক্রবার ২ ডিসেম্বর রাজধানীর আর্মি স্টেডিয়ামে এই আয়োজনে অংশ নেবে ১৬টি ব্যান্ড। সেগুলো হল- নগর বাউল, মাইলস, ওয়ারফেইজ, সোলস, রেনেসাঁ, ফিডব্যাক, অর্থহীন, মাকসুদ ও ঢাকা, অবসকিউর, দলছুট, আর্টসেল, শিরোনামহীন, ভাইকিংস, ক্রিপটিকফেইট, পেন্টাগন ও পাওয়ারসার্জ।

‘ব্যানড্ মিউজিক ডে’র উদ্বোধন অনুষ্ঠানে সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেন, সংগীতের গুরুত্বপূর্ণ শাখা ব্যান্ড সংগীত। এর মাধ্যমে তরুণ ও যুবসমাজকে সহজে উদ্বুদ্ধ ও অণুপ্রাণিত করা সম্ভব।

শিল্পীদেরকে জাতির জ্ঞান, সৃজনশীলতা ও বুদ্ধিবৃত্তিক সম্পদের ‘আধার’ অভিহিত করে তিনি বলেন, শিল্পীদের সৃষ্টিকর্মের যথাযথ মূল্যায়ন এবং নিজেদের ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের স্বার্থে কপিরাইট অফিসের মাধ্যমে সংরক্ষণ করা জরুরি। সংশোধিত কপিরাইট আইনকে যুগোপযোগী করে প্রণয়ন করা হচ্ছে যা চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। আগামী সংসদ অধিবেশনে এটি উত্থাপন করা হবে।

প্রতিমন্ত্রী এ সময় বামবা ও চ্যানেল আইসহ আয়োজক কর্তৃপক্ষকে আগামীতে প্রতি জেলায় এ ধরনের ব্যান্ড সংগীত উৎসব আয়োজনের আহবান জানান এবং সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় পৃষ্ঠপোষকতার আশ্বাস দেন।

অনুষ্ঠানে আইয়ুব বাচ্চু স্মরণে গাওয়া হয় তার ‘সেই তুমি’ গানটি। গান শেষে বেলুন উড়িয়ে ‘ব্যান্ড মিউজিক ডে’ উদ্বোধন করা হয়।

বামবার সভাপতি হামিন আহমেদ বলেন, “আজ আইয়ুব বাচ্চু নেই, উনার স্মৃতি আছে। এই মানুষটির যেই স্বপ্নটি ছিল, সেই স্বপ্নে হাতে হাত দিয়ে চ্যানেল আই এই প্রাঙ্গণ থেকে ব্যান্ড মিউজিক ডে-এর আয়োজন শুরু হয়। সেই যাত্রার শুরু থেকে যারা তার সাথে ছিলেন তাদের অভিনন্দন জানাতে চাই। তার স্বপ্নটিকে আরও বৃহৎ পরিসরে আমরা নিয়ে যেতে চলেছি কাল শুক্রবার আর্মি স্টেডিয়ামে।”

আবেগজড়িত কণ্ঠে আইয়ুব বাচ্চুর স্ত্রী বলেন, “বাচ্চুর স্বপ্ন ছিল এই ব্যান্ড ফেস্টটিকে বড় পরিসরে করার জন্য। আজ বাচ্চু নেই, তবে বাচ্চুর কাজটা তার সঙ্গীরা এতদূর নিয়ে এসেছে, আর্মি স্টেডিয়াম পর্যন্ত। সেজন্য তার সহশিল্পীদের সালাম জানাই।”

চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর বলেন, “এই স্বপ্ন আগামীতে আরও বড় হবে, বিশাল হবে। স্বপ্নপূরণ হবে। অনেক মানুষ যারা ব্যান্ড সংগীত শুনতে ভালোবাসেন, সেই তরুণরা তাদের বিনোদনের প্ল্যাটফর্ম খুঁজে পাবে।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক