কিষানকে ছাড়িয়ে সর্বকনিষ্ঠ ডাবল সেঞ্চুরিয়ান গিল

গিলের ব্যাটে দশম দ্বিশতক দেখল ওয়ানডে ক্রিকেট।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 Jan 2023, 12:54 PM
Updated : 18 Jan 2023, 12:54 PM

ইনিংস শেষ হতে বাকি ৩ ওভার। ডাবল সেঞ্চুরি থেকে তখনও ৩১ রান দূরে শুবমান গিল। প্রয়োজনে যেন ঝড়ের গতি বাড়ালেন তিনি। ব্লেয়ার টিকনারকে ওভারে দুই ছক্কার পর লকি ফার্গুসনকে মারলেন টানা তিনটি। কাঙ্ক্ষিত ঠিকানায় পৌঁছে দিলেন হুঙ্কার, করলেন খ্যাপাটে উদযাপন।

মাইলফলক ছোঁয়ার সঙ্গে রেকর্ডের আরেকটি পাতায়ও নাম উঠে গেল গিলের। ওয়ানডের ইতিহাসে দ্বিশতক করা সর্বকনিষ্ঠ ক্রিকেটার এখন তিনি। ২৩ বছর ১৩২ দিন বয়সে কীর্তিটি গড়লেন ভারতের এই ব্যাটসম্যান।

রেকর্ডটি ছিল তারই সতীর্থ ইশান কিষানের। গত ডিসেম্বরে বাংলাদেশ সফরে চট্টগ্রামে ২১০ রানের ইনিংস খেলেছিলেন কিষান ২৪ বছর ১৪৫ দিন বয়সে।

নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে বুধবার হায়দরাবাদে ২০৮ রানের ইনিংস খেলে রেকর্ডটি নিজের করে নেন গিল। এই তরুণের ১৪৯ বলের ইনিংসটি সাজানো ৯ ছক্কা ও ১৯ চারে।

এনিয়ে দশম ডাবল সেঞ্চুরি দেখল ওয়ানডে ক্রিকেট। ইতিহাসের অষ্টম ব্যাটসম্যান হিসেবে এই ক্লাবে নাম লেখালেন গিল। তার মধ্যে ভারতেরই পাঁচ জন।

সর্বোচ্চ তিনটি দুইশ ছাড়ানো ইনিংস খেলেছেন ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা। ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ ২৬৪ রানের ব্যক্তিগত ইনিংসের রেকর্ডও তার। গিলসহ একটি করে ডাবল সেঞ্চুরি আছে শচিন টেন্ডুলকার, বিরেন্দর শেবাগ, মার্টিন গাপটিল, ক্রিস গেইল, ফখর জামান ও কিষানের।

রাজিব গান্ধী স্টেডিয়ামে এদিন মুখোমুখি তৃতীয় বলে ফার্গুসনকে চার মেরে রানের খাতা খোলেন গিল। ৫২ বলে স্পর্শ করেন ফিফটি। পরে রানের গতি বাড়িয়ে সেঞ্চুরিতে পা রাখেন তিনি ৮৭ বলে। শতক পর্যন্ত ২ ছক্কার সঙ্গে চার মারেন ১৪টি।

এই ইনিংসের পথে ওয়ানডেতে ভারতের হয়ে দ্রুততম এক হাজার রানের রেকর্ডও গড়েন গিল। ১৯ ইনিংসে মাইলফলকটি ছুঁয়ে ছাড়িয়ে যান তিনি বিরাট কোহলি ও শিখর ধাওয়ানকে। এই দুজনেরই হাজার রান করতে লেগেছিল ২৪ ইনিংস।

দারুণ সব শটের পসরা মেলে এগিয়ে যান গিল। ক্যারিয়ার সর্বোচ্চ ১৩০ রান পেরিয়ে দেড়শতে পা রাখেন তিনি ১২২ বলে।

৪৭ ওভার শেষে গিলের রান তখন ১৬৯। পেসার টিকনারকে তিন বলের মধ্যে দুইটি ছক্কায় ওড়ান তিনি। ওভারের শেষ বলে সিঙ্গেল নিয়ে ধরে রাখেন স্ট্রাইক।

পরের ওভারের প্রথম তিন বলেই ফার্গুসনকে উড়িয়ে ফেলেন মাঠের বাইরে। প্রথমটি ফাইন লেগ দিয়ে, পরের দুটি লং-অফ দিয়ে। ছক্কায় ১৪৫ বলে দুইশ ছোঁয়ার পর ইনিংসের শেষ ওভারে হেনরি শিপলির প্রথম বলে আবারও ছক্কা মারেন গিল। পরের বলে ফের ছক্কার চেষ্টায় ডিপ মিডউইকেটে ধরা পড়েন ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান।

গিল যখন মাঠ ছাড়ছিলেন, পুরো গ্যালারির দর্শক ও ডাগআউটে থাকা সতীর্থ-কোচরা হাততালি দিয়ে তাকে আরও একবার অভিনন্দন জানান।

রেকর্ড ইনিংসটি খেলার পথে ভাগ্যকেও পাশে পান গিল। ৪৫ রানে তার ক্যাচ ছাড়ার পর স্টাম্পিংও মিস করেন টম ল্যাথাম। পরে ১২৪ রানে গিলের ফিরতি ক্যাচ মুঠোয় জমাতে পারেননি শিপলি।

গিলের চোখধাঁধানো ইনিংসে ৮ উইকেটে ৩৪৯ রানের বড় পুঁজি গড়ে ভারত।

আগের ম্যাচেও সেঞ্চুরি উপহার দেন গিল। শ্রীলঙ্কাকে ৩১৭ রানের রেকর্ড ব্যবধানে হারানোর ম্যাচে করেন ১১৬ রান।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক