নাসুমের এক ওভারে ৫ ছক্কা ১ চারে ৩৪ রান নিলেন বার্ল

টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের হয়ে এক ওভারে সবচেয়ে খরুচে বোলিংয়ের রেকর্ড গড়লেন এই বাঁহাতি স্পিনার।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 2 August 2022, 12:53 AM
Updated : 2 August 2022, 12:53 AM

৬ উইকেট হারিয়ে প্রচণ্ড চাপে জিম্বাবুয়ে, চলছিল নিস্তরঙ্গ ক্রিকেট। রায়ান বার্ল খেলছিলেন ১৪ বলে ৯ রান নিয়ে। ১৫তম ওভারে হুট করেই বিধ্বংসী হয়ে উঠলেন এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। নাসুম আহমেদের ওভারে এমন তাণ্ডব চালালেন যে, দুজনের নামই উঠে গেল রেকর্ড বইয়ে।

জিম্বাবুয়ে-বাংলাদেশ তৃতীয় টি-টোয়েন্টিতে এই ব্যাটিং উপহার দেন বার্ল। নাসুমের এক ওভারে ৫ ছক্কা ও ১ চারে তিনি রান নেন ৩৪।

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের কোনো বোলারের সবচেয়ে খরুচে বোলিংয়ের রেকর্ড এটিই। নাসুমের সৌজন্যে অস্বস্তির এই রেকর্ড থেকে মুক্তি পেলেন মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন। ২০১৭ সালে ডেভিড মিলারের কাছে ৩১ রান হজম করেছিলেন সাইফ। পচেফস্ট্রুমে সেদিন প্রথম ৫ বলেই ছক্কার পর শেষ বলে ১ রান নিয়েছিলেন মিলার।

জিম্বাবুয়ের হয়ে এক ওভারে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডটি আগে ছিল বার্লেরই এবং সেটিও বাংলাদেশের বিপক্ষে। ২০১৯ সালে মিরপুরে সাকিব আল হাসানের এক ওভারে তিনটি করে ছক্কা ও চারে ৩০ রান নিয়েছিলেন বার্ল। এবার তিনি ছাড়িয়ে গেলেন নিজেকে।

হারারেতে মঙ্গলবার বার্লের ঝড়ের আগে জিম্বাবুয়ে ধুঁকছিল ১৪ ওভারে ৬ উইকেটে ৭৬ রান নিয়ে। নাসুম তখনও পর্যন্ত ১ ওভারে ৬ রান দিয়ে নিয়েছিলেন ১টি উইকেট। দ্বিতীয় ওভারে এসে তিনি বিধ্বস্ত হন বার্লের টর্নেডোতে।

প্রথম বলটি লং অন দিয়ে ছক্কায় ওড়ান বার্ল, পরেরটি স্কয়ার লেগ দিয়ে। তৃতীয় ও চতুর্থ বল উড়ে যায় মিড উইকেটের ওপর দিয়ে। নাসুম যেন বল ফেলার জায়গাই পাচ্ছিলেন না। লাইন-লেংথে খুব বেশি বদল আনতেও দেখা যায়নি তাকে।

চার ছক্কার পর এই ম্যাচের অধিনায়ক মোসাদ্দেক ও নিয়মিত অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ এসে কথা বলেন নাসুমের মঙ্গে। একটু সময় নেন তিনি। এবার একটু লাইন ও লেংথ পাল্টে অফ স্টাম্পের বাইরে ফুল লেংথ ধরনের বল করেন নাসুম। এটিতেও সজোরে ব্যাট চালান বার্ল সোজা ব্যাটে। এতে ছক্কা হয়নি অল্পের জন্য, এক ড্রপে বল ছাড়িয়ে যায় সীমানা। শেষ বলে আবার ছক্কা লং অফ দিয়ে।

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে এক ওভারে সবচেয়ে বেশি রানের বিশ্বরেকর্ড ৩৬, যা হয়েছে দুই দফায়। ২০০৭ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে স্টুয়ার্ট ব্রডের ওভারে ছয় ছক্কা মারেন যুবরাজ সিং, গত বছর আকিলা দনাঞ্জয়ার ওভারে একই কীর্তি গড়েন কাইরন পোলার্ড।

নাসুমের আগে ওভারে ৩৪ রান দেওয়ার তেতো স্বাদ পেয়েছেন ভারতের শিভাম দুবে। ২০২০ সালে তার এক ওভারে ওই ঝড় তুলেছিলেন নিউ জিল্যান্ডের টিম সাইফার্ট ও রস টেইলর মিলে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক