জিসানের ঝড়ো ফিফটির পরও পারল না যুবারা

দ্বিতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টিতে ৭ উইকেটে হেরেছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 Nov 2022, 12:56 PM
Updated : 18 Nov 2022, 12:56 PM

পাকিস্তান সফরে ওয়ানডের পর টি-টোয়েন্টি সিরিজও জেতার সুযোগ ছিল বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের সামনে। জিসান আলমের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে পুঁজিও হলো বেশ ভালো। কিন্তু বোলাররা পারলেন না নিজেদের মেলে ধরতে। বড় জয়ে সমতায় সিরিজ শেষ করল স্বাগতিকরা।

মুলতান ক্রিকেট স্টেডিয়ামে দুই ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের শেষটিতে শুক্রবার পাকিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দলের জয় ৭ উইকেটে।

আগে ব্যাট করে ৬ উইকেটে ১৬৩ রান তোলে বাংলাদেশের যুবারা। জবাবে ১০ বল হাতে রেখে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় স্বাগতিকরা।

বাংলাদেশকে দেড়শ ছাড়ানো সংগ্রহ এনে দেওয়ার কারিগর ওপেনার জিসান। আগ্রাসী ব্যাটিংয়ে ৪০ বলে ৭৩ রান করেন তিনি। তাকে ছাপিয়ে ৭৯ রানের ইনিংসে পাকিস্তানের জয়ের নায়ক অধিনায়ক সাদ বেইগ।

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে উদ্বোধনী জুটিতে ৬৩ রান যোগ করেন জিসান ও আশিকুর রহমান। যেখানে কিপার-ব্যাটসম্যান আশিকুরের অবদান স্রেফ ১২ রান। দ্বিতীয় উইকেটে চৌধুরী মোহাম্মদ রিজওয়ানের সঙ্গে ৪৭ রানের আরেকটি কার্যকর জুটি গড়েন জিসান।

আউট হওয়ার আগে ৯ চার ও ২ ছক্কায় ৭৩ রানের ইনিংসটি সাজান জিসান। রিজওয়ানের ব্যাট থেকে আসে ২৮ বলে ২৯ রান। পরের ব্যাটসম্যানরা তেমন কিছু করতে না পারায় সংগ্রহ বেশি বড় হয়নি।

রান তাড়ায় নামা পাকিস্তানের যুবাদের শুরুতে চেপে ধরেছিলেন তানভির আহমেদ। ২০ রানে ২ ও পঞ্চাশের আগে ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে স্বাগতিকরা। তবে চতুর্থ উইকেটে জুটি বেঁধে বাংলাদেশকে আর কোনো সুযোগই দেননি সাদ ও আরাফাত।

দুজনের অবিচ্ছিন্ন ১১৯ রানের জুটিতে সহজেই ম্যাচ জিতে যায় পাকিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দল। সাদ ৮ চার ও ৩ ছক্কায় ৫০ বলে করেন ৭৯ রান। আরাফাতের ব্যাট থেকে আসে ৪ চার ও ২ ছক্কায় ৩৭ বলে ৫০ রানের ইনিংস।

তানভির ২৩ রানে নেন ২ উইকেট।

অপরাজিত ফিফটিতে দল জিতিয়ে ম্যাচ সেরার পাশাপাশি সিরিজ সেরার পুরস্কারও জেতেন পাকিস্তানের অধিনায়ক সাদ।

এই সফরের শুরুতে একটি চার দিনের ম্যাচ ড্র করেছিল বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল। পরে ওয়ানডে সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জিতে নেয় তারা। এবার সমতায় শেষ হলো টি-টোয়েন্টি সিরিজটি।

আগামী রোববার সকালে দেশে ফেরার কথা বাংলাদেশের যুবাদের।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল: ২০ ওভারে ১৬৩/৬ (আশিকুর ১২, জিসান ৭৩, রিজওয়ান ২৯, আহরার ১৫, সিয়াম ৬, রাব্বি ১, শিহাব ১২*, পারভেজ ৪*; ইসমাইল ৪-০-২৯-০, ইবতিসাম ৪-০-৩৪-২, রাজা ১-০-১৫-২, আসফান্দ ৪-০-৩১-৩, আরহাম ৪-০-২৬-০, আরাফাত ৩-০-২৩-০)

পাকিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দল: ১৮.২ ওভারে ১৬৫/৩ (শাহওয়াইজ ১৬, বাসিত ০, সাদ ৭৯*, তৈয়্যব ৮, আরাফাত ৫০*; তানভির ৪-০-২৩-২, মারুফ ৩.২-০-৩৬-০, পারভেজ ৩-০-২৮-১, জিসান ৪-০-৩০-০, ওয়াসি ২-০-১৮-০, রাব্বি ২-০-২২-০)

ম্যাচ: পাকিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দল ৭ উইকেটে জয়ী

সিরিজ: দুই ম্যাচের সিরিজ ১-১ সমতায় শেষ

ম্যান অব দা ম্যাচ: সাদ বেইগ

ম্যান অব দা সিরিজ: সাদ বেইগ

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক