ফর্ম নিয়ে সোহানের পাল্টা প্রশ্ন, ‘১২ ম্যাচের মধ্যে ১২ ম্যাচেই রান করব?’

সবশেষ কয়েক ম্যাচে রান না পাওয়া নিয়ে প্রশ্ন করায় কিছুটা ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়াই জানালেন রংপুর রাইডার্স অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 25 Feb 2024, 01:02 PM
Updated : 25 Feb 2024, 01:02 PM

‘অফ ফর্ম বলতে…?’- প্রশ্ন শেষ হওয়ার আগেই বলে উঠলেন নুরুল হাসান সোহান। সবশেষ কয়েক ম্যাচে রান না পাওয়া নিয়ে প্রশ্ন শুনে যেন কিছুটা ক্ষুদ্ধও হলেন রংপুর রাইডার্স অধিনায়ক। মুখে যদিও এক চিলতে হাসি তার ছিল, তবে কণ্ঠের তেজও টের পাওয়া গেল ভালোভাবেই। 

বিপিএলে এবার সোহানের অধিনায়কত্বে দারুণভাবে ছুটছে রংপুর। প্রথম পর্বে ৯ জয়ে সবার ওপর থেকে প্লে-অফে পা রেখেছে তারা। দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার পাশাপাশি ব্যাটিং আর কিপিংয়েও অবদান রেখেছেন তিনি। ১২ ইনিংসে তার রান ২০৭, উইকেটের পেছনে ডিসমিসাল ১৪টি, যা আসরের সর্বোচ্চ। 

বাংলাদেশে টি-টোয়েন্টির বাস্তবতায় প্রায় ২৬ গড় ও ১৩৫.২৯ স্ট্রাইক রেটে দুইশর বেশি রান খুব খারাপ কিছু নয়। তবে সবশেষ তিন ম্যাচে হাসেনি তার ব্যাট। দুই অঙ্ক ছোঁয়ার আগে তিনি ধরেন ড্রেসিং রুমের পথ।

আগের ৯ ম্যাচের ৭টিতে দু অঙ্কে পা রাখলেও পঞ্চাশ ছুঁতে পারেননি কিপার-ব্যাটসম্যান। সিলেট স্ট্রাইকার্সের বিপক্ষে ৩০ বলে ৪৬ রানের ইনিংস তার এবারের সর্বোচ্চ। 

এবারের আসরে বেশিরভাগ ম্যাচই চার-পাঁচ নম্বরে খেলেছেন রংপুর অধিনায়ক। কিন্তু বড় হয়নি তার ইনিংস। ত্রিশের বেশি রান করেছেন মোটে তিন ম্যাচে। টুর্নামেন্টে এখন পর্যন্ত রানের তালিকায় সেরা বিশে থাকা ব্যাটসম্যানদের মধ্যে শুধু সোহানই কোনো পঞ্চাশ করতে পারেননি। এই বিশ জনের মধ্যে স্ট্রাইক রেটে তার চেয়ে এগিয়ে ছয়জন।

তবে পরিসংখ্যানে ভালো-মন্দ যেমনই থাকুক, সোহান নিজের পারফরম্যান্সে সন্তুষ্টই। বসুন্ধরা স্পোর্টস কমপ্লেক্সে রোববার সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে তার ফর্ম নিয়ে প্রশ্নে সেটিই বুঝিয়ে দিলেন রংপুরের অধিনায়ক।

“অফ ফর্ম বলতে...? ব্যাটে রান হচ্ছে না বলতে, আমি কি ১২ ম্যাচের মধ্যে ১২ ম্যাচেই রান করব, ভাইয়া? পাঁচটা ম্যাচে যে অবদান রেখেছি, দেখেছেন? হয়তো আপনি আমাকে পছন্দ করেন না, নাহলে খেলা বোঝেন না।" 

"খেলা বুঝলে অবশ্যই... আমি যে নির্দিষ্ট জায়গায় খেলছি, আপনি পরিসংখ্যান দেখবেন যে কত রান করেছি। দুইশর বেশি রান করেছি। কোন জায়গায় ব্যাটিং করেছি, কিপিংয়ে কী করছি, এগুলো দেখে তারপর প্রশ্ন করা উচিত।” 

ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে সোমবার প্রথম কোয়ালিফায়ারে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের মুখোমুখি হবে রংপুর। ওই ম্যাচের আগে ব্যক্তিগত লক্ষ্যের কথাও শোনান রংপুর অধিনায়ক।  

“দলের জন্য অবদান রাখার লক্ষ্য থাকে সবসময়। দল আমার কাছে কী চাচ্ছে, আমি ওটা দিতে পারছি কী না... এটাই মূল লক্ষ্য থাকে। ওটাই আসলে করার চেষ্টা করব।”