যাত্রী অসন্তোষ: বিমানের ৪ কেবিন ক্রু ‘গ্রাউন্ডেড’

কলকাতার ওই ফ্লাইটের ঘটনা তদন্তে কমিটি হবে; প্রতিবেদন না পাওয়া পর্যন্ত তাদের ফ্লাইটে পাঠানো হবে না।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 July 2022, 04:27 PM
Updated : 23 July 2022, 04:27 PM

কলকাতায় বিমানের এক ফ্লাইটে যাত্রী দুর্ভোগের আগের ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই রাষ্ট্রায়ত্ত এয়ারলাইন্সটির একই রুটে এবার যাত্রীদের সঙ্গে অসদাচরণের অভিযোগ উঠেছে কেবিন ক্রু এর বিরুদ্ধে; যাদের মধ্যে চারজনকে পরে ‘গ্রাউন্ডেড’ করা হয়েছে।

শনিবার তাদের গ্রাউন্ডেড করার কথা জানিয়েছেন বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের জনসংযোগ বিভাগের মহাব্যবস্থাপক তাহেরা খন্দকার।

আর কলকাতার নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে যাত্রীদের সঙ্গে দুর্বব্যবহারের ঘটনা ঘটে বৃহস্পতিবার।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে তাহেরা বলেন, ফ্লাইটটি বৃহস্পতিবার রাত ৯টা ৫ মিনিটে কলকাতা থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা হয়। ওই ফ্লাইটের একজন যাত্রীর মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে চারজন কেবিন ক্রুর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। শনিবার তাদের গ্রাউন্ডেড করা হয়েছে।

এ ঘটনা তদন্তে একটি কমিটি করা হবে জানিয়ে তিনি বলেন, কমিটির প্রতিবেদন না পাওয়া পর্যন্ত তাদের ফ্লাইটে পাঠানো হবে না। প্রতিবেদন পাওয়ার পর তার ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Also Read: কলকাতায় ‘বিভীষিকার’ ৪ ঘণ্টা: বিমান বললো, এটাই ‘নিয়ম’

উড়োজাহাজের ভেতরে যাত্রীদের সেবার জন্য কেবিন ক্রুরা নিযুক্ত থাকেন। এসব ক্রুর বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের সুরাহা না হওয়া পর্যন্ত তাদের আর ফ্লাইটে পাঠানো হবে না- এটাকেই এভিয়েশন খাতে ‘গ্রাউন্ডেড’ হিসেবে প্রচলিত।

রাষ্ট্রীয় পতাকাবাহী এয়ারলাইন্সটি বোয়িং ৭৩৭ উড়োজাহাজ দিয়ে ঢাকা-কলকাতার ফ্লাইট চালায়। অপেক্ষাকৃত সরু আকারের এ এয়ারক্রাফটগুলো স্বল্প দূরত্বের রুটে ব্যবহার করা হয়।

যাত্রীদের সঙ্গে দুর্বব্যবহারের বিষয়ে বিমানের কর্মকর্তারা জানান, বৃহস্পতিবার কলকাতা বিমানবন্দরে দাঁড়ানো অবস্থায় উড়োজাহাজটির এসি বন্ধ ছিল। এসময় যাত্রীরা বারবার পানি চাইলে কেবিন ক্রুরা বিরক্ত হয়ে ‘অসম্মানজনক’ উক্তি করেন।

ঢাকায় নেমে যাত্রীদের অভিযোগ শুনে বিমান কর্তৃপক্ষ দুই পক্ষকে ডেকে (যাত্রী ও কেবিন ক্রু) বিষয়টির সুরাহা করতে চেষ্টা চালায়। সেখানেও কেবিন ক্রুরা আবার ‘চোটপাট’ করেন বলে অভিযোগ যাত্রীদের। এরপর শনিবার তাদের গ্রাউন্ডেড করার সিদ্ধান্ত নেয় কর্তৃপক্ষ।

এর আগে গত সোমবার যান্ত্রিক গোলযোগের কারণে চার ঘণ্টা কলকাতা বিমানবন্দরে আটকে থাকে একটি ফ্লাইট।

সেসময় উড়োজাহাজের এসি বন্ধ থাকায় যাত্রীদের অবর্ণনীয় দুর্ভোগ পোহাতে হয়। একজন যাত্রী ‍অসুস্থও হয়ে পড়েন। যাত্রীদের কেউ এটাকে ‘বিভীষিকাময়’ যাত্রা বলেছেন।

এর তিনদিন পরেই আবার কেবিন ক্রুদের বিরুদ্ধে অসদাচরণের অভিযোগ উঠল।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক