নারী পাচার: নৃত্যশিল্পী ইভানের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ফের পেছাল

দুবাইতে নারী পাচারের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ২০২০ সালের সেপ্টেম্বরে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া এ শিল্পীকে গ্রেপ্তার করে সিআইডি।

আদালত প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 14 August 2022, 12:07 PM
Updated : 14 August 2022, 12:07 PM

দুই বছরেও মানব পাচার আইনে করা মামলায় জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া নৃত্যশিল্পী ও কোরিওগ্রাফার ইভান শাহরিয়ার সোহাগের বিরুদ্ধে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন জমা পড়েনি।

রোববার এ মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য নতুন করে ৪ সেপ্টেম্বর তারিখ দিয়েছে আদালত।

এদিন মামলার তদন্ত সংস্থা সিআইডি প্রতিবেদন দাখিল করতে পারেনি। পরে মহানগর হাকিম আতিকুল ইসলাম প্রতিবেদন দাখিলের জন্য নতুন দিন নির্ধারণ করে দেন।

দুবাইতে বাংলাদেশি নারী পাচারকারী একটি চক্রের সদস্যদের ২০২০ সালের ২ জুলাই গ্রেপ্তারের পর তাদের জবানবন্দিতে নাম আসে ২০১৭ সালে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া নৃত্যশিল্পী ইভানের।

এরপর ওই বছর ১১ সেপ্টেম্বর গুলশানের নিকেতনের বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে সাত দিনের রিমান্ডে নিয়ে তাকে জিজ্ঞাসাবাদও করেন তদন্ত কর্মকর্তা।

সিআইডি তখন জানিয়েছিল, দুবাইতে মানব পাচারকারী চক্রের মূলহোতা আজম খান ও তার চার সহযোগীকে প্রথমে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে গ্রেপ্তার করা হয় ইভানকে।

২০১৭ সালে ‘ধ্যাততেরিকি’ চলচ্চিত্রের নৃত্য পরিচালনার জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান ইভান শাহরিয়ার। তিনি ‘সোহাগ ড্যান্স গ্রুপ’ নামে একটি নাচের দল পরিচালনা করেন। গ্রেপ্তারের সময় তিনি ‘এক্সপ্রোজার বিডি’ নামে একটি বিজ্ঞাপনী প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যানের দায়িত্বেও ছিলেন।

ওই মামলার এজাহারে বলা হয়, আসামিরা দুবাইয়ের হোটেল ও ড্যান্স বারে নারীদের যৌন কর্মে বাধ্য করতেন। তাদের প্রতিনিধিরা দেশের বিভিন্ন নাচের ক্লাব বা সংগঠন থেকে কাজ দেওয়ার নামে মেয়েদের দুবাই পাঠাতো।

এরপর দুবাই পুলিশের দেওয়া তথ্যানুযায়ী, সিআইডি গত জুলাই মাসে আজম খানসহ অন্যান্যদের গ্রেপ্তার করে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক