রাষ্ট্রদ্রোহে উসকানি, পাকিস্তানে সাবেক দুই সেনাকর্মকর্তার কারাদণ্ড

সাজা পাওয়া দুই সাবেক সেনাকর্মকর্তা মেজর (অবসরপ্রাপ্ত) আদিল ফারুক রাজা এবং ক্যাপ্টেন (অবসরপ্রাপ্ত) হায়দার রাজা মেহদি উভয়ই বিদেশে থাকেন।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 26 Nov 2023, 07:18 AM
Updated : 26 Nov 2023, 07:18 AM

রাষ্ট্রদ্রোহ মূলক কর্মকাণ্ডে উসকানি দেওয়ার অভিযোগে পাকিস্তানের দুই সাবেক সেনা কর্মকর্তাকে দোষীসাব্যস্ত করে কারাদণ্ড দিয়েছে দেশটির সামরিক আদালত। তাদের সামরিক পদবিও বাতিল করা হয়েছে।

সাজা পাওয়া সাবেক দুই সেনাকর্মকর্তা হলেন মেজর (অবসরপ্রাপ্ত) আদিল ফারুক রাজা এবং ক্যাপ্টেন (অবসরপ্রাপ্ত) হায়দার রাজা মেহদি। তাদের দুইজনকে যথাক্রমে ১৪ ও ১২ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে পাকিস্তানের দৈনিক ডন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইউটিউব এ তাদের অনেক ভক্ত-অনুসারী রয়েছে।

শনিবার পাকিস্তানের সামরিক বাহিনীর মিডিয়া উইং-আইএসপিআর থেকে তাদের এই সাজার কথা ঘোষণা করা হয়।

আইএসপিআর থেকে দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়, “উভয় অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে পাকিস্তান আর্মি অ্যাক্ট ১৯৫২ এর অধীনে সেনাবাহিনীতে দায়িত্বরত কর্মীদের মধ্যে রাষ্ট্রদ্রোহ উসকে দেওয়ার প্রচেষ্টার অভিযোগে এবং গুপ্তচরবৃত্তি সম্পর্কিত অফিসিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্ট ১৯২৩ এর বিধান লঙ্ঘন করার জন্য এবং নিরাপত্তা ও দেশের স্বার্থের জন্য ক্ষতিকর বিবেচনায় দোষীসাব্যস্ত করে সাজা প্রাদান করা হয়েছে।”

গত অক্টোবর মাসের ৭ ও ৯ তারিখ সামরিক আদালতে তাদের এ বিচার হয় বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়।

তবে সাজা পেলেও তাদের কাউকেই কারাগারে ঢোকানো যাচ্ছে না। কারণ, তারা দুইজনই পাকিস্তানের বাইরে অবস্থান করছেন।

বিদেশে থেকে বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যমে তারা পাকিস্তান সামরিকবাহিনীর বিরুদ্ধে সমালোচনামূলক বক্তব্য দিয়ে আসছেন। বিশেষ করে গত ৯ মে দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট ইমরান খানকে গ্রেপ্তারের পর থেকে তাদের এ তৎপরতা বেড়ে যায়।