মাঙ্কিপক্সকে জরুরি জনস্বাস্থ্য পরিস্থিতি ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্রের

এ ঘোষণার ফলে রোগটির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য অতিরিক্ত তহবিল ও সরঞ্জাম ছাড় করা হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 5 August 2022, 07:11 AM
Updated : 5 August 2022, 07:11 AM

ক্রমবর্ধমান মাঙ্কিপক্স প্রাদুর্ভাবকে জরুরি জনস্বাস্থ্য পরিস্থিতি ঘোষণা করেছে যুক্তরাষ্ট্র সরকার, মার্কিন স্বাস্থ্য ও জনসেবা বিষয়ক সেক্রেটারি জেভিয়ার বাসেরা একথা জানিয়েছেন।

বৃহস্পতিবারের এ ঘোষণার ফলে রোগটির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য অতিরিক্ত তহবিল ও সরঞ্জাম ছাড় করা হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাও মাঙ্কিপক্সকে ‘আন্তর্জাতিক উদ্বেগ সৃষ্টিকারী জরুরি জনস্বাস্থ্য পরিস্থিতি’ ঘোষণা করেছে; এটা তাদের সর্বোচ্চ সতর্কতার স্তর। মাঙ্কিপক্সের বিরুদ্ধে সমন্বিত আন্তর্জাতিক সাড়া এবং টিকা ও চিকিৎসা সহযোগিতা বাড়াতে তহবিল ছাড়ের জন্য গত মাসে ডব্লিউএইচও এ ঘোষণা দেয়।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নিউ ইয়র্ক, ক্যালিফোর্নিয়া ও ইলিনয় অঙ্গরাজ্য বাড়তে থাকা মাঙ্কিপক্স প্রাদুর্ভাবকে জরুরি জনস্বাস্থ্য পরিস্থিতি ঘোষণার পর ২ অগাস্ট বাইডেন মাঙ্কিপক্স মোকাবেলায় তার প্রশাসনের নেওয়া পদক্ষেপগুলো সমন্বয় করার জন্য দুই জন শীর্ষ ফেডারেল কর্মকর্তাকে নিয়োগ দেন।

বুধবার পর্যন্ত পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রে মাঙ্কিপক্সে আক্রান্তের সংখ্যা ৬৬০০ ছাড়িয়ে গেছে আর এদের প্রায় সবাই পুরুষ সমকামী।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তথ্য অনুযায়ী, ১৯৫৮ সালে মাঙ্কিপক্স প্রথম শনাক্ত হয়েছিল। এই রোগে আক্রান্ত কারও ঘনিষ্ঠ সংস্পর্শে এলে তা ছড়াতে পারে।

রোগের প্রাথমিক উপসর্গ হচ্ছে জ্বর, মাথাব্যথা, হাড়ের জয়েন্ট, মাংসপেশিতে ব্যথা এবং দেহে অবসাদ। জ্বর হওয়ার পর দেহে পুঁজযুক্ত গুটি দেখা দেয়। সাধারণত দুই থেকে চার সপ্তাহের মধ্যেই আক্রান্ত ব্যক্তি সুস্থ হয়ে ওঠেন।

Also Read: যুক্তরাষ্ট্রে বাড়ছে মাঙ্কিপক্স, সান ফ্রান্সিসকো-নিউ ইয়র্কে জরুরি অবস্থা

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক