রাশিয়ার দাবি মিটিয়ে ইউক্রেইন ‘দুর্ভোগের অবসান’ ঘটাতে পারে: ক্রেমলিন

ইউক্রেইনের বিদ্যুৎ নেটওয়ার্কে রুশ বাহিনীর হামলায় জনজীবনে যে দুর্ভোগ নেমে এসেছে, রাশিয়ার দাবি পূরণ করে কিইভ এর অবসান ঘটাতে পারে, বলেছেন ক্রেমলিনের মুখপাত্র।

রয়টার্স
Published : 24 Nov 2022, 04:55 PM
Updated : 24 Nov 2022, 04:55 PM

বেসামরিক নাগরিকদের নিশানা করে ইউক্রেইনের বিদ্যুৎ নেটওয়ার্কে রুশ বাহিনীর হামলা চালানোর কথা অস্বীকার করেছে ক্রেমলিন। তবে বলেছে, সংঘাত সমাধানে রাশিয়ার দাবি পূরণ করে কিইভ তাদের জনগণের এই ‘দুর্ভোগের অবসান’ ঘটাতে পারে।

ইউক্রেইনজুড়ে বিদ্যুৎ অবকাঠামোয় গত কয়েক সপ্তাহ ধরে একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র হামলার কারণে লাখ লাখ মানুষ বিদ্যুৎ ও পানিবিহীন অবস্থার মধ্যে দিন কাটাচ্ছে। শীত পড়তে শুরু করার এই সময়ে হিটিং ব্যবস্থাও বন্ধ হয়ে মানুষ দুর্ভোগ পোহাচ্ছে।

কিন্তু রাশিয়ার প্রেসিডেন্টের দাপ্তরিক বাসভবন ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ সাংবাদিকদের বলেছেন, “সামাজিক কোনও লক্ষ্যবস্তুতে কোনও হামলা চালানো হয়নি এবং এ বিষয়টিতে বিশেষ মনোযোগও দেওয়া হয়নি।”

তিনি বলেন, “যে সব নিশানা প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে সামরিক হামলার লক্ষ্যবস্তু হতে পারে সেগুলোতেই তদনুসারে হামলা করা হয়।”

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের অবস্থান থেকে কীভাবে ইউক্রেইনের মানুষের দুর্ভোগের অবসান ঘটানো যাবে সে ব্যাপারে জিজ্ঞেস করা হলে পেসকভ বলেন, রাশিয়ার যে সব দাবি আছে সেগুলো পূরণ করার মধ্য দিয়ে ইউক্রেইনের শাসকদের বর্তমান সংকটজনক অবস্থার সমাধান করা, স্বাভাবিক পরিস্থিতি ফিরিয়ে আনা এবং জনগণের দুর্ভোগের অবসানের সব সুযোগই আছে।

ইউক্রেইনের বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলোতে রুশ বাহিনীর একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় দেশটির ক্ষতিগ্রস্ত অর্ধেক বিদ্যুৎগ্রিডই মেরামত করা প্রয়োজন হয়ে পড়েছে।

বৃহত্তর কিইভ অঞ্চলের প্রধান বলেছেন, রাশিয়া সেখানকার গুরুত্বপূর্ণ বেসামরিক অবকাঠামো এবং বাসভবনে হামলা অব্যাহত রেখেছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক