ব্রিটিশ তদন্তের মুখে অ্যাপল-গুগলের ব্রাউজার, গেইমিং আধিপত্য

গবেষণায় উঠে এসেছে, মোবাইল ডিভাইসের অপারেটিং সিস্টেম, অ্যাপ স্টোর আর ওয়েব ব্রাউজারের বাজারের ‘টুঁটি চেপে ধরে’ রেখেছে এ দুই টেক জায়ান্ট।

প্রযুক্তি ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Nov 2022, 03:17 PM
Updated : 23 Nov 2022, 03:17 PM

ক্লাউড গেইমিং আর মোবাইল ব্রাউজার খাতে অ্যাপল আর গুগলের একচ্ছত্র আধিপত্য তদন্তের ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাজ্যের বাজার নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ।

‘কম্পিটিশন অ্যান্ড মার্কেটস অথরিটি (সিএমএ)’র গত বছরের এক বাজার গবেষণায় উঠে এসেছে, মোবাইল ডিভাইসের অপারেটিং সিস্টেম, অ্যাপ স্টোর আর ওয়েব ব্রাউজারের বাজারের ‘টুঁটি চেপে ধরে’ রেখেছে এ দুই প্রযুক্তি জায়ান্ট।

বিবিসি জানিয়েছে, ১৮ মাসের তদন্তে কোনো প্রতিযোগিতাবিমুখ আচরণের প্রমাণ পেলে বাজার পরিস্থিতি পরিবর্তনের লক্ষ্যে পদক্ষেপ নিতে পারে সিএমএ।

সিএমএর অন্তর্বর্তীকালীন প্রধান নির্বাহী সারাহ কার্ডেলের বরাত দিয়ে সংবাদমাধ্যমটি জানিয়েছে, যুক্তরাজ্যের ভোক্তাদের সেরা মোবাইল ডেটা নির্ভর সেবা প্রাপ্তি এবং সফটওয়্যার নির্মাতাদের উদ্ভাবনী নতুন অ্যাপে বিনিয়োগের নতুন সুযোগ নিশ্চিত করতে চায় সংস্থাটি।

বিবিসিকে তিনি আরও বলেন, “যুক্তরাজ্যের অনেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এবং ওয়েব ডেভেলপার আমাদের বলেছেন যে, অ্যাপল-গুগলের আরোপিত সীমাবদ্ধতার কারণে পিছিয়ে পড়ছেন বলে মনে করেন তারা।”

কেবল যুক্তরাজ্যেই ৮ লাখ মানুষ ক্লাউড গেইমিং সেবা ব্যবহার করেন বলে জানিয়েছে সিএমএ। ২০২১ সালে দেশটির ভূখণ্ড থেকে মোবাইল ওয়েব ব্রাউজারের মাধ্যমে যত অনুসন্ধান চালানো হয়েছে তার ৯৭ শতাংশ ছিল অ্যাপল-গুগলের সফটওয়্যার নির্ভর।

বাজার পরিস্থিতি নিয়ে গুগলের দাবি, বাজারের অন্য যে কোনো মোবাইল প্ল্যাটফর্মের চেয়ে বেশি অ্যাপ আছে তাদের অ্যান্ড্রয়েড প্ল্যাটফর্মে। অ্যান্ড্রয়েড ডেভেলপারদের ‘পছন্দমতো ব্রাউজার ইঞ্জিন বেছে নেওয়ার’ সুযোগ দিয়েছে এবং ‘লাখো অ্যাপের লঞ্চপ্যাড’ হিসেবে কাজ করেছে বলে দাবি গুগলের।

অন্যদিকে অ্যাপলের দাবি, তারা ‘প্রাণবন্ত এবং প্রতিযোগিতামুখী’ বাজারে বিশ্বাস করে যেখানে ‘উদ্ভাবনী শক্তি প্রতিষ্ঠিত হয়’।

অ্যাপলের অ্যাপ স্টোরে কয়েক লাখ ডেভেলপার তাদের ভাবনাকে কার্যকর অ্যাপে রূপ দিতে পেরেছেন এবং এর ফলে যুক্তরাজ্যেই হাজারো কর্মসংস্থানের সুযাগ তৈরি হয়েছে বলে দাবি আইফোন নির্মাতার।

“আমাদের কৌশলগত পদক্ষেপগুলো ভোক্তার নিরাপত্তা এবং গোপনতা নিশ্চিত করে কীভাবে প্রতিযোগিতা এবং নিজের পছন্দ মতো সিদ্ধান্ত নেওয়ার সুযোগকে গুরুত্ব দেয় তা ব্যাখ্যা করতে সিএমএর সঙ্গে গঠনমূলক যোগাযোগ্য অব্যাহত রাখবো আমরা,” বিবিসিকে বলেছে অ্যাপল।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক