সেরাটা দিতে পুরো ফিটনেসের অপেক্ষায় গ্রিলিশ

দলের সঙ্গে আরও মানিয়ে নিতে পারলে নিজের পারফরম্যান্সেরও উন্নতি হবে বলে মনে করেন ম্যানচেস্টার সিটি মিডফিল্ডার।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 29 Sept 2022, 10:09 AM
Updated : 29 Sept 2022, 10:09 AM

ম্যানচেস্টার সিটিতে এখনও নিজের সেরাটা দিতে না পারার অভিযোগ ‘মেনে নিয়ে’ উন্নতির প্রত্যয় জানালেন জ্যাক গ্রিলিশ। ইংলিশ এই মিডফিল্ডার বললেন, পুরো ফিটনেস ফিরে পেলে পাল্টাবে চিত্র। প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়নদের হয়ে উন্নতি হবে তার পারফরম্যান্সে।

২০২০-২১ মৌসুমে অ্যাস্টন ভিলার হয়ে দারুণ খেলে সিটির নজরে আসেন গ্রিলিশ। মিডফিল্ডার হয়েও প্রতিপক্ষের গোলমুখে কার্যকর ছিলেন ২৭ বছর বয়সী এই ফুটবলার। ওই মৌসুমে প্রিমিয়ার লিগে ৬টি গোলের পাশাপাশি তার নামের পাশে ছিল ১০টি অ্যাসিস্ট। এরপর ১০ কোটি পাউন্ডের বিনিময়ে তাকে দলে টানে ম্যানচেস্টারের ক্লাবটি।

সিটিতে প্রথম মৌসুমে অবশ্য দেখা যায়নি ভিলার সেই গ্রিলিশকে। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৩৯ ম্যাচে গোল করেন ৬টি। চলতি মৌসুমেও নেই উন্নতির খুব একটা আভাস। ছয় ম্যাচ খেলে জালের দেখা পেয়েছেন একবার, আন্তর্জাতিক বিরতির আগে সিটির সবশেষ ম্যাচে।

গত ১৭ সেপ্টেম্বর লিগে উলভারহ্যাম্পটনের ওয়ানডারার্সের বিপক্ষে সিটির ৩-০ গোলে জেতা ম্যাচে প্রথম মিনিটেই গোল করেন গ্রিলিশ। তবে ওই ম্যাচের আগে বেশ চাপে ছিলেন তিনি। কঠিন সময়ে সিটি কোচ পেপ গুয়ার্দিওলাকে পাশেই পেয়েছিলেন গ্রিলিশ। উলভারহ্যাম্পটনের বিপক্ষে ম্যাচের আগে সাবেক বার্সেলোনা কোচ বলেছিলেন, শুধু গোল বা অ্যাসিস্টের জন্য ইংলিশ মিডফিল্ডারকে দলে ভেড়াননি তারা।

গ্রিলিশের মাঠের পারফরম্যান্সে প্রভাব রাখতে পারে গত অগাস্টে পাওয়া কুঁচকিতে চোটও। সিটির ওয়েবসাইটে গত বুধবার দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে গ্রিলিশ বলেন, ওই চোট কাটিয়ে এখনও সেরা শতভাগ ফিট নন তিনি। আশাবাদ ব্যক্ত করলেন, পুরোপুরি সুস্থ হয়ে ক্লাবের হয়ে দেখাতে পারবেন নিজের সেরাটা।

“নিঃসন্দেহে আমি এই মুহূর্তে শতভাগ (ফিটনেসের) এর কাছাকাছিও নেই। চোট পাওয়ার আগে ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেডের বিপক্ষে ৯০ মিনিট এবং বোর্নমাউথের বিপক্ষে ৪৫ মিনিট খেলেছিলাম। তাই আমার এখনও ফিটনেসের অনেক উন্নতি করতে হবে, কিন্তু সেটা সময়ের সঙ্গে সঙ্গে আসবে।”

“নিজের সামর্থ্যের সেরাটা দেওয়ার জন্য আমাকে অনুশীলন চালিয়ে যেতে হবে এবং এরপর আমি মাঠে সুযোগ পাব। সেটা হলে আপনারা সেরা জ্যাক গ্রিলিশকে দেখতে পাবেন।”

গ্রিলিশ মনে করেন, দলের সঙ্গে আরও বেশি মানিয়ে নিতে পারলে উন্নতি হবে তার খেলারও।

“আমার কাছে এটা কেবল গোল ও অ্যাসিস্টের বিষয় নয়... এগুলো আক্রমণভাগের খেলোয়াড়দের জন্য অনেক অর্থবহ, কিন্তু আমি মনে করি না যে, ফুটবল শুধু এটি (গোল ও অ্যাসিস্ট) কেন্দ্রিক।”

“আমি আশা করেছিলাম যে দ্বিতীয় মৌসুমে আমি আরও বেশি খেলার সুযোগ পাব এবং আরও ভালো পারফর্ম করতে পারব। এটাই আমার কাজ, আমাকে এটা বলে দেওয়ার দরকার নেই। পেপ গুয়ার্দিওলার দল এবং তার সিস্টেমের সঙ্গে মানিয়ে নিতে একটু সময় লাগে, তাই আমি নিশ্চিত আমি (ভালো) করব।”

আন্তর্জাতিক বিরতির পর লিগে আগামী ২ অক্টোবর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের বিপক্ষে খেলবে সিটি। সাত ম্যাচে পাঁচ জয় ও দুই ড্রয়ে ১৭ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে আছে ইংলিশ চ্যাম্পিয়নরা। সমান ম্যাচ ১৮ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আর্সেনাল। 

১৭ ও ১৩ পয়েন্ট নিয়ে যথাক্রমে তিন ও চার নম্বর স্থানে আছে টটেনহ্যাম হটস্পার ও ব্রাইটন অ্যান্ড হোভ অ্যালবিওন। পাঁচ নম্বরে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের পয়েন্ট ১২।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক