রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আবার স্বেচ্ছাসেবককে কুপিয়ে হত্যা

এ নিয়ে গত তিন মাসে পাহারারত চার স্বেচ্ছাসেবক ও ক্যাম্প ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে থাকা দুই নেতাকে একই কায়দায় হত্যা করা হয়েছে।

কক্সবাজার প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 22 Sept 2022, 08:49 AM
Updated : 22 Sept 2022, 08:49 AM

একদিনের ব্যবধানে কক্সবাজারে উখিয়া উপজেলার আশ্রয় শিবিরে পাহারারত এক স্বেচ্ছাসেবকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

উখিয়া থানার ওসি শেখ মোহাম্মদ আলী জানান, বুধবার রাত সাড়ে ৩টায় উখিয়ার কুতুপালং ৪ এক্সটেনশন রোহিঙ্গা ক্যাম্পের আই ব্লকে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মোহাম্মদ এরশাদ (২২) উখিয়ার ওই ব্লকের ইউছুপ জলিলের ছেলে। তার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এর আগে মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৩টায় উখিয়ার ১৮ নম্বর ময়নারঘোনা ক্যাম্পে মো. জাফর আলম নামের ‘স্বেচ্ছায় পাহারারত' আরেক রোহিঙ্গাকে গুলি করে ও কুপিয়ে হত্যা করা হয়।

ওসি মোহাম্মদ আলী বলেন, “উখিয়ার কুতুপালং ৪-এক্সটেনশন রোহিঙ্গা ক্যাম্পের আই-ব্লকে স্বেচ্ছায় পাহারার দায়িত্ব পালন করছিলেন মোহাম্মদ এরশাদসহ আরও কয়েকজন রোহিঙ্গা। গভীর রাতে একদল দুষ্কৃতিকারী ধারালো অস্ত্র নিয়ে তাদের উপর হামলা চালায়।

“তারা এরশাদকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের (এপিবিএন) একটি দল ঘটনাস্থল পৌঁছে এরশাদকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে।”

পরে তাকে ক্যাম্প সংলগ্ন স্থানীয় জিকে হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে চিকিৎসকেরা মৃত ঘোষণা করেন বলে জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা।

এ ব্যাপারে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে নিরাপত্তার দায়িত্বে নিয়োজিত এবিপিএনের সংশ্লিষ্ট কারও বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

এই নিয়ে তিন মাসে ক্যাম্পে পাহারা দেওয়া চার স্বেচ্ছাসেবক ও ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে থাকা দুই নেতাকে একই কায়দায় হত্যা করা হয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক