শাহ মোয়াজ্জেমের কফিনে বিএনপির শ্রদ্ধা

বুধবার রাতে ঢাকার গুলশানের বাসায় মারা যান বাংলাদেশের এক সময়ের উপ-প্রধানমন্ত্রী বিএনপি নেতা শাহ মোয়াজ্জেম হোসেন।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 15 Sept 2022, 08:21 AM
Updated : 15 Sept 2022, 08:21 AM

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান প্রবীণ রাজনীতিবিদ শাহ মোয়াজ্জেম হোসেনের জানাজা শেষে তার কফিনে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন দলের নেতাকর্মীরা।

বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় নয়া পল্টনে বিএপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে তার জানাজা হয়। এ সময় বিএনপির দলীয় পতাকায় ঢেকে দেওয়া হয় তার কফিন।

এরপর দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, নজরুল ইসলাম খানসহ নেতাকর্মীরা তার প্রতি শ্রদ্ধা জানান।

৮৩ বছর বয়সে বুধবার রাতে ঢাকার গুলশানের বাসায় মারা যান বাংলাদেশের এক সময়ের উপ-প্রধানমন্ত্রী শাহ মোয়াজ্জেম হোসেন। সর্বশেষ বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যানের পদে ছিলেন তিনি।

নয়া পল্টনে তাকে শ্রদ্ধা জানাতে এসে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, “আজকে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের যে আন্দোলন চলছে, এই আন্দোলনে শাহ মোয়াজ্জেম সাহেবের মত একজন সংগ্রামী অকুতোভয় নেতার আমাদের খুব প্রয়োজন ছিল।

“তার সারা জীবনের আন্দোলন-সংগ্রামের যে ইতিহাস, তাকে স্মরণ করে, অনুকরণ করে আগামী দিনে আন্দোলনে আমরা অবদান রেখে মরহুম শাহ মোয়াজ্জেম হোসনকে আমাদের মধ্যে বাঁচিয়ে রাখব, জিইয়ে রাখব।”

মোশাররফ হোসেন বলেন, “আমি মরহুমের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করছি, তার রুহের মাগফেরাত কামনা করছি, শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা প্রকাশ করছি।

“আমরা দোয়া করছি, শাহ মোয়াজ্জেম সাহেব সারা জীবন এদেশের জনগণের জন্য কাজ করেছেন, সেই কাজকে আল্লাহ যেন ইবাদত হিসেবে গণ্য করে তাকে বেহেশতে নসিব করেন।”

পল্টনের জানাজার পর মোয়াজ্জেম হোসেনের কফিন অ্যাম্বুলেন্সে করে নিয়ে যাওয়া হয় তার গ্রামের বাড়ি মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগরে। সেখানে জোহরের পর জানাজা শেষে আবার তাকে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়।

এশার নামাজের পর গুলশানের আজাদ মসজিদে জানাজা শেষে বনানীতে দাফন করা হয় শাহ মোয়াজ্জেমকে। এ সময়ে তার ছেলে শাহ ইফতেখার হোসেন, মেয়ে রেহনুমা আফরিন দিনাসহ আত্মীয়-স্বজন ও বিএনপি নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

বিএনপি নেতাদের মধ্যে নজরুল ইসলাম খান, আমান উল্লাহ আমান, আবদুস সালাম, রুহুল কবির রিজভী, খায়রুল কবির খোকন, হাবিব উন নবী খান সোহেল, শিমুল বিশ্বাস, সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, আবদুস সালাম আজাদ, শহিদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, কামরুজ্জামান রতন, মোস্তাফিজুর রহমান বাবুল, এবিএম মোশাররফ হোসেন, শামীমুর রহমান শামীম, তাইফুল ইসলাম টিপু, বেলাল আহমেদ, ইশতিয়াকত আজিজ উলফাত, আনোয়ার হোসেইন, সুলতান সালাহউদ্দিন টুকু, সাইফুল ইসলাম নিরব, আামিনুল হক, ইশরাক হোসেন, মোস্তাফিজুর রহমান, আবদুল কালাম আজাদ, আবদুর রহিম, সাইফ মাহমুদ জুয়েল, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, ২০ দলীয় জোটের আহসান হাবিব লিংকন, মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তফা, খন্দকার লুতফর রহমান, আসাদুর রহমান খান আসাদ, সাইফুদ্দিন মনি নয়া পল্টনের জানাজায় অংশ নেন।

আরও খবর

Also Read: শাহ মোয়াজ্জেম হোসেন আর নেই

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক