অ্যান্টিবায়োটিকের প্যাকেট হবে লাল রঙয়ের: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

এ ধরনের ওষুধ ব্যবহারের ক্ষেত্রে পুরো কোর্স শেষ করার কথা থাকলেও অনেকেই তা মানে না।

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 4 Oct 2022, 11:56 AM
Updated : 4 Oct 2022, 11:56 AM

অ্যান্টিবায়োটিক ওষুধের যথেচ্ছ ব্যবহার নিয়ন্ত্রণে এ ধরনের ওষুধের প্যাকেট লাল রঙ দেওয়ার নিয়ম করতে যাচ্ছে সরকার।

মঙ্গলবার সচিবালয়ে এ সংক্রান্ত এক বৈঠক শেষে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, “পৃথিবীর কোথাও প্রেসক্রিপশন ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক বিক্রি হয় না, কেউ কেনেও না। আমাদের এখানে যে কেউ চাইলেই ফার্মেসি থেকে অ্যান্টিবায়োটিক কিনতে পারে।

“আমরা চাই কোনো ফার্মেসি যেন চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক বিক্রি না করে। জনগণের সচেতনতা বাড়াতে অ্যান্টিবায়োটিকের মোড়কে রঙ করে দেওয়া হবে। আমরা লাল রঙ দেওয়ার ব্যবস্থা করছি।”

Also Read: অ্যান্টিবায়োটিক নিয়ন্ত্রণের নির্দেশনা চেয়ে রিট আবেদন

দেশে চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র ছাড়াই মানুষ অ্যান্টিবায়োটিক সেবন করছে জানিয়ে তিনি বলেন, “অ্যান্টিবায়োটিকের পুরো কোর্সও শেষ করে না অনেকে। অ্যান্টিবায়োটিকের যথেচ্ছ ব্যবহার জনস্বাস্থ্যে নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে। অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার নিয়ন্ত্রণে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।”

এর আগে অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার নিয়ন্ত্রণে ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর, স্বাস্থ্য অধিদপ্তর, নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ, প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর, মৎস্য অধিদপ্তর, বাংলাদেশ ফার্মেসি কাউন্সিল, ড্রাগস অ্যান্ড কেমিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, “অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার নিয়ন্ত্রণে আইনের অভাব রয়েছে। এ কারণে আইন কঠিন করা হচ্ছে। আমাদের আইনও কঠিন হচ্ছে। ঔষধ আইন ২০২২ শেষ পর্যায়ে আছে। সংসদে পাস হলে এর প্রয়োগ শুরু হবে।”

যেসব ফার্মেসির লাইসেন্স নেই, তারা যেন ওষুধ বিক্রি করতে না পারে, সে বিষয়ে ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে বলে জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক