‘ইন্ডিয়ানা জোন্স’র টিজার দেখিয়ে হ্যারিসন ফোর্ড বললেন, এটাই শেষ

“আমি নিশ্চয়ই আর দৌড়ঝাঁপ করতে পারব না, ৮০ বছর বয়সে যা নিতান্তই কঠিন।”

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 12 Sept 2022, 11:27 AM
Updated : 12 Sept 2022, 11:27 AM

‘ইন্ডিয়ানা জোন্স’ আর ‘হ্যারিসন ফোর্ড’ দুটো নামই সমার্থক। এই একাত্মতা আবার দেখা গেল ‘ইন্ডিয়ানা জোন্স’ সিনেমার টিজারে।

দর্শকদের দীর্ঘদিন অপেক্ষায় রেখে রহস্য-রোমাঞ্চে ঠাসা হলিউডি ছবি ইন্ডিয়ানার জোন্সের নতুন সিনেমার টিজার প্রকাশ হয়েছে শনিবার ডিজনির ডিটোয়েন্টিথ্রি স্টুডিওতে।

সিএনএন জানিয়েছে, অনলাইনে না ছেড়ে লুকাস ফিল্মের সভাপতি ক্যাথলিন কেনেডি স্টুডিও জনাকীর্ণ অনুষ্ঠানে টিজারটি প্রকাশ করেন। হুলস্থুল পড়ে যায় উপস্থিত সবার মধ্যে।

তবে ফ্রাঞ্চাইজির পঞ্চম এই কিস্তির নাম এখনও জানাননি এর নির্মাতা জেমস ম্যানগোল্ড।

সিনেমার টিজারের ভিডিওজুড়ে বিরাজমান আছেন এই সিনেমার অবিচ্ছেদ্য অভিনেতা হ্যারিসন ফোর্ড। মাথায় চিরাচরিত সেই হ্যাটটি চাপিয়ে ঘোড়ার পিঠে চড়ে হ্যারিসন ফোর্ড নিউ ইয়র্ক সিটি আর পাতাল রেল চষে বেড়াচ্ছেন।

সেইসঙ্গে ১৯৮১ সালে মুক্তি পাওয়া ইন্ডিয়ানা জোনসের প্রথম সিনেমা রেইডার্স অব দ্য লাস্ট আর্কে’ অভিনীত ফোর্ডের ছবি আর নতুন সিরিজে ফোর্ডের কিছু ছবির কোলাজও দেখান হয় অনুষ্ঠানে।

আপ্লুত হ্যারিসন ফোর্ড অনুষ্ঠানে বলেন, “রহস্য ও দুঃসাহসিক এই গল্প ছুঁয়ে যাবে হৃদয়কেও।”

ইন্ডিয়ানা জোন্স চরিত্রে এটাই শেষ- এমন ইঙ্গিতও দেন ফোর্ড।

রসিকতা করে তিনি বলেন “আমি নিশ্চয়ই আর দৌড়ঝাঁপ করতে পারব না, ৮০ বছর বয়সে যা নিতান্তই কঠিন।”

ফোর্ডের এই কথায় শোরগোল পড়ে যায় দর্শকদের মধ্যে।

ইন্ডিয়ানা জোন্সের চতুর্থ সিনেমাটি মুক্তি পেয়েছিল ২০০৮ সালে। দীর্ঘ বিরতিতে ধারণা করা হয়েছিল বয়সের কারণে মার্কিন অভিনেতা হ্যারিসন ফোর্ড ‘ইন্ডিয়ানা জোন্স’ চরিত্রে ফিরবেন না।

কিন্তু কিছুদিন আগেই জানা যায়, ৮০ বছরের নায়ক আবারও সাহসী প্রত্নতত্ত্ববিদের ভূমিকায় নামছেন। আর তার সঙ্গে যোগ হচ্ছেন ‘ফ্লিব্যাগ’ এবং ‘সোলো: এ স্টার ওয়ার্স’খ্যাত অভিনেত্রী ফিবি ওয়ালার-ব্রিজ।

হ‘ইন্ডিয়ানা জোনস’ ব্যাপক সাড়া ফেলে মূলত দুটো কারণে। প্রথম এই ছবির নির্মাতা ছিলেন চলচ্চিত্রকার স্টিভেন স্পিলবার্গ আর দ্বিতীয় কারণ হল অভিনেতা হ্যারিসন ফোর্ড।

এই অ্যাডভেঞ্চার ধারাবাহিকের আগের পর্বগুলোর প্রযোজনা ও পরিচালনা করেছিলেন স্টিভেন স্পিলবার্গ।

এবার প্রযোজনাতে থাকলেও নির্দেশনার দায়িত্ব তুলে দিয়েছেন ‘লোগান’ ও ‘ফোর্ড ভার্সেস ফেরারি’খ্যাত পরিচালক জেমস ম্যানগোল্ডের কাঁধে।

ফোর্ডের সঙ্গে স্পিলবার্গ প্রথম এই ফ্র্যাঞ্চাইজিটিতে জুটি বেঁধেছিলেন চার দশক আগে। ‘ইন্ডিয়ানা জোনস’ সিরিজের প্রথম ছবি ‘রেইডার্স অব দ্য লাস্ট আর্ক’ মুক্তি পায় ১৯৮১ সালে। এরপর ১৯৮৪ সালে মুক্তি পেয়েছিল ইন্ডিয়ানা জোন্স অ্যান্ড দি টেম্পল অফ ডুম’। ওই সিনেমায় ভারতীয় অভিনেতা অমরেশ পুরীও অভিনয় করেছিলেন।

১৯৮৯ সালে মুক্তি পাওয়া তৃতীয় পর্বে ‘ইন্ডিয়ানা জোন্স অ্যান্ড দি লাস্ট ক্রুসেড’ এ হ্যারিসন ফোর্ডের বাবার চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন প্রয়াত শন কনরি।

এরপর ২০০৮ সালে দর্শকরা দেখেন সিরিজের চতুর্থ সিনেমা ‘ইন্ডিয়ানা জোনস অ্যান্ড দ্য কিংডম অব দ্য ক্রিস্টাল স্কাল’।

এরপর শোনা গিয়েছিল সিরিজটি নিয়ে ফোর্ড তেমন আগ্রহী নন। সেই জল্পনা চাপা দিয়ে আসছে নতুন সিনেমাটি। সব ঠিকঠাক থাকলে আগামী বছরের ৩০ জুন দর্শকরা আবার পর্দায় দেখবে হ্যারিসন ফোর্ডের অ্যাডভেঞ্চার।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক