অক্ষয়ের সহশিল্পী এখন সন্ন্যাসিনী

এক সাক্ষাৎকারে বরখা বলেন, "আমি সন্তুষ্ট। বৌদ্ধ ভিক্ষু হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে আমি কোনো ভুল করিনি।"

গ্লিটজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 5 Feb 2024, 05:59 AM
Updated : 5 Feb 2024, 05:59 AM

বলিউডে তার প্রথম সিনেমা ছিল নায়ক অক্ষয় কুমারের সঙ্গে। সে সময় ভাবা হত, কালে কালে বড় তারকা হবেন তিনি। কিন্তু বরখা মদন এখন অভিনয় থেকে অনেক দূরে।

হিন্দুস্তান টাইমস লিখেছে, সিনেমায় নামার আগে  ১৯৯৪ সালে বরখা মদন ফেমিনা মিস ইন্ডিয়া প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিলেন সাবেক দুই বিশ্বসুন্দরী ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন ও সুস্মিতা সেনের সঙ্গে। সব পার্থিব মায়া ছেড়ে এখন তিনি সন্ন্যাসিনী।

এক সাক্ষাৎকারে বরখা বলেন, "আমি সন্তুষ্ট। বৌদ্ধ ভিক্ষু হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে আমি কোনো ভুল করিনি।"

সন্ন্যাসিনী হলেও সোশাল মিডিয়া ছাড়েননি সাবেক এই অভিনেত্রী। ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে নিজের সন্ন্যাসিনী জীবনের নিত্যনতুন ছবি ও ভিডিও তিনি পোস্ট করেন নিয়মিত।

সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার পর বরখা নজর কেড়েছিলেন প্রযোজকদের। ১৯৯৬ সালে অক্ষয় ও রাভিনা ট্যান্ডন অভিনীত ‘খিলাড়িয়ো কা খিলাড়ি’ সিনেমায় কাজের সুযোগ পেয়ে যান। 

কাজ করেছেন আজয় দেবগন ও  উর্মিলা মাতন্ডকরের জনপ্রিয় সিনেমা 'ভুত'-এ। এই সিনেমায় ভূতের চরিত্র করে নাম করেন বরখা।

সিনেমার পাশাপাশি কাজ করেন টেলিভিশনের সিরিয়ালেও। ২০টির মত টিভি সিরিয়াল করেছেন বরখা।

অভিনয়ের পাশাপাশি প্রযোজক হিসেবেও এক সময়ে আত্মপ্রকাশ করেছিলেন তিনি। খুলেছিলেন নিজস্ব প্রযোজনা সংস্থা। বরখা প্রযোজিত ‘সোচ লো’ ও ‘সারখাব’ সিনেমা বেশ প্রশংসিত হয়।

২০১২ সালে নিজের প্রযোজিত ‘সারখাব’ সিনেমায় শেষবারের মত অভিনয় করেছেন বরখা। এরপর তার জীবনযাত্রায় পরিবর্তন দেখা যায়। সেই বদলের ছাপ ফুটে ওঠে তার সোশাল মিডিয়ায়র অ্যাকাউন্টেও।

বৌদ্ধ ধর্মের বরখার আগ্রহ বাড়তে থাকে এবং তিনি তিব্বতি বৌদ্ধ ধর্মগুরু দালাই লামার একজন ভক্ত বনে যান।

ওই বছরই সিনেমাকে পুরোপুরি বিদায় জানিয়ে সন্ন্যাসিনীর জীবন বেছে নেন এক সময়ের এই অভিনেত্রী।