সনির পণ্য বিপণন করবে স্মার্ট টেকনোলজিস

এখন থেকে দেশীয় প্রযুক্তি কোম্পানি স্মার্ট টেকনোলজিসও জাপানের ইলেক্ট্রনিকস পণ্য উৎপাদনকারী সনি কর্পোরেশনের পণ্য বাংলাদেশে বিপণন করবে।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 26 Nov 2021, 04:29 PM
Updated : 26 Nov 2021, 04:29 PM

শুক্রবার রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে ভার্চুয়াল মাধ্যমে যোগ দিয়ে এ ঘোষণা দেন সনি সাউথ ইস্ট এশিয়ার প্রেসিডেন্ট আতসুশি এন্দো।

তিনি বলেন, “আমি আনুষ্ঠানিকভাবে স্মার্ট টেকনোলজিসকে বাংলাদেশে আমাদের বিজনেস পার্টনার হিসাবে ঘোষণা করছি। স্মার্ট টেকনোলজি বাংলাদেশে বিশ্বের ৮৫টি ব্রান্ডের পণ্যের বিপণনের সঙ্গে ‍যুক্ত।

“তারা কার্যকর বিপণন দক্ষতার জন্য বাজারে বেশ সমাদৃত। আফটার সেলস সার্ভিস সাপোর্ট ও কার্যকর বিপণনের মাধ্যমে তারা এই দেশে সনির অবস্থানকে শক্তিশালী করবে।”

স্মার্ট টেকনলজিস বাংলাদেশ এদেশে সনি কর্পোরেশনের আগের বিপণন সহযোগী র‌্যাংগস ইলেক্ট্রনিকসের সঙ্গে কাজ করবে বলে জানান আতসুশি এন্দো।

স্মার্ট টেকনলজিস বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক জহিরুল ইসলাম বলেন, “সনির মত একটা কোম্পানির সঙ্গে একসাথে চলার সুযোগ পেয়ে আমরা খুবই আনন্দিত। আমরা ২২ বছর ধরে বাজারে আছি।

“সনি ক্যামেরা, টিভিসহ অন্যান্য ইলেকট্রনিকস পণ্যে ওয়ার্ল্ড লিডার। বাংলাদেশে সনির একটা বাজার রয়েছে এবং সেটা দিন দিন বাড়ছে। ক্রেতাদের যাতে সঠিক পণ্য সঠিক দামে দিতে পারি এবং বিক্রোয়োত্তর সেবা দিতে পারি সেটাই আমাদের লক্ষ্য।”

শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন ভবিষ্যতে সনিকে বাংলাদেশে উৎপাদনকেন্দ্র স্থাপন করে ব্যবসা সম্প্রসারণের আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, “সনির উচিত এই দেশে ব্যবসা ও বিনিয়োগের সুযোগ নিয়ে নতুন ম্যানুফ্যাকচারিং কেন্দ্র স্থাপন করা। এখানে নতুন শিল্প স্থাপন করে উৎপাদন বাড়ানোর ভালো সুযোগ রয়েছে।”

সরকার বাংলাদেশে মেধাস্বত্ত ও ডিজাইন সংরক্ষণের জন্য চলতি সংসদে আইন পাস করার চিন্তা করছে বলেও জানান শিল্পমন্ত্রী।

দুই কোম্পানির এই অংশীদারিত্বকে অভিনন্দন জানিয়ে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশের সেবা বাড়ানোর ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে স্মার্ট টেকনলজিস।

তিনি বলেন, “ভবিষ্যতে সনি বাংলাদেশে চাইলে কারখানাও স্থাপন করতে পারে। সরকার নতুন প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য হাইটেক পার্ক স্থাপন করেছে।”

বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতির সভাপতি শহিদ উল মনিরও অনুষ্ঠানে যুক্ত ছিলেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক