সাঈদীর সাক্ষী না আসায় ট্রাইব্যুনালের অসন্তোষ

এক সাক্ষীকে জেরার পর আর কোনো সাক্ষী উপস্থিত না থাকায় দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর বিরুদ্ধে মামলার কার্যক্রম বৃহস্পতিবারের মতো মুলতবি করেছে ট্রাইব্যুনাল।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 4 Oct 2012, 06:11 AM
Updated : 4 Oct 2012, 06:11 AM
ঢাকা, অক্টোবর ০৪ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)- এক সাক্ষীকে জেরার পর আর কোনো সাক্ষী উপস্থিত না থাকায় দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর বিরুদ্ধে মামলার কার্যক্রম বৃহস্পতিবারের মতো মুলতবি করেছে ট্রাইব্যুনাল।
এ ছাড়া আগামী রোববার সাক্ষী প্রস্তুত রাখা না হলে আসামি পক্ষের সাক্ষ্যগ্রহণ স্থগিত করা হবে বলে হুঁশিয়ার করে দেয়া হয়েছে।
সাঈদীর বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাদের ২০টি অভিযোগে তিন সদস্যের প্রথম আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে বিচার চলছে।
ট্রাইব্যুনাল আদেশে বলে, আসামি পক্ষ রোববার সাক্ষী হাজির করতে না পারলে অভিযুক্তের পক্ষে ভবিষ্যতে আর কোনো সাক্ষ্য নেয়া হবে না।
এর আগে প্রায় ৪০ মিনিট ধরে আসামি পক্ষের অষ্টম সাক্ষীর সাক্ষ্য ও জেরার পর ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি নিজামুল হক সাঈদীর কৌঁসুলিকে তাদের পরবর্তী সাক্ষী হাজির করতে বলেন।
এ সময় আসামি পক্ষের জ্যেষ্ঠ কৌঁসুলি মিজানুল ইসলাম আর কোনো সাক্ষী হাজির নেই জানালে ট্রাইব্যুনাল বেশ কিছু বাক্য ব্যয়ে তাকে তিরস্কার করে।
বিচারপতি নিজামুল আইনজীবীকে স্মরণ করিয়ে দেন, একদিন আগেও তিনি আসামি পক্ষকে সর্তক করে দিয়েছিলেন যাতে তারা ট্রাইব্যুনালকে এ বিষয়ে একটা বিরূপ আদেশ দেয়ার সুযোগ না দেয়।
ট্রাইব্যুনাল এ আল্টিমেটাম দিলে আসামি পক্ষের কৌঁসুলি তাজুল ইসলাম দাঁড়িয়ে এ ধরনের কঠিন আল্টিমেটাম জারি না করতে অনুরোধ জানান। এ সময় তাদের মধ্যে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় হয়।
অন্যদিকে প্রসিকিউটর সৈয়দ হায়দার আলী তাৎক্ষণিকভাবে দাঁড়িয়ে আসামি পক্ষের আর কোনো সাক্ষীর সাক্ষ্য নেয়া বন্ধ করতে অনুরোধ করেন।
বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/টিএ/এইচএএইচ/এএল/১৮০৭ ঘ.
তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক