গাইবান্ধায় কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ প্রভাবশালীদের বিরুদ্ধে

গাইবান্ধায় হরিজন সম্প্রদায়ের এক কিশোরীকে অপহরণ করে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে সাবেক ইউনিয়ন পরিষদ সদস্যসহ প্রভাবশালীদের বিরুদ্ধে।

গাইবান্ধা প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 19 June 2021, 03:01 PM
Updated : 19 June 2021, 03:01 PM

জেলার সুন্দরগঞ্জ থানার ওসি আব্দুল্লাহিল জামান জানান, এ ঘটনায় শুক্রবার থানায় মামলা হয়েছে।

ঘটনার প্রতিবাদ ও বিচার দাবিতে শনিবার দুপুরে জেলা শহরের ডিবি রোডে মানববন্ধন কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

কর্মসূচিতে বাংলাদেশ রবিদাস ফোরাম, বাংলাদেশ হরিজন কল্যাণ পরিষদ, বাংলাদেশ দলিত ও বঞ্চিত জনগোষ্ঠী অধিকার আন্দোলন গাইবান্ধা শাখা, আদিবাসী বাঙালি সংহতি পরিষদ ও স্থানীয় নাগরিক সংগঠন এ কর্মসূচির আয়োজন করে।

আদিবাসী বাঙালি সংহতি পরিষদের সদস্যসচিব প্রবীর চক্রবর্তী বলেন, সর্বানন্দ ইউনিয়নের ১৫ বছরের এই কিশোরীকে স্থানীয় প্রভাবশালী মোতালেব মিয়া প্রেমের ফাঁদে ফেলে অপহরণ করেন। পরে তাকে দেড় মাস আটকে রেখে ধর্ষণ ও নির্যাতন করেন। পাঁচ দিন আগে রাতে ওই কিশোরীকে তার বাড়ির পাশে রাস্তায় ফেলে রেখে যান মোতালেব। প্রতিবেশীরা ওই কিশোরীকে বাড়িতে উঠতে দেয়নি।

প্রবীর বলেন, পরে কিশোরীকে তা মা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য হায়দার আলীর বাড়িতে রেখে আসেন। সেখানে হায়দার আলী, তার সহযোগী আব্দুল মতিন ও এক সবজি বিক্রেতা কিশোরীকে সেখানে ধর্ষণ করেন। খবর পেয়ে মা গোপনে মেয়েকে নিজের বাড়িতে নিয়ে আসেন।

ওসি আব্দুল্লাহিল বলেন, এ ঘটনায় গত শুক্রবার থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ আসামিদের গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান অব্যাহত রেখেছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক