ডকইয়ার্ডে কাজ বেড়েছে, নেই সুরক্ষা

  • কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজ করতে করতে ক্লান্ত এক শ্রমিক মুখের মাস্ক খুলে বিশ্রাম নিচ্ছেন। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজ করতে করতে ক্লান্ত এক শ্রমিক মুখের মাস্ক খুলে বিশ্রাম নিচ্ছেন। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে কাজ করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে কাজ করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে কাজ করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে কাজ করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • ডকইয়ার্ডে কাজ করতে যে সব সুরক্ষা ব্যবস্থা থাকা দরকার, তাও নেই শ্রমিকদের। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    ডকইয়ার্ডে কাজ করতে যে সব সুরক্ষা ব্যবস্থা থাকা দরকার, তাও নেই শ্রমিকদের। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • কোনো রকম সুরক্ষা ব্যবস্থা ছাড়াই কেরানীগঞ্জের ডকইয়ার্ডে কাজ করছেন এক শ্রমিক। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    কোনো রকম সুরক্ষা ব্যবস্থা ছাড়াই কেরানীগঞ্জের ডকইয়ার্ডে কাজ করছেন এক শ্রমিক। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • করোনাভাইরাস মহামারীর সময়ও কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজের চাপ বেশি; তাই নৌযানের প্রপেলার বানাতে ব্যস্ত সময় পার করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    করোনাভাইরাস মহামারীর সময়ও কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজের চাপ বেশি; তাই নৌযানের প্রপেলার বানাতে ব্যস্ত সময় পার করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • করোনাভাইরাস মহামারীর সময়ও কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজের চাপ বেশি; তাই নৌযানের প্রপেলার বানাতে ব্যস্ত সময় পার করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    করোনাভাইরাস মহামারীর সময়ও কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজের চাপ বেশি; তাই নৌযানের প্রপেলার বানাতে ব্যস্ত সময় পার করছেন শ্রমিকরা। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

  • কোনো রকম সুরক্ষা ছাড়াই কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজ করছে এক শিশু শ্রমিক। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

    কোনো রকম সুরক্ষা ছাড়াই কেরানীগঞ্জ ডকইয়ার্ডে কাজ করছে এক শিশু শ্রমিক। ছবি: মাহমুদ জামান অভি

সাম্প্রতিক ছবিঘর