অস্ট্রেলিয়ায় অ্যাশেজ জিততে স্কোর বোর্ডে রান চান ব্রড

অস্ট্রেলিয়া থেকে অ্যাশেজ জিতে ফেরার পথ দেখালেন স্টুয়ার্ট ব্রড। অভিজ্ঞ এই পেসার ব্যাটসম্যানদের কাছে চাইলেন বড় রান। একই সঙ্গে স্টিভেন স্মিথকে বেধে রাখার ওপর দিলেন জোর।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 30 August 2020, 12:14 AM
Updated : 30 August 2020, 12:14 AM

অস্ট্রেলিয়ায় জিততেগতিময় পেসারদের দিয়ে দল সাজাতে হবে, এমন ভাবনা উড়িয়ে দিলেন ব্রড। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও পাকিস্তানেরবিপক্ষে ১৩.৪১ গড়ে ২৯ উইকেট নেওয়া এই পেসার জানালেন, বড় একটা দায়িত্ব নিতে হবে ইংলিশব্যাটসম্যানদের।

অবশ্য এটা নতুন কোনোকৌশল নয়। ২০১০-১১ মৌসুমে এই পথ ধরেই অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে সিরিজ জয়ের খরা কাটিয়েছিলইংল্যান্ড। দা ডেইলি মেইলে নিজের কলামে রোববার ব্রড দাবি করেন, স্কোর বোর্ডে রান নাথাকলে বোলারদের বোলিংয়ের গতি হয়ে যাবে অপ্রাসঙ্গিক।

“ওই সিরিজের জন্যকোন বোলারদের নির্বাচন করতে হবে সেদিক থেকে আমাদের নজর সরিয়ে নেওয়া উচিত। আমরা ২০০রানে গুটিয়ে গেলে এটা হবে অপ্রাসঙ্গিক আলোচনা। একই সঙ্গে ৩০০ রানে অলআউট হলেও এটা প্রাসঙ্গিকহবে না। ৪০০ রানের বেশি করতে হবে।”

ইংল্যান্ড শেষবারঅস্ট্রেলিয়া থেকে অ্যাশেজ ট্রফি নিয়ে ঘরে ফিরেছিল ২০১০-১১ মৌসুমে। সেবার সফরকারীরাজিতেছিল ৩-১ ব্যবধানে। জেতা তিনটি ম্যাচেই নিজেদের প্রথম ইনিংসে পাঁচশ রানের বেশি করেছিলইংল্যান্ড, জিতেছিল ইনিংস ব্যবধানে।

সিরিজে অ্যালেস্টারকুক তিনটি, জোনাথন ট্রট দুটি এবং একটি করে সেঞ্চুরি করেন কেভিন পিটারসেন, ম্যাট প্রায়র,ইয়ান বেল ও অ্যান্ড্রু স্ট্রাউস। ব্রডও চাইছেন এমন কিছুর পুনরাবৃত্তি।

“২০১০-১১ মৌসুমেইংল্যান্ড যখন শেষবার সেখানে জেতে, কুক, ট্রট ও পিটারসেনরা বড় সেঞ্চুরি পায়। ইনিংসগুলোছিল ১৫০ রানের উপরে। বেল, স্ট্রাউস ও প্রায়ররাও সেঞ্চুরি করেছিল। জেতা তিন ম্যাচে দলকেবল একবার করে ব্যাটিং করেছিল। জিমি অ্যান্ডারসন, টিম ব্রেসনান ও ক্রিস ট্রেমলেটরাঘন্টায় ৮০ মাইলের মাঝামাঝি বল করেছিল।”

ওই সফরে ৭ ইনিংসে১২৭.৬৬ গড়ে ৭৬৬ রান করেন কুক। সব শেষ সিরিজে তাকে ছাপিয়ে যান স্মিথ। ৭৭৪ রান করে ২০০১ সালের পর ইংল্যান্ডথেকে প্রথমবার অ্যাশেজ ঘরে নিয়ে যাওয়ায় রাখেন সবচেয়ে বড় অবদান।

২০১৭-১৮ মৌসুমে ঘরেরমাঠের অ্যাশেজেও স্মিথ ব্যাট ছিলেন দুর্দান্ত। ইংল্যান্ডকে ৪-০ ব্যবধানে হারানো সিরিজেরান করেছিলেন ১৩৭.৪০ গড়ে। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্টে ৭১ গড়ে রান করা এই ব্যাটসম্যানকেএবার পরীক্ষায় ফেলার জন্য সতীর্থ ব্যাটসম্যানদের সহায়তা চেয়েছেন ব্রড। ফিল্ডিংয়ে দীর্ঘসময় কাটিয়ে কেমন ব্যাটিং করেন স্মিথ, দেখতে চান ইংলিশ পেসার।

“স্টিভ স্মিথ ক্যারিয়ারজুড়ে ঘণ্টায় ৯০ মাইল গতির বলের বিপক্ষে ব্যাটিং করে আসছে, যেখানে তার ব্যাটিং গড় প্রায়৬৩। তবে তাকে দুই দিন ফিল্ডিং করে এবং প্রতিপক্ষের স্কোর বোর্ডে বিশাল রান দেখে ব্যাটিং করতে খুব একটা হয়নি।দ্বিতীয় দিনের সন্ধ্যা পর্যন্ত প্রতিপক্ষকে ফিল্ডিংয়ে রাখার মানসিকতা আমাদের প্রয়োজন।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক