মতামত

থানাপাড়া গণহত্যায় প্রত্যক্ষদর্শীরা যা দেখেছেন
শহীদদের তালিকা না হওয়া এবং শহীদ পরিবারগুলোর রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি না পাওয়া স্বাধীন বাংলাদেশকে আজও দারুণভাবে প্রশ্নবিদ্ধ করে।
সংবিধান প্রণেতাগণ-১২: মূলনীতিতে ধর্মনিরপেক্ষতা ও সমাজতন্ত্রের প্রশ্নে আপসহীন শামসুদ্দীন মোল্লা
ধর্মনিরপেক্ষতা ও সমাজতন্ত্রের প্রশ্ন নিয়ে খন্দকার মোশতাক আপত্তি উত্থাপন করলে শামসুদ্দীন মোল্লা বিনীত অথচ দৃঢ়ভাবে তার বিরোধিতা করে বলেছিলেন, ‘ধর্মনিরপেক্ষ না থাকলে বাংলাদেশ সৃষ্টির অস্তিত্ব থাকে না।’ ...
মধুসূদন: দ্বিশতবর্ষে পাঠ-পুনর্পাঠ
স্মৃতিকাতরতাধর্মী কবিতাগুলোই তো একমাত্র মাইকেল নয়, প্রধানতমও নয়। উপরন্তু, পাঠ্যপুস্তকের বুনিয়াদি শিক্ষা মাইকেলকে এই ফ্রেমে বন্দি করে ফেলেছে। ফলে, তাঁর প্রধানতম-প্রবলতম কীর্তি ও কৃতি জনপরিসরে জাগরণ সৃষ ...
রবীন্দ্রনাথ সরেন— লড়াইয়ের মাঠে দেদীপ্যমান
রবীনদা বহুমত্রিক সাংগঠনিক দক্ষতার অধিকারী একজন নেতা এবং একই সঙ্গে মাঠের কর্মী। আদিবাসী অধিকার আদায়ের লড়াইয়ে শেকড় ও শিখরের সমন্বয় ঘটাতে তিনি সফলতার পরিচয় দিয়েছিলেন।
দিনাজপুর মহারাজা গিরিজানাথ হাই স্কুল ট্রাজেডি
মুক্তিযুদ্ধকালীন সময়েও ১৯৭২ সালের ৬ জানুয়ারির গিরিজানাথ হাই স্কুল ট্রাজেডির মতো এত অধিকসংখ্যক মুক্তিযোদ্ধা একই স্থানে একই সঙ্গে শহীদ হয়েছেন এমন নজির নেই বলে জানা যায়।
সংবিধান প্রণেতাগণ-১১: বন্দুকের নলের মুখে মোশতাককে চ্যালেঞ্জ করেছিলেন সিরাজুল হক
‘শুধু মৌলিক অধিকার দিলেই হয় না, তাকে বলবৎ করার জন্য রক্ষাকবচ দরকার’
সংবিধান প্রণেতাগণ-৯: মোহাম্মদ খালেদের ডায়েরির পাতায় পাতায় বিচিত্র সব ঘটনা
‘নিজে সৎ ও বিশ্বস্ত ছিলেন বলে অন্যের সততা ও বিশ্বস্ততায় আস্থা রাখতেন।’
আবুল বাশার: এক শ্রমিকপ্রিয় নেতার স্মরণে
আবুল বাশার শুধু শ্রমিক আন্দোলনের ঐক্যের দিশারি ছিলেন না, তিনি বামপন্থী আন্দোলনেরও ঐক্যের প্রভাবক ছিলেন। ১৯৮৫ সালের শেষদিকে ঐক্যবদ্ধ বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির কংগ্রেসে তিনি সভাপতি নির্বাচিত হন।