ভারতে প্রথম মাঙ্কিপক্স আক্রান্তের সন্ধান কেরালায়

ভারতে প্রথম মাঙ্কিপক্স আক্রান্ত একজনের সন্ধান পাওয়া গেছে কেরালায়। তিনি সদ্য সংযুক্ত আরব আমিরাত (ইউএই) থেকে ফিরেছেন। পরীক্ষায় তার মাঙ্কিপক্স পজিটিভ পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছেন কেরালার স্বাস্থ্যমন্ত্রী বীণা জর্জ।

নিউজ ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 14 July 2022, 05:36 PM
Updated : 14 July 2022, 05:36 PM

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি-র প্রতিবেদনে বলা হয়, ওই ব্যক্তি কেরালার থিরুবান্থাপুরম বিমানবন্দরে পৌঁছান গত ১২ জুলাই। উপসর্গ দেখে তার নমুনা পাঠানো হয়েছিল পুণের গবেষণাগারে। সেখানেই তার মাঙ্কিপক্স ধরা পড়ে। তার বর্তমান অবস্থা স্থিতিশীল।

পরীক্ষার ফল পজিটিভ আসার পর কেন্দ্র একটি বিশেষ দল তৈরি করে কেরালায় পাঠিয়েছে। দলটিতে আছেন জাতীয় রোগ নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্র (এনসিডিসি)- এর বিশেষজ্ঞরা। দলটি রাজ্য সরকারকে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়া রুখতে সহায়তা করবে।

এএনআই বার্তা সংস্থাকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বীণা জর্জ বলেন, “ভয়ের কিছু নেই। সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। রোগীর অবস্থাও স্থিতিশীল। তার সংস্পর্শে যারা এসেছেন তাদেরকেও শনাক্ত করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছেন, ওই ব্যক্তির মা-বাবা, ট্যাক্সি চালক, অটোচালক এবং ফ্লাইটে তার ১১ জন সহযাত্রী।”

এর আগে বীণা জর্জ জানিয়েছিলেন, মাঙ্কিপক্স আক্রান্ত সন্দেহে একজনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার কাছ থেকে নেওয়া নমুনা ‍পুনের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব ভাইরোলজিতে পাঠানো হয়েছে। একই সময়ে কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে লিখিতভাবে বিভিন্ন রাজ্যকে পূর্বসতর্কতা অবলম্বন করতে বলা হয়।

ইউরোপ এবং আমেরিকায় সম্প্রতি মাঙ্কিপক্স ছড়িয়ে পড়া নিয়ে উদ্বেগ সৃষ্টি হয়েছে। আফ্রিকার বাইরে এর বিস্তার খুব বিরল হলেও ইদানিং বিশ্বের বেশ কয়েকটি দেশে মাক্সিপক্স ছড়ানোর কারণে এ রোগ কোভিডের মধ্যে আরেক মহামারী হয়ে দেখা দিতে পারে বলে শঙ্কা বাড়ছে।

ভারতে মাঙ্কিপক্স ঠেকাতে গত মে মাসেই সতর্কতা হিসেবে কিছু নির্দেশনা জারি করা হয়েছিল। সাধারণ ঘনিষ্ঠ সংস্পর্শ থেকে এ ভাইরাস ছড়ায়। ফলে আইসোলেশন ও পরিচ্ছন্নতার নিয়ম মেনে সহজেই এর বিস্তার ঠেকানো সম্ভব, বলছেন বিশেষজ্ঞরা।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক