আইপিও আবেদনে থাকতে হবে ৫০ হাজার টাকা

পুঁজিবাজারে তারল্য সরবরাহ বাড়াতে আইপিও আবেদনের শর্ত হিসেবে বিনিয়োগের পরিমাণ আড়াই গুণ বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি।

নিজস্ব প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 8 June 2022, 06:17 PM
Updated : 9 June 2022, 04:34 PM

আইপিও আবেদন করতে হলে এখন থেকে সাধারন বিনিয়োগকারীদের পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির শেয়ারে ন্যূনতম ৫০ হাজার টাকা বিনিয়োগ থাকতে হবে।

আগে আইপিও আবেদনের দিন বিও হিসাবে ২০ হাজার কোটি টাকার বাধ্যবাধকতা ছিল।

বুধবার কমিশন সভায় এ সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

আর প্রবাসী বাংলাদেশিরা (এনআরবি) আইপিও আবেদন করতে চাইলে সেকেন্ডারি মার্কেটের শেয়ারে অন্তত এক লাখ টাকা বিনিয়োগ থাকতে হবে। অর্থাত্ তাদের আগে থেকে ৮০ হাজার টাকা বেশি বিনিয়োগ করতে হবে।

বিএসইসি বলেছে, পুঁজিবাজারে তারল্য বাড়াতে, সাধারণ বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ অভ্যাস গড়ে তুলতে এবং আসল বিনিয়োগকারীকে আইপিও আবেদনে সুযোগ দিতে এই নিয়ম করেছে তারা।

পুঁজিবাজারে বর্তমানে ২০ লাখ ৮১ হাজার ৩০২টি বিও অ্যাকাউন্ট রয়েছে।

নতুন নিয়ম আইপিও শিকারীদের কাজ কঠিন করে দেবে পাশাপাশি পুঁজিবাজারে নতুন তহবিল নিয়ে আসবে।

বুধবার কমিশন সভায় একই সঙ্গে নাভানা ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেডকে আইপিওর মাধ্যমে পুঁজিবাজার থেকে ৭৫ কোটি টাকা তোলার এবং বিএসিইসি ব্লু ওয়েল ফার্স্ট ব্যালেন্স মিউচুয়াল ফান্ড নামে ২৫ কোটি টাকার একটি মিউচুয়াল ফান্ড অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক