‘বিপদে পড়া’ বেলারুশের সেই অ্যাথলেট যাচ্ছেন ভিয়েনা

কোচের সমালোচনা করে ‘বিপদে পড়া’ বেলারুশের অ্যাথলেট ক্রিস্তিয়ানা সিমানোসকায়া জাপান ছেড়েছেন। ২৪ বছর বয়সী এই অ্যাথলেট যাচ্ছেন অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায়।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 4 August 2021, 06:40 AM
Updated : 4 August 2021, 06:40 AM

সিমানোসকায়াকে মানবিক ভিসা দিয়েছিল পোল্যান্ড। কিন্তু শেষ মুহূর্তে তার গন্তব্য বদলেছে। এ কারণে তিনি ভিয়েনা যাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন বিমানবন্দরের অফিসিয়ালরা।

বিবিসিকে বেলারুশের এই অ্যাথলেট বলেন তার প্রতিক্রিয়া রাজনৈতিক ছিল না। দেশের প্রতি ভালোবাসার কথাও জানান তিনি।

“আমি আমার দেশকে ভালোবাসি এবং দেশের সঙ্গে বেঈমানী করতে চাই না। আমার প্রতিক্রিয়া ছিল ভুলটা নিয়ে, যেটা অলিম্পিকসে আমাদের অফিসিয়ালরা করেছিলেন।”

কোচদের সিদ্ধান্তে সমালোচনা করে সিমানোসকায়ার ঝামেলায় পড়ার খবর এসেছিল। তিনি অভিযোগ করেন, তাকে ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর করে দেশে পাঠানোর চেষ্টা করা হয়েছিল।

দেশে ফিরলে জীবন হুমকির মুখে পড়তে পারে বলে জানিয়েছিলেন এই দৌড়বিদ। আর তাই তিনি অস্ট্রিয়া কিংবা জার্মানির কাছে রাজনৈতিক আশ্রয় চাওয়ার পরিকল্পনা করেছিলেন।

সেসময় সিমানোসকায়া জানান, রোববার জোর করে তাকে বিমানবন্দরে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল দেশে ফেরত পাঠানোর জন্য। টেলিগ্রাম চ্যানেলের মাধ্যমে রয়টার্সকে তিনি বলেন, হানেদা বিমানবন্দরে পুলিশের সাহায্য নিয়েছেন তিনি যেন তাকে বিমানে তোলা না হয়।

“আমি বেলারুশে ফিরে যাব না।”

ক্রিস্তিয়ানার সোমবার মেয়েদের ২০০ মিটার দৌড়ে অংশ নেয়ার কথা ছিল।

২৪ বছর বয়সী এই অ্যাথলেট রয়টার্সকে আরও জানিয়েছিলেন, ইনস্টাগ্রামে তাদের কোচদের সিদ্ধান্ত নিয়ে সমালোচনা করায় তাকে দল থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে।

“আমাদের কিছু মেয়ের যথেষ্ট ডোপিং টেস্ট না হওয়ায় তারা ১০০ মিটার রিলেতে অংশ নেওয়ার জন্য এখানে আসতে পারেনি।”

“আর কোচ আমাকে না জানিয়ে আমার নাম রিলেতে অন্তর্ভুক্ত করেন। আমি এটা নিয়ে প্রকাশ্যে কথা বলেছিলাম। এরপর প্রধান কোচ এসে জানান, আমাকে বাদ দেওয়ার জন্য ওপর থেকে আদেশ দেয়া হয়েছে।”

বেলারুশের অলিম্পিক কমিটি এক বিবৃতিতে জানিয়েছিল, কোচরা ক্রিস্তিয়ানাকে গেমস থেকে বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন চিকিৎসকদের পরামর্শে। কারণ হিসাবে তার ‘মানসিক অবস্থার’ কথা বলা হয়েছে। গত মঙ্গলবার বিবিসিকে সিমানোসকায়া জানান তিনি কোনো মানসিক সমস্যায় ভুগছেন না এবং অলিম্পিক ভিলেজে ডাক্তারদের সঙ্গে এ নিয়ে তার কোনো কথাও হয়নি।

দেশটিতে রাজনৈতিক মতাদর্শের কারণে যেসব অ্যাথলেটের কারাদণ্ড হয় বা যথেষ্ট সুযোগ পান না তাদের সাহায্যে কাজ করা বেলারুশিয়ান স্পোর্ট সলিডারিটি ফাউন্ডেশনের এক সুত্র জানিয়েছে, ক্রিস্তিয়ানা সোমবার অস্ট্রিয়া কিংবা জার্মানির কাছে আশ্রয়ের আবেদন করার পরিকল্পনা করছেন।

টেলিগ্রামে বেলারুশিয়ান স্পোর্ট সলিডারিটি ফাউন্ডেশনের প্রকাশিত একটি ভিডিওতে সিমানোসকায়া আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটিকে এই বিষয়ে হস্তক্ষেপ করার অনুরোধ জানিয়েছিলেন।

পরে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির একজন মুখপাত্র জানান, সংস্থটির গভর্নিং বডি সংবাদমাধ্যমে আসা খবর দেখেছে এবং তারা বিষযটি খতিয়ে দেখছে। বেলারুশের অলিম্পিক কমিটির কাছে ঘটনার বিষয়ে জানতে চাওয়া হয়েছে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক