‘ব্যবধান কম থাকলে ভয়ে থাকে বার্সা’

ন্যূনতম ব্যবধানে এগিয়ে থাকলে ম্যাচের শেষ দিকে ভয়ের মধ্যে থাকে বার্সেলোনা- এমন দাবি স্বয়ং দলটির কোচ রোনাল্ড কুমানের। এমন পারিস্থিতিতে ম্যাচ শেষ করতে ফরোয়ার্ডদের আরও কার্যকর হওয়ার তাগিদ দিলেন তিনি।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 23 Feb 2021, 05:26 PM
Updated : 23 Feb 2021, 05:26 PM

লা লিগায় গত রোববার ঘরের মাঠে কাদিসের বিপক্ষে ১-১ ড্র করা ম্যাচে ৮১ শতাংশ বলের দখল ছিল বার্সেলোনার অনুকূলে। নির্ধারিত সময়ের দুই মিনিট আগে ডিফেন্ডার ক্লেমোঁ লংলের ভুলে পেনাল্টি গোল হজম করে তারা। গোলটিই ছিল লক্ষ্যে রাখা কাদিসের একমাত্র শট।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে পিএসজির বিপক্ষে হার ও কাদিসের বিপক্ষে অপ্রত্যাশিত হোঁচটের পর বুধবার বাংলাদেশ সময় রাত ১২টায় লিগে বার্সেলোনার প্রতিপক্ষ এলচে। তবে ম্যাচের আগের দিন সংবাদ সম্মেলনে কুমানকে বেশি কথা বলতে হলো কাদিস ম্যাচ নিয়ে।

“যখন আমরা কেবল এক গোলের ব্যবধানে এগিয়ে থাকি তখন সম্ভবত কিছুটা ভয়ের মধ্যে থাকি, এমনটা আগেও হয়েছে।”

প্রচুর সুযোগ তৈরি করেও প্রত্যাশিত সংখ্যক গোল না মেলায় দলের আক্রমণভাগ নিয়েও ভাবতে হচ্ছে বার্সেলোনা কোচ রোনাল্ড কুমানকে।

“প্রচুর বলের দখল ছিল আমাদের, ছিল অসংখ্য সুযোগ, তবু শেষ পর্যন্ত আমরা ১-১ ড্র করি। অবশ্য আমাকে এটাও বলতে হবে, অনেকবার আমরা দুর্ভাগ্যের শিকার হয়েছি, এটা অন্যায্য। প্রতিপক্ষ দলগুলো সবসময় খুব কম সুযোগেও আমাদের বিপক্ষে গোল করে।”

গত মাসে স্প্যানিশ সুপার কাপের ফাইনালে আথলেতিক বিলবাওয়ের বিপক্ষে ৮৯ মিনিট পর্যন্ত ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে ছিল বার্সেলোনা। নির্ধারিত সময়ের শেষ মিনিটে গোল হজমের পর অতিরিক্ত সময়ে গড়ানো ম্যাচে ৩-২ ব্যবধানে হারে তারা। গত ডিসেম্বরে লিগে ভালেন্সিয়ার বিপক্ষে এগিয়ে থাকার পরও ২-২ ড্র করে কাতালান দলটি।

তবে শুধু রক্ষণের দিকে আঙুল না তুলে আক্রমণভাগকেও দুষলেন ডাচ কোচ।

“সুযোগ তৈরি করা নিয়ে আমাদের কোনো সমস্যা নেই, তবে আমাদের ফরোয়ার্ডদের বলতে হবে আরও বেশি কার্যকর হতে। এই মৌসুমে আমরা প্রচুর সুযোগ তৈরি করেছি কিন্তু বার্সা দল হিসেবে গোল করার হার খুবই কম।”

কাদিস ম্যাচের পর গাড়ি চালিয়ে বাড়ি ফেরার সময় কাঁদছিলেন লংলে। ব্যাপারটা নিয়ে ফরাসি এই ডিফেন্ডারের সঙ্গে কথা হয়েছে বলেও জানান মৌসুমের শুরুতে কাম্প নউয়ের দলটির দায়িত্ব নেওয়া কুমান।

“এটা নিয়ে আজ সকালে তার সঙ্গে কথা বলেছি। এসব বিষয়ে সে খুবই সিরিয়াস, দারুণ পেশাদারি এবং এটাকে সে খুবই ব্যক্তিগতভাবে নিয়েছে। অবশ্যই সে আরও ভালো করতে পারত এবং চলতি মৌসুমে আমরা যে ভুলগুলো করেছি তার কিছু অংশের জন্য সেও দায়ী।”

“তবে আমরা আক্রমণভাগেও ভুল করেছি এবং আমরা যদি ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে থাকতাম তাহলে ম্যাচটা এমন মতো না।”

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক