নেইমার না লেভানদোভস্কি, পার্থক্য গড়ে দেবেন কে?

একজন দলের মূল স্ট্রাইকার, গোল করাই যার কাজ। অন্যজনের কাঁধে মূলত আক্রমণ গড়ার দায়িত্ব। ম্যাচের পর ম্যাচ পার্থক্য গড়ে দিচ্ছেন তারা, হয়ে উঠেছেন দলের সাফল্যের নায়ক। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে বায়ার্ন মিউনিখের গোল মেশিন রবের্ত লেভানদোভস্কি না পিএসজি আক্রমণের প্রাণ নেইমার-কে হবেন ফল নির্ধারক?

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 22 August 2020, 05:14 PM
Updated : 22 August 2020, 07:28 PM

পর্তুগালের লিসবনে রোববার বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় শিরোপা লড়াইয়ে নামবে বায়ার্ন ও পিএসজি। ইউরোপ সেরা প্রতিযোগিতায় এ নিয়ে একাদশবারের মতো ফাইনালের মঞ্চে জার্মান চ্যাম্পিয়নরা; ফরাসি চ্যাম্পিয়নরা প্রথমবার।

চলতি মৌসুমে সবাই যেন লেভানদোভস্কির ছায়ায় চাপা পড়ে যাচ্ছেন। পাঁচ শীর্ষ লিগ মিলিয়ে একমাত্র ফুটবলার হিসেবে মৌসুমে করেছেন পঞ্চাশের বেশি গোল। চোটের জন্য লম্বা একটা সময় বাইরে থাকা নেইমার খেলছেন দুর্দান্ত। স্রেফ গোল পাচ্ছেন না, করছেন আর সবই। ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড খেলছেন নজরকাড়া ফুটবল।

পোল্যান্ড ও জার্মানির ঘরোয়া লিগে এ পর্যন্ত ৯টি শিরোপা জিতেছেন লেভানদোভস্কি। এর মধ্যে বায়ার্নের হয়েই পেয়েছেন ছয়টি বুন্ডেসলিগা শিরোপার স্বাদ। অবশ্য চ্যাম্পিয়ন্স লিগ শিরোপা এখনও অধরাই রয়ে গেছে ৩২ বছর বয়সী এই স্ট্রাইকারের।

সান্তোসে সফল অধ্যায় শেষে বার্সেলোনায় পাড়ি জমান নেইমার। নতুন ঠিকানায় দ্রুত মানিয়ে নিয়ে এখানেও সাফল্যের পথে হাঁটা শুরু করেন তিনি। পিএসজিতে পাড়ি জমানোর আগে কাতালুনিয়ার দলটির হয়ে দুটি লা লিগা ও একটি চ্যাম্পিয়ন্স লিগসহ আরও অনেক শিরোপা জেতেন ব্রাজিলিয়ান তারকা। আর প্যারিসের দলটির হয়ে এ পর্যন্ত তিনটি লিগ ওয়ান শিরোপা জিতেছেন ২৮ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের এবারের আসরে শুরু থেকে আলো ছড়াচ্ছেন লেভানদোভস্কি। গ্রুপ পর্বেই করেছেন ১০ গোল; রেড স্টার বেলগ্রেডের মাঠে প্রথম লেগে দলের ৬-০ ব্যবধানের জয়ে হ্যাটট্রিকসহ উপহার দেন চার গোল। অন্যদিকে, দেরিতে শুরু করা নেইমার গ্রুপ পর্বে একটি ও নকআউট পর্বে দুটি গোল পেয়েছেন।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ গোল (২০১৯-২০ মৌসুম)

খেলোয়াড়

ম্যাচ

গোল

অ্যাসিস্ট

লেভানদোভস্কি

৯টি

১৫টি

৬টি

নেইমার

৬টি

৩টি

৪টি

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে স্থগিত থাকা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ পুনরায় শুরুর পর দারুণ ছন্দে আছেন নেইমার। গোল সংখ্যা ব্যর্থ তার প্রভাব বোঝাতে। প্রতিটি ম্যাচেই প্রতিপক্ষের রক্ষণে ভীতি ছড়িয়েছেন, সতীর্থদের জন্য জায়গা তৈরি করে দিয়েছেন।

চলতি আসরে এ পর্যন্ত লক্ষ্যে রাখা ২৯টি শটের ১৫টিতেই ঠিকানা খুঁজে পেয়েছেন লেভানদোভস্কি। পোস্ট বা ক্রসবারে লেগে ব্যর্থ হয়নি তার কোনো শট। সেখানে নেইমারের লক্ষ্য থাকা ছয় শটের তিনটিই ব্যর্থ হয়েছে পোস্টে লেগে।

উচ্চতায় কিছুটা এগিয়ে বায়ার্ন স্ট্রাইকার; ১ দশমিক ৮৪ মিটার উচ্চতা তার। নেইমারের উচ্চতা ১ দশমিক ৭৫ মিটার। এখন পর্যন্ত এই সুবিধা দারুণভাবে কাজে লাগাতে পেরেছেন লেভানদোভস্কি। নেইমার একেবারেই পারেননি।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ২০১৯-২০ মৌসুম হিসেবে

খেলোয়াড়

পায়ের শটে গোল

হেডে গোল

লেভানদোভস্কি

১১টি

৪টি

নেইমার

৩টি

-

দুজনেই ২০১৯-২০ মৌসুমে লিগ শিরোপার স্বাদ পেয়েছেন। দুজনেরই সামনে মৌসুমে সম্ভব সব শিরোপা জয়ের হাতছানি। প্রলম্বিত মৌসুমে শেষ হাসি কে হাসবেন নেইমার না লেভানদোভস্কি?

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক