বড় স্বপ্ন নিয়ে ওমান যাচ্ছে বাংলাদেশ

ওমানের বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ হতে এখনও প্রায় দুই সপ্তাহের মতো বাকি। তবে কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিতে আগেভাগেই রওনা দিচ্ছে বাংলাদেশ দল। প্রস্তুতি ক্যাম্পও হবে প্রতিপক্ষের আঙিনায়।

ক্রীড়া প্রতিবেদকবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 2 Nov 2019, 12:04 PM
Updated : 2 Nov 2019, 12:09 PM

২০২২ কাতার বিশ্বকাপ ও ২০২৩ সালেরএশিয়ান কাপের বাছাইয়ের দ্বিতীয় রাউন্ডে ‘ই’ গ্রুপে নিজেদের চতুর্থ ম্যাচে ওমানেরবিপক্ষে খেলবে বাংলাদেশ। ম্যাচটি মাঠে গড়াবে আগামী ১৪ নভেম্বর।

আফগানিস্তানের কাছে ১-০ গোলে হেরে দ্বিতীয়রাউন্ড শুরু করা বাংলাদেশ নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে কাতারের কাছে বঙ্গবন্ধু জাতীয়স্টেডিয়ামে ২-০ গোলে হেরেছিল। আর ভারতের বিপক্ষে তাদেরই মাঠে ১-১ ড্র করেছিল জেমিডের দল।

ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে ওমানের চেয়ে ১০০ধাপ পিছিয়ে থাকা বাংলাদেশের প্রত্যাশা বেড়েছে অক্টোবরে সল্ট লেক স্টেডিয়ামে ভারতেরবিপক্ষে ড্রয়ের পর থেকে। ওমানের বিপক্ষে দারুণ লড়াইয়ের আশাবাদ শুনিয়ে তাই আগে রওনাদেওয়ার কথা জানালেন টিম ম্যানেজার সত্যজিৎ দাস রুপু।

“আগামীকাল (রোববার) রাত পৌনে দশটায়আমরা ওমানের পথে রওনা দিব। দলের সঙ্গে জামাল ভূইয়া নেই। সে স্পেন থেকে আগামীসোমবার দলের সঙ্গে যোগ দিবে। কোচ জেমি ডেও ছুটি শেষ করে যুক্তরাষ্ট্র থেকে ওমানেযাবেন একই দিনে।”

“ভারত ম্যাচের পর খেলোয়াড়দেরবিশ্রাম দেওয়া হয়েছিল। বসুন্ধরা কিংস ও চট্টগ্রাম আবাহনীর হয়ে শেখ কামালআন্তর্জাতিক ক্লাব কাপে জাতীয় দলের কয়েকজন খেলোয়াড় খেলার মধ্যে ছিল। বাকিদের কোচনির্দেশনা দিয়ে রেখেছিলেন প্রস্তুতির। আমাদের দৃঢ় বিশ্বাস, ওমানে দ্রুত গোল নাখেলে ভালো প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে।”

ওমানে স্থানীয় লিগের একটি দলেরসঙ্গে ৯ তারিখে বাংলাদেশের একটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার কথা রয়েছে। বাংলাদেশ ফুটবলফেডারেশনের সাধারণ সম্পদক আবু নাঈম সোহাগ জানালেন, প্রস্তুতি ম্যাচের দলটি চূড়ান্তহয়নি এখনও।

২৩ জনের দলে একমাত্র পরিবর্তনআবাহনী লিমিটেডের মিডফিল্ডার জুয়েল রানার জায়গায় রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস অ্যান্ডসোসাইটির মিডফিল্ডার রাকিব হোসেনের জায়গা পাওয়া। আগামী ডিসেম্বরে নেপালে হতে যাওয়াএসএ গেমসে অনূর্ধ্ব-২৩ দল খেলবে বলে জুয়েলের জায়গায় রাকিবকে নেওয়ার কথা জানানরুপু। বাহরাইনে এএফসি অনূর্ধ্ব-১৯ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাই শেষ করে ইয়াসিন আরাফাতওমানের ক্যাম্পে ১২ নভেম্বর যোগ দিবেন বলেও জানান তিনি।

টানা খেলার কারণে খেলোয়াড়দেরক্লান্তির বিষয়টিও ওমানের অনুশীলনে মাথায় রাখা হবে বলে জানান সহকারী কোচ মাসুদপারভেজ কায়সার।

ওমান ম্যাচের লক্ষ্য নিয়ে গোলরক্ষকআশরাফুল ইসলাম রানা অবশ্য বড় স্বপ্নই দেখালেন শনিবারের সংবাদ সম্মেলনে।

“ভারত ম্যাচের পর অনেকে শেখ কামালআন্তর্জাতিক ক্লাব কাপ দিয়ে খেলার মধ্যে আছে। বাকিদের ইনডিভিজুয়্যাল ট্রেনিংশিডিউল কোচ দিয়ে গিয়েছিলেন। সবাই সেটা অনুসরণ করেছে, যাতে জাতীয় দলের অনুশীলনেরশুরুতে ফিটনেস নিয়ে কাজ করতে না হয়।”

“আমরা হারতে যাব না। জিততেই যাব।ফিটনেস ভালো থাকলে আশা করি, ওমানের বিপক্ষে ভালো করতে পারব। যদিও ওরা আমাদের চেয়েশক্তিশালী দল। তাছাড়া ওরা নিজেদের মাঠে খেলবে। কাতার ম্যাচে আমরা যেমন নিজেদেরমাঠে খেলার সুবিধা পেয়েছিলাম, ওমানও তাই পাবে। তবে আমরা জিততেই যাচ্ছি।”

২৩ জনের দল: শহিদুলআলম সোহেল, আশরাফুল ইসলাম রানা, আনিসুর রহমান জিকো, রায়হান হাসান, টুটুল হোসেনবাদশা, সাদউদ্দিন, মামুনুল ইসলাম, সোহেল রানা, নাবীব নেওয়াজ জীবন, মাহবুবুর রহমানসুফিল, তৌহিদুল আলম সবুজ, মতিন মিয়া, মোহাম্মদ ইব্রাহিম, বিপলু আহমেদ, বিশ্বনাথঘোষ, ইয়াসিন খান, জামাল ভূইয়া, রহমত মিয়া, রিয়াদুল হাসান রাফি, ইয়াসিন আরাফাত,রবিউল হাসান, আরিফুর রহমান ও রাকিব হোসেন।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক