পিএসজির জয়ে দি মারিয়ার গোল

প্রথম একাদশে সুযোগ পেয়ে দলকে এগিয়ে দেন আনহেল দি মারিয়া। দ্বিতীয়ার্ধে ব্যবধান বাড়ান ক্রিস্তোফা এনকুঙ্কু। দুর্বল তোয়াকে হারিয়ে লিগ ওয়ানে আবারও ১৪ পয়েন্টে এগিয়ে গেছে শীর্ষে থাকা পিএসজি।

স্পোর্টস ডেস্কবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 3 March 2018, 06:00 PM
Updated : 3 March 2018, 06:18 PM

শনিবার লিগ টেবিলের অবনমন অঞ্চলের দল তোয়ার মাঠে ২-০ গোলে জিতেছে উনাই এমেরির দল।

পায়ে চোট পেয়ে লম্বা সময়ের জন্য আগেই ছিটকে পড়েছেন নেইমার। তবে সামনে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বাঁচা-মরার লড়াই থাকাতেই বুঝি কিলিয়ান এমবাপে ও এদিনসন কাভানিসহ গত বুধবার মার্সেইয়ের বিপক্ষে খেলা ছয়জনকে বাইরে রেখে দল সাজান এমেরি।

গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়দের ছাড়া পিএসজিকে ম্যাচের প্রথমার্ধে ঠিক চেনা রূপে দেখা যায়নি। প্রায় ৭৫ শতাংশ সময় বল দখলে রেখে আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলে গেলেও সাফল্য মেলেনি। আনহেল দি মারিয়া ও জিওভানি লো সেলসোর দুটি উল্লেখযোগ্য প্রচেষ্টা ঠেকিয়ে দেন স্বাগতিক গোলরক্ষক।

ছন্দে থাকা দি মারিয়ার নৈপুণ্যে ৪৭তম মিনিটে এগিয়ে যায় পিএসজি। প্রতিপক্ষের দুর্বল হেডে আলগা বল ইউলিয়ান ড্রাক্সলারকে বাড়িয়ে ডি-বক্সে ঢুকে পড়েন আর্জেন্টাইন উইঙ্গার। সতীর্থের ফিরতি পাস পেয়ে গোলরক্ষকের মাথার উপর দিয়ে লক্ষ্যভেদ করেন তিনি।

এই নিয়ে শেষ চার ম্যাচে ৪ গোল করলেন দি মারিয়া। গত বুধবার ফরাসি কাপের শেষ আটে মার্সেইয়ের বিপক্ষে প্রথম একাদশে নেমে দুবার জালে বল পাঠিয়েছিলেন তিনি।

৬৮তম মিনিটে তোয়ার গোলরক্ষক প্রতিপক্ষের আক্রমণে বল ঠিকমতো ঠেকাতে ব্যর্থ হলে গোললাইন থেকে ফেরান ফরাসি ডিফেন্ডার জেরেমি।

৭৭তম মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন ক্রিস্তোফা এনকুঙ্কু। ডান দিক থেকে দানি আলভেসের ক্রস পেয়ে ডান পায়ের শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন ফরাসি মিডফিল্ডার।

২৮ ম্যাচে ২৪ জয় ও দুই ড্রয়ে ৭৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে পিএসজি। দ্বিতীয় স্থানে থাকা মোনাকোর পয়েন্ট ৬০।

ইউরোপ সেরা প্রতিযোগিতায় শেষ ষোলোর প্রথম লেগে রিয়াল মাদ্রিদের কাছে ৩-১ গোলে হেরে ছিটকে পড়ার শঙ্কায় আছে পিএসজি। তবে ওই হারের পর লিগ ও ফরাসি কাপ মিলিয়ে টানা চার ম্যাচ জয়ের আত্মবিশ্বাস নিয়ে আগামী মঙ্গলবার ফিরতি পর্বে ঘরের মাঠে রিয়ালের মুখোমুখি হবে প্যারিসের ক্লাবটি।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক