পাবনায় সর্বহারার নামে `চাঁদা দাবি’, গুলিবর্ষণের অভিযোগ

পাবনায় পূর্ববাংলা সর্বহারা পার্টির নামে চাঁদা দাবি, নির্মাণ এলাকায় হামলা ও গুলির্বষণের অভিযোগ করেছেন এক ব্যবসায়ী।

পাবনা প্রতিনিধিবিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published : 18 July 2022, 05:40 PM
Updated : 18 July 2022, 05:40 PM

রোববার রাতের এ ঘটনার অভিযোগ তুলে ওই ঠিকাদার সোমবার থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে গুলির খোসা ও আলামত সংগ্রহ করার কথা জানিয়েছে।

অভিযোগকারী ঠিকাদার শেখ রাসেল আলী মাসুদ বলেন, সাদুল্লাহপুর ইউনিয়নের তেলিগ্রাম ঢালীপাড়ায় প্রায় ৮০ লাখ টাকা ব্যয়ে বিএডিসির সড়ক উন্নয়ন কাজ করছে তার প্রতিষ্ঠান। এক মাস ধরে সর্বহারা পার্টির নামে অপরিচিত লোক ফোন করে ২০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করছিল।

“বিষয়টিতে গুরুত্ব না দেওয়ায় রোববার সন্ধ্যার পর ঢালীপাড়া সাইটে সাত আটজনের একটি দল সশস্ত্র হামলা চালিয়ে গুলিবর্ষণ শুরু করে। তারা এস্কেভেটরে গুলি চালিয়ে কাচ ভেঙে দেয়।”

এ সময় সাইটে থাকা শ্রমিকরা ভয়ে দিগ্বিদিক ছুটে পালিয়ে যান বলেও তিনি অভিযোগ করেন।

চাঁদা না দিলে এ এলাকায় কাজ করতে দেওয়া হবে না জানিয়ে তারা সর্বহারা পার্টির নামে শ্লোগান দিতে দিতে চলে যায় বলে ঠিকাদার মাসুদ বলেন।

প্রত্যক্ষদর্শী সাইট ম্যানেজার মামুন হোসেন বলেন, রোববার মাগরিবের নামাজের পরে ছয় সাতজন অপরিচিত যুবক এসে ঢালীপাড়ায় রাস্তার কাজ বন্ধ করতে বলেন। আমরা বিষয়টি গুরুত্ব না দেওয়ায় তারা অস্ত্র উঁচিয়ে গুলি করতে শুরু করে। মাটিকাটার কাজে ব্যবহৃত ভেকু গাড়িতে কয়েক রাউন্ড গুলি ছুড়ে কাচ ভেঙে, গাড়ি অকেজো করে দেয়।

“তাদের সঙ্গে কথা না বলে কাজ চালানোর চেষ্টা হলে ভয়াবহ পরিণতি হবে বলেও হুমকি দেয়।”

প্রত্যক্ষদর্শী শ্রমিক ও এলাকাবাসী জানান, হামলাকারীরা ঘটনাস্থলে বেশকিছু লিফলেটও ছড়িয়ে দিয়ে গেছে। লিফলেটে সম্প্রতি পাবনা-রাজবাড়ী সীমান্তবর্তী ঢালারচরের রাখালগাছিতে হামলায় নিহত আওয়ামী লীগ নেতা আক্কাস আলী হত্যা তারা করেছে বলে জানায়।

এদিকে, ঘটনার পর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বেশকিছু গুলির খোসা ও আলামত সংগ্রহ করেছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম বলেন, ঠিকাদারের কাছে খবর পেয়ে গতরাতেই পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আলামত সংগ্রহ করেছে। সর্বহারা পার্টির নামে এ ধরনের লিফলেট বেশ কিছুদিন ধরেই ছড়ানো হচ্ছে। আইনশৃংখলা বাহিনী চরমপন্থি সন্ত্রাসীদের নেটওয়ার্ক ভেঙে দিয়েছে। বিচ্ছিন্নভাবে এরা আবার সংগঠিত হওয়ার চেষ্টা করছে। পুলিশ গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে মাঠে কাজ করছে। বিশৃংখলাকারীদের বিরুদ্ধে পুলিশ কঠোর অবস্থানে রয়েছে।

মাসুদ আলম আরও বলেন, ঠিকাদারি সাইটে হামলার ঘটনায় ঠিকাদার আতাইকুলা থানায় অভিযোগ দিয়েছেন। পুলিশের একাধিক দল বিষয়টি নিয়ে কাজ করছে। সন্ত্রাসীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।

২০১৯ সালের ৯ এপ্রিল পাবনার শহীদ আমিনউদ্দিন স্টেডিয়ামে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসার প্রতিশ্রুতিতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের কাছে আত্মসমর্পণ করেন এ অঞ্চলের প্রায় ছয়শ চরমপন্থি।

এর আগে ১৯৯৯ সালেও সর্বহারা পার্টির সদস্যরা সরকারের কাছে আত্মসমর্পণ করে।

তৌফিক ইমরোজ খালিদী
প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক